BREAKING NEWS

০৫ জ্যৈষ্ঠ  ১৪২৯  শুক্রবার ২০ মে ২০২২ 

READ IN APP

Advertisement

Advertisement

মাদক খাইয়ে খুন করে টোটো ছিনতাই, এবার অপরাধীদের ‘টার্গেট’ চালকরা!

Published by: Sayani Sen |    Posted: August 7, 2021 1:36 pm|    Updated: August 7, 2021 3:01 pm

Another youth arrested in Rajarhat's toto driver murder case । Sangbad Pratidin

ছবি: প্রতীকী

কলহার মুখোপাধ্যায়, বিধাননগর: টোটোয় (Toto) চড়ে প্রথমে ঘোরাফেরা। পরে মাদক সেবন। এভাবে চালককে বেহুঁশ করতে পারলেই কেল্লাফতে! তারপরই টোটো চাললকে ফেলে রেখে টোটো নিয়ে উধাও অভিযুক্ত। রাজারহাটে টোটোচালক খুনে এক অভিযুক্তকে গ্রেপ্তার করল পুলিশ। মুন্না মোল্লা নামে ওই যুবককে দক্ষিণ ২৪ পরগনার জীবনতলা থেকে গ্রেপ্তার করা হয়।

গত বছর ১ ডিসেম্বর রাজারহাট এলাকার একটি জলাশয় থেকে এক টোটো চালকের দেহ উদ্ধার করে পুলিশ। তবে খোয়া যায় তাঁর টোটো এবং মোবাইল ফোন। সেই মোবাইলের সিম ফেলে দেয় অভিযুক্ত। আট মাস পরে সম্প্রতি অন্য সিম ঢুকিয়ে মোবাইল ফের চালু করে সে। মোবাইল টাওয়ার লোকেশন ট্র্যাক করে পুলিশ জানতে পারে হাওড়ার দাসনগরে গা ঢাকা দিয়ে রয়েছে অভিযুক্ত। সেই অনুযায়ী ওই এলাকায় শুরু হয় তল্লাশি। সেখান থেকে বছর চল্লিশের মহম্মদ নূর আলমকে গ্রেপ্তার করা হয়। সেই জেরায় মুন্না মোল্লার কথা বলে। সেই অনুযায়ী পুলিশ মুন্না মোল্লার খোঁজ শুরু করে। দক্ষিণ ২৪ পরগনার জীবনতলা থেকে অভিযুক্তকে গ্রেপ্তার করা হয়।

[আরও পড়ুন: মেঝেতে পড়ে স্বামী, বিছানায় স্ত্রীর দেহ, পুরুলিয়ায় বন্ধ ফ্ল্যাটে বৃদ্ধ দম্পতির রহস্যমৃত্যু]

পুলিশ প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে জানতে পেরেছে, ধৃত মহম্মদ নূর আলম এবং মুন্না মোল্লা মূলত রাজারহাট এলাকায় টোটো চালক। অটোচালকদেরকে মাদক খাইয়ে তাদের টোটো ছিনতাই করে চম্পট দিত অভিযুক্তরা। শুধু রাজারহাটের এই টোটোচালক নাকি আরও অনেককেই খুন করেছিল ওই অভিযুক্তেরা, তা খতিয়ে দেখা হচ্ছে। শুধুমাত্র টোটো লুট নাকি খুনের নেপথ্যে অন্য কোনও কারণও রয়েছে, সে বিষয়টিও খতিয়ে দেখছেন তদন্তকারীরা। দুই ধৃতকে জেরা করে সমস্ত রহস্যের জট খুলতে পারে বলেই আশাবাদী পুলিশ।

[আরও পড়ুন: জাল Visa চক্রের পর্দাফাঁস, দিল্লি ও হরিদেবপুর থানার পুলিশের যৌথ অভিযানে গ্রেপ্তার ‘কিংপিন’]

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে