BREAKING NEWS

১৯ অগ্রহায়ণ  ১৪২৮  সোমবার ৬ ডিসেম্বর ২০২১ 

READ IN APP

Advertisement

‘গণতন্ত্র বাঁচাতে’ রাহুলের পাশে চন্দ্রবাবু, বিরোধীদের জোট বাঁধার আহ্বান

Published by: Kumaresh Halder |    Posted: November 1, 2018 6:57 pm|    Updated: November 1, 2018 6:57 pm

We Are Coming Together, Says Rahul Gandhi After Meeting Chandrababu Naidu

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: মোদীকে হটাতে আগামী লোকসভা নির্বাচনে অবিজেপি শক্তিগুলি এক ছাতার নিচে আনার মরিয়া চেষ্টা চালালেনে কংগ্রেস সভাপতি রাহুল গান্ধী ও  অন্ধ্রপ্রদেশের মুখ্যমন্ত্রী চন্দ্রবাবু নাইডু। দেশের গণতন্ত্র রক্ষা ও স্বশাসিত প্রতিষ্ঠানগুলির উপর নেমে আসা বিপর্যয় ঠেকাতে কংগ্রেসকে সঙ্গে নিয়ে এক যোগে লড়াইয়ের বার্তা দিলেন দক্ষিণের নেতা নাইডু৷

[সুপ্রিম নির্দেশের পরও রাফালের দাম জানাতে নারাজ কেন্দ্র!]

লোকসভা নির্বাচনকে মাথায় রেখে বৃহস্পতিবার কংগ্রেস সভাপতির সঙ্গে দেখা করেন নাইডু৷ এনডিএর সঙ্গ ছাড়ার পর এই প্রথম রাহুলের সঙ্গে দীর্ঘ বৈঠক শেষে টিডিপি প্রধান নাইডু বলেন, ‘‘দেশের গণতন্ত্র রক্ষার জন্য অবেজেপি শক্তিগুলির এক হওয়া প্রয়োজন৷ আর সেই কারণে আজ, আমাদের এই বৈঠক৷’’ এদিন রাজধানীতে লোকসভা নির্বাচনকে মাথায় রেখে রাফালে, সিবিআই, ইডি ও সুপ্রিম কোর্টে বিজেপির হস্তক্ষেপ ইস্যু-সহ একাধিক ইস্যুতে কথা বলেন কংগ্রেস সভাপতি রাহুল গান্ধী, এনসিপি নেতা শরদ পাওয়ার, টিডিপি প্রধান চন্দ্রবাবু নাইডু৷ বিজেপিকে হারাতে আঞ্চলিক দলগুলিকে কীভাবে এক ছাতার নিচে আনা সম্ভব, তা নিয়েও আলোচনা হয়৷

[সুপারহিট কেরলের ঠাকুমা, ছিয়ানব্বই বছরে পরীক্ষায় পেলেন ৯৮শতাংশ নম্বর]

বৈঠক শেষে সাংবাদিক বৈঠকে চন্দ্রবাবু নাইডু বলেন, ‘‘দেশের গণতন্ত্র বাঁচাতে জোট প্রয়োজন৷ এই কাজের গুরুদায়িত্ব কংগ্রেসের৷’’ জোট প্রসঙ্গে রাহুল গান্ধীর মন্তব্য, ‘‘দেশের স্বার্থে নির্দিষ্ট বেশ কিছু ইস্যুতে আমরা সহমত হয়েছি৷ আর এই সহমতের ভিত্তিতে আগামী দিনে আমরা ঐক্যবদ্ধভাবে লড়াই চালিয়ে যাব৷ এই লড়াইয়ে আমরা বাকি অবিজেপি দলগুলিকে পাশে পেতে চাই৷’’        

 

এদিন কংগ্রেস সভাপতির সঙ্গে চন্দ্রবাবু নাইডুর বৈঠক ঘিরে তুঙ্গে ছিল রাজনৈতিক উত্তাপ৷ কেননা, গত মার্চে বিজেপির সঙ্গ ছেড়ে দেশের রাজনীতিতে শক্তি বাড়ানোর মরিয়া চেষ্টা করেন নাইডু৷ মায়াবতী, অরবিন্দ কেজরিওয়াল, ফারুক আবদুল্লা, প্রাক্তন বিজেপি নেতা যশবন্ত সিনহা ও শরদ যাদবের সঙ্গেও দফায় দফায় আলোচনায় বসেন তিনি৷ পরে, গত বাদল অধিবেশনে কেন্দ্রের বিরুদ্ধে অনাস্থা এনে কংগ্রেসের সঙ্গে সখ্য বাড়িয়ে জাতীয় রাজনীতিতে মুখ হয়ে ওঠেন৷ কিন্তু দেশের রাজনীতিতে বিজেপি বিরোধী মুখ হয়ে উঠলেও, ইউপিএ শিবিরের মুখ কে? রাহুল না চন্দ্রবাবু? কৌশলে প্রশ্ন এড়িয়ে কংগ্রেস সভাপতির মন্তব্য, ‘দেখুন না, আগে কী হয়!’

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে