BREAKING NEWS

১২  আষাঢ়  ১৪২৯  সোমবার ২৭ জুন ২০২২ 

READ IN APP

Advertisement

Advertisement

‘আজও প্রাসঙ্গিক গুরু নানকের চিন্তাধারা’, কর্তারপুর করিডরের উদ্বোধনে বললেন মোদি

Published by: Soumya Mukherjee |    Posted: November 9, 2019 1:17 pm|    Updated: November 9, 2019 1:36 pm

We must vow to imbibe teachings of Guru Nanak, says PM Modi

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: ‘আজও প্রাসঙ্গিক গুরু নানকের ভাবধারা। জন্মের ৫৫০ বছর পরও তাই তাঁকে নিয়ে চারিদিকে এত উন্মাদনা রয়েছে। তাঁর শিক্ষাকে আমরা চারিদিকে ছড়িয়ে দেব। আজও অনেকে জানেন না যে তিনি কীভাবে সমাজকে পরিবর্তন করেছিলেন। তাঁর স্মৃতিকে তুলে ধরার জন্য  গত এক বছর ধরে বিশ্বজুড়ে অনেক কর্মসূচি বাস্তবায়িত হয়েছে। আমরা কর্তারপুরের জন্যও যতটা পারব করব।’ শনিবার কর্তারপুর করিডরের উদ্বোধনে এসে এই প্রতিশ্রুতিই দিলেন ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি। গুরু নানকের ৫৫০ তম জন্মবার্ষিকীর আগে কর্তারপুর করিডরের উদ্বোধন করতে পেরে প্রচণ্ড খুশি হয়েছেন বলেও উল্লেখ করেন। পাশাপাশি ভারতীয়দের অনুভূতিকে সম্মান জানানোর জন্য পাকিস্তানের প্রধানমন্ত্রী ইমরান খানকেও ধন্যবাদ জানান মোদি।

[আরও পড়ুন: মসজিদ তৈরির জন্য বিকল্প জমি, অযোধ্যার রায়ে সন্তুষ্ট নন ইসলাম ধর্মাবলম্বীরা]

শনিবার সকালে পাঞ্জাবের গুরদাসপুরে ডেরা বাবা নানক এলাকায় প্যাসেঞ্জার টার্মিনাল বিল্ডিংয়ের উদ্বোধন করেন প্রধানমন্ত্রী। পাকিস্তানের কর্তারপুর যাওয়ার জন্য ইন্টিগ্রেটেড এই চেকপোস্টটির উদ্বোধনের আগে সুলতানপুর লোধীর বার সাহিব গুরুদ্বারে পুজোও দেন। ডেরা বাবা নানক সৌধের সঙ্গে পাকিস্তানের পাঞ্জাবের নারওয়াল জেলার কর্তারপুর সাহিবের সঙ্গে সংযোগকারী করিডর শুরু হচ্ছে এখান থেকেই। আজ ভারতের দিকে থাকা চেকপোস্টের পাশাপাশি ভারতীয় পুণ্যার্থীদের কর্তারপুর যাত্রারও শুভ সূচনা করেন মোদি। এরপর দুপুর সাড়ে ১২টা নাগাদ ডেরা বাবা নানকের জনসভায় বক্তব্য রাখেন। গুরু নানকের ভূয়সী প্রশংসা করে শত প্রতিকূলতার মধ্যেও শিখ ধর্মকে তিনি কীভাবে রক্ষা করেছেন সেই প্রসঙ্গ উত্থাপন করেন। তাঁর পবিত্র জীবন ও কর্মকাণ্ডের কথা বিশ্বব্যাপী ছড়িয়ে দিতে কেন্দ্রীয় সরকার সবরকম সহযোগিতা করবে বলেও আশ্বাস দেন প্রধানমন্ত্রী। বলেন, ‘জল ও প্রকৃতিক সম্পদে গুরুত্ব দেওয়ার যে কথা গুরু নানক বলেছিলেন তা এখনও সত্যি। উৎপন্ন ফসল নিজেদের মধ্যে ভাগযোগ করে খাওয়ার কথাও বলেছিলেন গুরু নানক। তাঁর আদর্শে অবিচল থাকলে দেশ সমৃদ্ধশালী হবে।’ 

[আরও পড়ুন: সুপ্রিম কোর্টের রায়ের কৃতিত্ব কেন্দ্রের নয়, ফের বিজেপিকে তোপ শিব সেনার]

ভারতের দিকে থাকা চেকপোস্টের পাশাপাশি আজ পাকিস্তানের চেকপোস্টটির উদ্বোধন হয়। সকাল ১১টার পর সেটির উদ্বোধন করেন ইমরান খান। প্রশাসন সূত্রে জানা গিয়েছে, প্রথম দফায় ৫৫০ জনেরও বেশি ভারতীয় পুণ্যার্থী কর্তারপুর দর্শন করবেন। যাঁদের মধ্যে রয়েছেন প্রাক্তন প্রধানমন্ত্রী মনমোহন সিং ও তাঁর পরিবারের সদস্যরা। রয়েছেন আরও ১৫০ থেকে ১৬০ জন অতিথি। তাঁদের মধ্যে পাঞ্জাবের মুখ্যমন্ত্রী অমরিন্দার সিং, কেন্দ্রীয় মন্ত্রী হরসিমরত কউর বাদল ও তাঁর স্বামী সুখবীর বাদলও রয়েছেন। এছাড়া ইমরান খানের বিশেষ আমন্ত্রিত অতিথি হিসেবে যাচ্ছেন সিধু।

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে