BREAKING NEWS

২৬  শ্রাবণ  ১৪২৯  রবিবার ১৪ আগস্ট ২০২২ 

READ IN APP

Advertisement

Advertisement

উদয়পুর ও জম্মু কাণ্ডে বিজেপি যোগ! বিচারবিভাগীয় তদন্তের দাবি তৃণমূলের

Published by: Tiyasha Sarkar |    Posted: July 5, 2022 4:32 pm|    Updated: July 5, 2022 4:47 pm

BJP linkages on Udaypur and Jammu, TMC demands probe | Sangbad Pratidin

ধ্রুবজ্যোতি বন্দ্যোপাধ্যায়: উদয়পুর ও জম্মুর ঘটনার সঙ্গে সরাসরি যোগ রয়েছে বিজেপির। তৃণমূল ভবন থেকে সাংবাদিক বৈঠক করে এমনটাই দাবি করলেন কুণাল ঘোষ। বিচার বিভাগীয় তদন্তের দাবি জানালেন তিনি।

মঙ্গলবার দুপুরে তৃণমূল ভবনে সাংবাদিক বৈঠক করেন তৃণমূলের মুখপাত্র কুণাল ঘোষ (Kunal Ghosh)। সঙ্গে ছিলেন শশী পাঁজা। সেখানেই নূপুর শর্মা থেকে উদয়পুর হত্যাকাণ্ড (Udaipur murder), জম্মু কাণ্ড নিয়ে মুখ খোলেন কুণাল ঘোষ। বলেন, “গভীর ষড়যন্ত্র করছে বিজেপি। আর্থিকভাবে দেশ কত পিছিয়ে পড়েছে, মানুষের উপর চাপ বাড়ছে, আর এই ব্যর্থতা থেকে নজর ঘোরাতে ধর্মীয় হিংসার রাজনীতি শুরু করেছে বিজেপি।” কুণাল ঘোষের কথায়, “নূপুর শর্মার (Nupur Sharma) বিবৃতি নিয়ে সুপ্রিম কোর্ট কড়া মনোভাব নিয়েছে। উদয়পুরের ঘটনা অত্যন্ত আপত্তিকর। নূপুর শর্মাকে সমর্থন করার জন্যই এই হত্যা বলে প্রচার করা হল!”

[আরও পড়ুন: দিঘায় মেরিন ড্রাইভ উদ্বোধনের আগে বেআইনিভাবে টাকা আদায়, গ্রেপ্তার যুবক]

এরপরই তৃণমূল মুখপাত্র বলেন, “উদয়পুর কাণ্ডে ধৃত রিয়াজ আকারির সঙ্গে বিজেপির যোগ পাওয়া গিয়েছে। জম্মুতে কুখ্যাত জঙ্গিকে হাতেনাতে ধরেছেন স্থানীয়ার। ধৃতদের মধ্যে তালিব হোসেন ছিল বিজেপির আইটি সেলের প্রধান। রিয়াজ, তালিব হোসেনের মতো লোকদের ব্যবহার করে দেশে হিংসা ছড়াচ্ছে বিজেপি।” এরপরই কুণাল প্রশ্ন তুললেন কেন এখনও গ্রেপ্তার করা হল না নূপুর শর্মাকে।

এদিনের সাংবাদিক বৈঠক থেকে বিজেপির বিরুদ্ধে নূপুর শর্মাকে আড়াল করার অভিযোগ করেন কুণাল ঘোষ। স্বাধীন বিচারবিভাগীয় তদন্তের দাবিও জানান তিনি। তাঁর কথায়, “লস্কর জঙ্গির সঙ্গে বিজেপির কী যোগ, তার পূর্ণাঙ্গ এবং স্বাধীন তদন্ত দাবি করছে তৃণমূল।” উল্লেখ্য, সম্প্রতি হজরত মহম্মদকে নিয়ে আপত্তিকর মন্তব্য করেছিলেন বিজেপি নেত্রী নূপুর শর্মা। তারপরই রাজস্থানের উদয়পুরে সাধারণ এক দরজিকে হত্যা করে দুই যুবক। তারপর নারকীয় উল্লাস করে তারা। সোশ্যাল মিডিয়ায় ছড়িয়ে পড়ে তাদের সেই উল্লাসের ভিডিও। যা চমকে দিয়েছে তদন্তকারীদের। এই ঘটনাকে ইতিমধ্যে সন্ত্রাসমূলক কার্যকলাপ হিসেবে চিহ্নিত করে তদন্তভার নিয়েছে ন্যাশনাল ইনভেস্টিগেশন এজেন্সি বা এনআইএ (NIA)। অন্যদিকে,  কাশ্মীরের রেইসি জেলায় আইইডি বিস্ফোরণে নাম জড়িয়েছিল তালিব হুসেন নামে লস্কর জঙ্গির। ঘটনাচক্রে গ্রামবাসীদের হাতে ধরা পড়ে অভিযুক্ত। তার সঙ্গে বিজেপির যোগ রয়েছে বলেই দাবি।

[আরও পড়ুন: বোমা বাঁধতে গিয়ে ডোমকলে মৃত্যু যুবকের, হাত উড়ল সঙ্গীর]

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে