২৩  শ্রাবণ  ১৪২৯  বুধবার ১০ আগস্ট ২০২২ 

READ IN APP

Advertisement

Advertisement

রাজ্য সরকারের পুজো কার্নিভালে প্রধান অতিথি অমিতাভ-জয়া

Published by: Sangbad Pratidin Digital |    Posted: September 24, 2017 7:06 am|    Updated: January 11, 2021 5:44 pm

Amitabh Bachchan to attend Durga Puja Carnival in Kolkata

সন্দীপ চক্রবর্তী:  রেড রোডে দুর্গাপুজোর কার্নিভালে প্রধান অতিথি হিসাবে উপস্থিত থাকতে চলেছেন স্বয়ং অমিতাভ বচ্চন। বাংলার ‘মেগাস্টার’  জামাইকে এবার বিশেষ আমন্ত্রণ জানিয়েছেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। নবান্ন সূত্রে খবর,  স্ত্রী জয়াকে নিয়ে রেড রোডের শোভাযাত্রায় আসতে সম্মতি দিয়েছেন বিগ বি। একইসঙ্গে কলকাতার বর্ণাঢ্য দুর্গাপুজো দেখতে আসতে পারেন অভিষেকও। পাশাপাশি দক্ষিণী মহাতারকা কমল হাসানকেও আমন্ত্রণ জানানো হতে পারে। পূর্বনির্ধারিত কোনও কর্মসূচি না থাকলে তিনিও এই ‘গ্র‌্যান্ড শো’য়ে হাজির থাকবেন।

[পুজোর পাঁচদিন কীভাবে কাটাবেন পাওলি, গার্গী, অঞ্জনা?]

পুজো কার্নিভালকে বিশ্বের দরবারে তুলে ধরতে আগেই প্রশাসনকে নির্দেশ দিয়েছিলেন মুখ্যমন্ত্রী। এবার অনূর্ধ্ব ১৭ ফুটবল যুব বিশ্বকাপের ফাইনাল-সহ একাধিক ম্যাচ হবে কলকাতায়।  রাজ্য প্রশাসন পুজোর সময় এই মেগা ইভেন্টকে কাজে লাগাতে চাইছে। ইতিমধ্যে ফিফাও কলকাতার পরিকাঠামোয় প্রশংসা করেছে। আন্তর্জাতিক ফুটবল পরিচালন সংস্থাও পুজোর সঙ্গে যুক্ত হয়ে গিয়েছে। রাজ্য চাইছে, এই সুযোগে পুজো কার্নিভালকে ‘রিও কার্নিভাল’-এর রূপ দিতে।

[মাকে সঙ্গে নিয়ে দুর্গাপুজোর সেলিব্রেশনে কাজল-তানিশা]

অমিতাভ বচ্চনের সঙ্গে মমতার প্রায়  সাড়ে তিন দশকের হৃদ্যতার সম্পর্ক। মমতার কাজেরও প্রশংসা করতেও শোনা যায় শাহেনশাকে। তাই কলকাতা ফিল্ম ফেস্টিভ্যালেও বারবার প্রধান অতিথি হয়ে এসেছেন তিনি। নবান্ন সূত্রে খবর,  এবার কার্নিভালে ৬০টির মতো পুজো কমিটি অংশ নেবে। গতবার এই সংখ্যা ছিল ৩৮। বিশ্বের বিভিন্ন দেশের প্রতিনিধিরা থাকবেন। আগামী ৮ অক্টোবর থেকে ফুটবল যুব বিশ্বকাপ শুরু হচ্ছে। কলম্বিয়া ইতিমধ্যে চলে এসেছে। অন্য দলগুলির খেলোয়াড় ও প্রতিনিধিরাও থাকবেন। থাকবেন ৫০০-র বেশি সাংবাদিক। ফিফার ওয়েবসাইটেও দেখানো হবে এই অনুষ্ঠান। আমন্ত্রিত হিসাবে থাকবেন সব দেশের দূতাবাস ও হাইকমিশন-কনসালের শীর্ষকর্তারা। এবার সব অর্থেই আন্তর্জাতিক হয়ে উঠছে পুজো কার্নিভাল। দেশ-বিদেশের রেকর্ড প্রতিনিধি ও সাধারণ মানুষের ভিড়ের কথা ভেবেই রেড রোডের দু’পাশ জুড়ে মঞ্চ বাঁধা হয়েছে। ফোর্ট উইলিয়ামের দিক থেকে প্রতিমাগুলি এসে বাবুঘাটের দিকে যাবে। পুজোকমিটিগুলিও বিসর্জন-শোভাযাত্রার জন্য আলাদা বাজেট বরাদ্দ করেছে। তৈরি হয়েছে প্রতিযোগিতার আবহ। প্রত্যেক কমিটি চাইছে অন্যগুলিকে ছাপিয়ে যেতে। অভিনবত্ব রাখতে ব্যস্ত তারা। তবে বিসর্জন-পর্বের থিম গোপন রাখছে সব পুজোকমিটিই।

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে