BREAKING NEWS

১৪ শ্রাবণ  ১৪২৮  শনিবার ৩১ জুলাই ২০২১ 

READ IN APP

Advertisement

জলের ট্যাঙ্ক থেকে উদ্ধার যুবকের দেহ, সাতসকালে রোমহর্ষক ঘটনার সাক্ষী বেনিয়াপুকুর

Published by: Sayani Sen |    Posted: June 12, 2021 11:33 am|    Updated: June 12, 2021 12:50 pm

A boy's body recover in Beniapukur ।Sangbad Patidin

অর্ণব আইচ: সাতসকালে রোমহর্ষক ঘটনার সাক্ষী কলকাতা (Kolkata)। একটি বাড়ির জলের ট্যাঙ্ক থেকে উদ্ধার যুবকের পচাগলা দেহ। শনিবার সাতসকালে এই দৃ্শ্য দেখে কার্যত শিউড়ে উঠলেন বেনিয়াপুকুর থানা এলাকার গোরাচাঁদ রোডের বাসিন্দারা। কে বা কারা ওইভাবে যুবকের দেহ জলের ট্যাঙ্কে ফেলে রেখে গেল, তাও স্পষ্ট নয়। স্থানীয়দের জিজ্ঞাসাবাদ করে বিষয়টি খতিয়ে দেখছে পুলিশ।

শনিবার সাতসকালে বেনিয়াপুকুরের (Beniapukur) গোরাচাঁদ রোডের বাসিন্দারা একটি জলের ট্যাঙ্ক থেকে দুর্গন্ধ পেতে থাকেন। দুর্গন্ধে প্রথমে কেউই বিশেষ আমল দেননি। তবে সময়ের সঙ্গে সঙ্গে দুর্গন্ধ আরও বাড়তে থাকে। তড়িঘড়ি বেনিয়াপুকুর থানায় খবর দেন তাঁরা। পুলিশও ঘটনাস্থলে পৌঁছয়। জলের ট্যাঙ্কে তল্লাশি অভিযান চালাতেই আঁতকে ওঠেন প্রত্যেকে। দেখেন বছর ৩৫-এর এক যুবকের দেহ পড়ে রয়েছে। দেহটি উদ্ধার করে ময়নাতদন্তে পাঠানো হয়েছে।

[আরও পড়ুন: অন্তর্বাসের মধ্যে ১৩০০ সিমকার্ড পাচার, চিনে বসেই বাংলায় ব্যাংক প্রতারণা হ্যাকারদের]

পুলিশ সূত্রে খবর, নিহত ওই যুবক আগরতলার বাসিন্দা। তাঁর মুখে রয়েছে একাধিক আঘাতের চিহ্ন। তিন-চারদিন আগেই দেহটি নর্দমায় ফেলে দেওয়া হয়েছে বলেই মনে করা হচ্ছে। ওই যুবককে খুন করা হয়েছে বলেই প্রাথমিক তদন্তে অনুমান পুলিশের। কে বা কারা দেহটি নিয়ে এসে নর্দমায় ফেলে গেল, তা নিয়ে তৈরি হয়েছে ধোঁয়াশা। সাতসকালে দেহ উদ্ধারের ঘটনায় স্বাভাবিকভাবেই আতঙ্কিত স্থানীয়রা। তাঁদের চোখে-মুখে আতঙ্কের ছাপ। করোনা পরিস্থিতিতে রাজ্যে একাধিক বিধিনিষেধ জারি থাকায় রাস্তাঘাটে লোকজনের আনাগোনা কমেছে অনেকটাই। সেই সুযোগকে কাজে লাগিয়ে কেউ বা কারা দেহটি ফেলে গিয়েছে বলেই মনে করছেন স্থানীয়রা।

[আরও পড়ুন: ২০ দিনেই কামাল! করোনা রোগীদের জন্য ‘পকেট ভেন্টিলেটর’ বানিয়ে নজির বাঙালি বিজ্ঞানীর]

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে

Advertisement

Advertisement