BREAKING NEWS

১৪ মাঘ  ১৪২৯  রবিবার ২৯ জানুয়ারি ২০২৩ 

READ IN APP

Advertisement

দুর্নীতির প্রতিবাদ করায় গুলিবিদ্ধ হতে হয়েছিল, ইউপিএসসিতে সফল উত্তরপ্রদেশের সেই আধিকারিক

Published by: Tiyasha Sarkar |    Posted: June 1, 2022 4:21 pm|    Updated: June 1, 2022 4:25 pm

Uttar Pradesh officar shot for uncovering scam, clear UPSC | Sangbad Pratidin

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: দুর্নীতির প্রতিবাদ করার শাস্তি পেতে হয়েছিল তাঁকে। দুষ্কৃতীরা সাতটি গুলি চালিয়েছিল তাঁর উপরে। এক চোখে দৃষ্টিশক্তি হারিয়েছিলেন। শোনার ক্ষমতাও কমে গিয়েছিল। এত প্রতিকূলতাতেও না দমে ইউপিএসসি পরীক্ষায় বসেছিলেন তিনি। ৬৩৮ র‍্যাংক করে পাস করেছেন এই পরীক্ষা। রিঙ্কু সিং রাহি নামে এই অফিসার উত্তরপ্রদেশ সিভিল সার্ভিস পরীক্ষায় পাশ করে সরকারি দপ্তরে এখন কর্মরত।

২০০৪ সালে উত্তরপ্রদেশ (Uttar Pradesh) সিভিল সার্ভিস পরীক্ষায় পাস করে কাজে যোগদান করেন রিঙ্কু। সমাজ কল্যাণ দপ্তরে তাঁর পোস্টিং হয়। চার বছর পরে ৮৩ কোটি টাকা দুর্নীতির পর্দাফাঁস করেন। উত্তরপ্রদেশের মুজফ্ফরনগরে পড়ুয়াদের স্কলারশিপ দেওয়া নিয়ে এই দুর্নীতি হয়েছিল। অভিযুক্তদের মধ্যে চার জনের জেল হয়। কিন্তু এই কাজ করার ফলে হামলার মুখে পড়তে হয় রিঙ্কুকে। সাতটি গুলি লাগে তাঁর শরীরে। মুখে গুলি লাগার ফলে মুখের আকৃতি খারাপ হয়ে যায়।

[আরও পড়ুন: প্রাক্তন বিজেপি মন্ত্রীদের বিরুদ্ধে দুর্নীতি তদন্ত, ঝাড়খণ্ড সরকারের নির্দেশে ‘বদলার’ অভিযোগ বিরোধীদের]

চাকরির (Uttar Pradesh Officer) পাশাপাশি একটি কোচিং সেন্টারে আইএএস হতে চাওয়া পড়ুয়াদের প্রশিক্ষণও দেন রিঙ্কু। মূলত সেখানকার ছাত্র-ছাত্রীদের জোরাজুরিতেই ইউপিএসসি (UPSC) পরীক্ষায় বসেন তিনি। এই বছরই শেষ বারের মতো ইউপিএসসি পরীক্ষায় বসার সুযোগ ছিল তাঁর সামনে। চাকরির মধ্যে সময় বের করা পড়াশোনা করা খুব কঠিন ছিল। কিন্তু তাও যথা সম্ভব চেষ্টা চালিয়ে গিয়েছেন রিঙ্কু। তার ফলও পেয়েছেন।

উচ্ছ্বসিত রিঙ্কু বলেছেন, “গুলি লেগে আমার এক চোখের দৃষ্টিশক্তি চলে গিয়েছিল। তাও আমার ছাত্ররা বারবার আমাকে ইউপিএসসি পরীক্ষায় বসতে অনুরোধ করত। ওদের কথা ফেলতে পারিনি। তাই প্রস্তুতি নিয়ে পরীক্ষায় বসেছিলাম।” বহুদিন ধরেই সিভিল সার্ভেন্ট হিসাবে কাজ করছেন তিনি। সেই প্রসঙ্গে রিঙ্কু বলেছেন, “আমার কাছে জনতার স্বার্থই সব। যদি ব্যক্তিগত স্বার্থ এবং জনস্বার্থের মধ্যে একটা বেছে নিতে হয়, আমি জনস্বার্থকেই বেছে নেব।”

ইতিমধ্যেই গুলিবিদ্ধ হয়ে এত ক্ষতি হয়েছে জীবনে। কিন্তু তাতে ভয় পাচ্ছেন না রিঙ্কু। আট বছর বয়সি এক পুত্রের বাবা রিঙ্কু বলেছেন, “আমি তৈরি। প্রথমবার গুলি খেলেও পরের সমস্ত হামলার মোকাবিলা করতে প্রস্তুত আমি।”

[আরও পড়ুন: ‘রাম মন্দির হবে দেশের জাতীয় মন্দির’, গর্ভগৃহের শিলান্যাসের পরে মন্তব্য যোগীর

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে