১৪ আশ্বিন  ১৪২৭  বৃহস্পতিবার ১ অক্টোবর ২০২০ 

Advertisement

‘আমরা কবে প্রধানমন্ত্রীকে চোর বললাম?’, রাহুলকে প্রশ্ন সুপ্রিম কোর্টের

Published by: Subhajit Mandal |    Posted: April 30, 2019 5:03 pm|    Updated: April 30, 2019 5:03 pm

An Images

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: ‘চৌকিদার চোর হ্যায়’ বিতর্কে ফের সুপ্রিম কোর্টে ভর্ৎসিত হলেন কংগ্রেস সভাপতি রাহুল গান্ধী। কংগ্রেস সভাপতি দাবি করেছিলেন, সুপ্রিম কোর্টও স্বীকার করে নিয়েছে ‘চৌকিদারই চোর’। সেই মন্তব্যের জেরেই প্রধান বিচারপতি এদিন আরও একবার কংগ্রেস সভাপতিকে তিরস্কার করেন। শেষ পর্যন্ত রাহুল আদালতে ক্ষমা চেয়ে নিলেও তাতে সন্তুষ্ট হয়নি শীর্ষ আদালত। আগামী সোমবার আরও একবার হলফনামা জমা দিতে হবে রাজীব-তনয়কে।

[আরও পড়ুন: নাগরিকত্ব নিয়ে প্রশ্ন, নোটিস পাঠিয়ে রাহুলের কাছে জবাব চাইল স্বরাষ্ট্রমন্ত্রক]

সুপ্রিম কোর্ট রাফালের চুরি যাওয়া নথিকে প্রামাণ্য হিসেবে গ্রহণ করার সিদ্ধান্তের পর রাহুল গান্ধী দাবি করেছিলেন সুপ্রিম কোর্টও মেনে নিয়েছে চৌকিদারই চোর। জনসভায় গিয়ে সেকথা ফলাও করে ঘোষণাও করেন কংগ্রেস সভাপতি। সেখানেই শুরু বিপত্তি। বিজেপি অভিযোগ আনে, কংগ্রেস সভাপতি সুপ্রিম কোর্টের পর্যবেক্ষণের ভুল ব্যাখ্যা করে আদালতের অবমাননা করেছেন। এরপরই নোটিস পাঠানো হয় রাহুলকে। ইতিমধ্যেই দু’দফায় সেই নোটিসের জবাব দিয়েছেন কংগ্রেস সভাপতি। কিন্তু, তাঁর জবাবে সন্তুষ্ট নয় শীর্ষ আদালত। সুপ্রিম কোর্টের পর্যবেক্ষণ, রাহুল যে হলফনামা জমা দিয়েছেন, তাতে ক্ষমা চাওয়া হয়নি।

[আরও পড়ুন: চাচা-ভাতিজির সম্মানের লড়াই পাটলিপুত্রে, পারিবারিক দ্বন্দ্বে তপ্ত নির্বাচনী পরিবেশ]

রাহুলের আইনজীবী অভিষেক মনু সিংভির উদ্দেশ্যে প্রধান বিচারপতি রঞ্জন গগৈ-এর প্রশ্ন, আমরা কবে প্রধানমন্ত্রীকে ‘চোর’ বললাম! এর উত্তরে সিংভি জানান, “রাহুল নিজের মন্তব্যের জন্য দুঃখিত। এটা আমার ভুলেই হয়েছে। আমি ওকে ভুল বুঝিয়েছিলাম।” প্রধান বিচারপতি পালটা প্রশ্ন করেন, ‘তাহলে আপনাদের হলফনামায় দুঃখপ্রকাশ করা হয়নি কেন?’ এর উত্তরে সিংভি বলেন, ‘আমরা আরও একবার হলফনামা জমা দিতে চাই।’ সুপ্রিম কোর্ট কংগ্রেস সভাপতিকে হলফনামা দেওয়ার জন্য আগামী ৬ মে পর্যন্ত সময় দিয়েছে। সেদিনই এই মামলার পরবর্তী শুনানি হবে।

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement