BREAKING NEWS

৮ শ্রাবণ  ১৪২৮  রবিবার ২৫ জুলাই ২০২১ 

READ IN APP

Advertisement

Nandigram Case: মামলার নিষ্পত্তি না হওয়া পর্যন্ত সংরক্ষিত থাকবে EVM, নির্দেশ বিচারপতির

Published by: Paramita Paul |    Posted: July 14, 2021 4:02 pm|    Updated: July 14, 2021 4:35 pm

Calcutta HIgh Court orders EVMs used in Nandigram election to be preserved | Sangbad Pratidin

শুভঙ্কর বসু: নন্দীগ্রাম বিধানসভার ভোট সংক্রান্ত সমস্ত নথি সংরক্ষিত রাখতে হবে। মামলার নিষ্পত্তি না হওয়া পর্যন্ত নিরাপদে রাখতে হবে ওই বিধানসভা কেন্দ্রের ভিডিওগ্রাফি, ইভিএম, ভিভিপ্যাটও। বুধবার নন্দীগ্রাম মামলার (Nandigram Case) অনলাইন শুনানি শেষে সিইওকে এমনই নির্দেশ দিলেন কলকাতা হাই কোর্টের (Calcutta High Court) বিচারপতি শম্পা সরকার। এদিন মামলার সব পক্ষ অর্খাৎ মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়, বিজেপি বিধায়ক শুভেন্দু অধিকারী, নির্বাচন কমিশন, নন্দীগ্রাম বিধানসভা কেন্দ্রের রিটার্নিং অফিসারকে নোটিস পাঠাল হাই কোর্ট। মামলার পরবর্তী শুনানি ১২ আগস্ট।

১২ জুলাই নন্দীগ্রাম মামলার বেঞ্চ বদল হয়। মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের আবেদন মেনে কলকাতা হাই কোর্টের ভারপ্রাপ্ত প্রধান বিচারপতি কৌশিক চন্দ নন্দীগ্রাম মামলা থেকে সরে দাঁড়ান। বদলে বিচারপতি শম্পা সরকারের নেতৃত্বাধীন সিঙ্গল বেঞ্চে এই মামলার শুনানি শুরু হল। এদিকে মামলার শুনানি শুরুতেই মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের আবেদন প্রক্রিয়ার মধ্যে কোনও ত্রুটি রয়েছে কি না তা খতিয়ে দেখা হয়। তাতে দেখা যায়, নিয়ম মেনে নির্বাচন প্রক্রিয়া শেষের ৪৫ দিনের মধ্যেই আদালতের দ্বারস্থ হয়েছিলেন মুখ্যমন্ত্রী। এর পরই নন্দীগ্রাম মামলার নিষ্পত্তি না হওয়া পর্যন্ত সমস্ত নথি সংরক্ষণের নির্দেশ দেন বিচারপতি।

[আরও পড়ুন: ‘আকাশও গেরুয়া’, কাশ্মীর সফরের আগে সূর্যাস্তের ছবি টুইট করে ট্রোলড দিলীপ ঘোষ]

বিধানসভা নির্বাচনের (Assembly Election 2021) আগেই তৃণমূল ছেড়ে বিজেপিতে যোগ দেন শুভেন্দু অধিকারী। আর তারপর থেকেই নন্দীগ্রাম আসনটি নিয়ে অনেক বেশি হইচই শুরু হয়। ওই কেন্দ্র থেকে নিজেই ভোটে লড়বেন বলেই জানান মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় (Mamata Banerjee)। বিজেপির তরফে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করেন শুভেন্দু অধিকারী। হাড্ডাহাড্ডি লড়াইয়ের পর গত ২ মে ভোটের ফলপ্রকাশের পর দেখা যায় শুভেন্দু অধিকারী (Suvendu Adhikari) ওই আসনে জিতে যান। তবে প্রভাব খাটিয়ে ওই ফল বলেই অভিযোগ তৃণমূলের। এই ঘটনার পরিপ্রেক্ষিতে মামলা করা হয়। প্রথমে কলকাতা হাই কোর্টের ভারপ্রাপ্ত প্রধান বিচারপতি কৌশিক চন্দের এজলাসে শুনানি শুরু হলেও মুখ্যমন্ত্রীর আপত্তিতে তা থমকে যায়। বেঞ্চ বদলের পর সেই শুনানি শুরু হল এবার। 

[আরও পড়ুন: তৃণমূল ভবনের নস্ট্যালজিয়া ধরা থাকবে অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায়ের তথ্যচিত্রে]

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে

Advertisement

Advertisement