BREAKING NEWS

৪ আশ্বিন  ১৪২৭  মঙ্গলবার ২২ সেপ্টেম্বর ২০২০ 

Advertisement

প্রতিরক্ষায় ‘আত্মনির্ভর’ ভারত, এবার লাদাখের আকাশে টহল স্বদেশি হেলিকপ্টারের

Published by: Monishankar Choudhury |    Posted: August 13, 2020 1:32 pm|    Updated: August 13, 2020 1:32 pm

An Images

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: প্রতিরক্ষা ক্ষেত্রে আত্মনির্ভর হওয়ার পথে আরও এক কদম এগিয়ে গেল ভারত। এবার চিনা আগ্রাসনের জবাবে লাদাখে মোতায়েন করা হয়েছে সম্পূর্ণ দেশীয় প্রযুক্তিতে নির্মিত ‘লাইট কমব্যাট হেলিকপ্টার’ (LCH)।

[আরও পড়ুন: করোনা আক্রান্ত রাম মন্দির ট্রাস্টের প্রধান, ভূমিপুজোয় প্রধানমন্ত্রীর সঙ্গে ছিলেন মঞ্চে]

জানা গিয়েছে, দেশীয় বিমান নির্মাণকারী সংস্থা Hindustan Aeronautics Limited (HAL) নির্মিত দু’টি LCH প্রকৃত নিয়ন্ত্রণরেখা বরাবর লাদাখের আকাশে টহল দিচ্ছে। অত্যন্ত হালকা ওজনের বিমানগুলিতে রয়েছে ৭০ মিলিমিটার রকেট ও অত্যাধুনিক স্বয়ংক্রিয় কামান। লাদাখের মতো পাহাড়ি অঞ্চলে কাজ করার জন্য বিশেষভাবে স্থলসেনা ও বায়ুসেনার জন্য এই হেলিকপ্টারটি তৈরি করা হয়েছে। চলতি বছরের শেষের দিকেই আর্মির জন্য পাঁচটি ও এয়ারফোর্সের জন্য দশটি হালকা হেলিকপ্টার তৈরির বরাত পাবে বলে মনে করছে HAL। দেশীয় প্রযুক্তিতে তৈরি চপারটি নিয়ে HAL-এর চেয়ারম্যান আর মাধবন বলেন, “এটি বিশ্বের সবচেয়ে হালকা হেলিকপ্টার। ভারতীয় সেনাবাহিনীর চাহিদার কথা মাথায় রেখে ও প্রতিরক্ষা ক্ষেত্রে আত্মনির্ভর হওয়ার লক্ষ্যে এই চপারগুলি তৈরি করেছে আমাদের সংস্থা।”

এদিকে, প্রকৃত নিয়ন্ত্রণ রেখায় মোতায়েন হলেও যুদ্ধের জন্য সম্পূর্ণ তৈরি হয় হালকা হেলিকপ্টারগুলি বলে জানিয়েছেন HAL আধিকারিকরা। বর্তমানে এটিতে বর্ম ও আকাশ থেকে আকাশে হামলায় সক্ষম কোনও হাতিয়ার নেই। তবে এই দিশায় কাজ চলছে। দ্রুত চপারটিতে সমস্ত হাতিয়ার জুড়ে দেওয়া হবে। প্রসঙ্গত, দেশীয় শিল্প মজবুত কীর্তয়ে ও প্রতিরক্ষায় আত্মনির্ভর হওয়ার লক্ষ্যে বেশ কিছু হাতিয়ার ও সামরিক সরঞ্জামের আমদানিতে নিষেধাজ্ঞা আরোপ করেছে কেন্দ্র। ওই তালিকায় রয়েছে লাইট কমব্যাট হেলিকপ্টারও। বর্তমানে ফৌজের চাহিদা মেটাতে প্রয়োজন অন্তত ১৫০টি হালকা হেলিকপ্টারের। যুদ্ধ ক্ষেত্রে ইনফ্যান্টরি ডিভিশনগুলিকে মদত দেবে এই চপারগুলি।

উল্লেখ্য, লালফৌজের আগ্রাসনের কথা মাথায় রেখে লাদাখ সীমান্তে মিরাজ, সুখোই, মিগ-২৯ এর মতো কমব্যাট ফাইটার জেট চক্কর দিচ্ছে। এমনকী বায়ুসেনার শক্তি আরও বাড়াতে আমেরিকার থেকে সদ্য কেনা পাঁচটি অ্যাপাচে হেলিকপ্টার (Apache Chopper) পাঠানো হবে লাদাখ সীমান্তে। বিশ্বের অত্যাধুনিক মাল্টিরোল হেলিকপ্টারগুলির মধ্যে অ্যাপাচে এএইচ-৬৪ অন্যতম। ২০১৫ সালে প্রথম বোয়িংকে ২২টি বিধ্বংসী অ্যাপাচে কপ্টারের বরাত দেয় ভারত। সব মিলিয়ে চিনকে রুখতে সীমান্তে তৎপর ভারতীয় সেনা।

[আরও পড়ুন: সম্প্রীতির নজির, জন্মাষ্টমীর দিন জন্মানোয় ছেলের নাম কৃষ্ণ রেখেছেন মুসলিম ব্যক্তি]

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement