BREAKING NEWS

১৪  আশ্বিন  ১৪২৯  বুধবার ৫ অক্টোবর ২০২২ 

READ IN APP

Advertisement

Advertisement

উত্তরাখণ্ডের পর উত্তরপ্রদেশেও চালু হতে পারে অভিন্ন দেওয়ানি বিধি! ইঙ্গিত যোগীর ডেপুটির

Published by: Subhajit Mandal |    Posted: April 23, 2022 5:39 pm|    Updated: April 23, 2022 5:48 pm

Uttar Pradesh to push for Uniform Civil Code, hints Deputy CM Keshav Prasad Maurya | Sangbad Pratidin

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: উত্তরাখণ্ডের পর এবার উত্তরপ্রদেশ। এবার অভিন্ন দেওয়ানি বিধি কার্যকর করার ইঙ্গিত দিলেন দেশের সবচেয়ে বড় রাজ্যের উপমুখ্যমন্ত্রী কেশবপ্রসাদ মৌর্য (Keshav Prasad Maurya)। তাঁর বক্তব্য, উত্তরপ্রদেশের মতো রাজ্যে অভিন্ন দেওয়ানি বিধি অত্যন্ত প্রয়োজনীয়। দরকার পড়লে আমরাও সেটা চালু করার চেষ্টা করব।

এক বিজেপি (BJP) শাসিত রাজ্য উত্তরাখণ্ড ইতিমধ্যেই অভিন্ন দেওয়ানি বিধি লাগু করার উদ্যোগ নিয়েছে। ভোটের আগেই সেরাজ্যের মুখ্যমন্ত্রী পুষ্কর সিং ধামি (Pushkar Singh Dhami) প্রতিশ্রুতি দিয়েছিলেন, বিজেপি ক্ষমতায় ফিরলে অভিন্ন দেওয়ানি বিধি লাগু করার চেষ্টা করা হবে। সেই প্রতিশ্রুতিমতো ক্ষমতায় ফিরতেই ধামি নিজের লক্ষ্যে কাজ শুরু করে দিয়েছেন। কোনও রাজ্য সরকার এভাবে অভিন্ন দেওয়ানি বিধি কার্যকর করতে পারে কিনা, সেটা নিয়ে আইনি পরামর্শও নেওয়া শুরু করে ফেলেছে উত্তরাখণ্ডের বিজেপি (BJP) সরকার।

[আরও পড়ুন: বাদ ফৈজের কবিতা, ধর্মনিরপেক্ষতা সংক্রান্ত একাধিক অধ্যায়! CBSE’র নয়া সিলেবাস ঘিরে বিতর্ক]

আরেক বিজেপি শাসিত রাজ্য উত্তরপ্রদেশও আগামী দিনে উত্তরাখণ্ডের দেখানো পথে হাঁটতে পারে। শনিবার তেমনই ইঙ্গিত দিয়েছেন সেরাজ্যের উপমুখ্যমন্ত্রী কেশবপ্রসাদ মৌর্য। তিনি জানিয়েছেন,”প্রত্যেকের উচিত অভিন্ন দেওয়ানি বিধি (Uniform Civil Code) চাওয়া এবং অভিন্ন দেওয়ানি বিধির উদ্যোগকে সমর্থন করা। উত্তরপ্রদেশ সরকারও সেই দিশাতেই এগোচ্ছে।” মৌর্যর সাফ কথা, উত্তরপ্রদেশ এবং গোটা দেশের জন্য অভিন্ন দেওয়ানি বিধি ভীষণ জরুরি। তাছাড়া এটা আমাদের নির্বাচনী প্রতিশ্রুতিও।

[আরও পড়ুন: শতাব্দী এক্সপ্রেসের যাত্রীদের দেওয়া হল নিষিদ্ধ ‘উগ্র হিন্দুত্ববাদী’ পত্রিকা! তুঙ্গে বিতর্ক]

বলে রাখা দরকার, ‘একটি রাষ্ট্রে দুই প্রধান, দুই নিশান ও দুই বিধান থাকতে পারে না।’ শ্যামাপ্রসাদ মুখোপাধ্যায়ের এই বাক্যবন্ধ বিজেপির নীতি নির্ধারণে স্পষ্ট। ২০১৪ সালে ক্ষমতায় আসার পর থেকেই এক দেশ, এক আইনের পক্ষে সওয়াল করছে প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদির সরকার। তবে বিরোধীদের প্রবল বাধায় তা এখনও কার্যকর হয়ে ওঠেনি। কর্ণাটকে যখন হিজাব (Hijab Row) নিয়ে বিতর্ক চরমে, দেশের বিভিন্ন রাজ্যে সাম্প্রদায়িক অশান্তির অভিযোগ উঠছে, তখন উত্তরপ্রদেশের উপমুখ্যমন্ত্রীর এই ইঙ্গিত বেশ তাৎপর্যপূর্ণ।

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে