৫ মাঘ  ১৪২৫  রবিবার ২০ জানুয়ারি ২০১৯ 

Menu Logo মহানগর রাজ্য দেশ ওপার বাংলা বিদেশ খেলা বিনোদন লাইফস্টাইল এছাড়াও ফিরে দেখা ২০১৮ ফটো গ্যালারি ভিডিও গ্যালারি ই-পেপার

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: কলকাতা পুরসভার ৮২ নম্বর ওয়ার্ডের উপনির্বাচনে দ্বিগুণেরও বেশি ভোটে জয়ী হলেন মেয়র ফিরহাদ হাকিম৷ তিনি পেয়েছেন ১৬ হাজার ৫৬৪ ভোট৷ তাঁর নিকটতম বিজেপির প্রতিদ্বন্দ্বীকে ১৩ হাজার ৯৮৭ ভোটে পরাজিত করেছেন ফিরহাদ৷ এই জয়ে স্বভাবতই খুশী ফিরহাদ-সহ কর্মী-সমর্থক ও তাঁর অনুগামীরা৷ বৃহস্পতিবার কাউন্সিলর হিসেবে শপথগ্রহণ করবেন তিনি৷

[ফের উত্তপ্ত যাদবপুর, পুলিশের সঙ্গে খণ্ডযুদ্ধ সুজন চক্রবর্তীর নেতৃত্বাধীন বাম কর্মীদের ]

এই জয়ের জন্য সাধারণ মানুষকে ধন্যবাদ জানিয়েছেন ফিরহাদ৷ তিনি জানান, মানুষ তৃণমূল নেত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়কে ভালবাসেন তাই মানুষের আশীর্বাদ তাঁর উপরেও রয়েছে৷ কলকাতার মানুষের জন্য আরও বেশি করে কাজ করবেন বলেও জানান তিনি৷ এই নির্বাচনেও দ্বিতীয় স্থানে উঠে এলেও ভোট কমেছে বিজেপির৷ গেরুয়া শিবিরের প্রার্থী জীবন কুমার সেনের প্রাপ্ত ভোট ২৫৭৭টি৷ এদিন বিজেপিরও সমালোচনা করেন ফিরহাদ হাকিম৷ মেয়র জানান, মানুষের থেকে দূরে সরে গিয়েছে বিজেপি৷ মানুষ তাঁদের উপর বিরক্ত৷ তাই উপ-নির্বাচনে তাঁদের ভোট কমেছে৷ যতদিন ওরা কেন্দ্রের ক্ষমতায় রয়েছে লাফালাফি করবে৷ ২০১৯-এর পর সেটাও ফিনিশ হয়ে যাবে৷ এই উপ-নির্বাচনে তৃতীয় স্থানে রয়েছেন বাম ও চতুর্থ স্থানে রয়েছে কংগ্রেস৷

[মেট্রো স্টেশনেও বনধ সমর্থকদের তাণ্ডব, ব্যাহত পরিষেবা]

শোভন চট্টোপাধ্যায়ের ইস্তফা দেওয়ার পর কলকাতা পুরসভার মেয়র হয়েছেন ফিরহাদ। কিন্তু, তিনি কাউন্সিলর ছিলেন না। সংশোধিত পুর আইনে কাউন্সিলর না হয়েও কলকাতা পুরসভার মেয়র হওয়া যায়। কিন্তু, শপথ গ্রহণের ছয় মাসের মধ্যে শহরের যে কোনও একটি ওয়ার্ড থেকে সংশ্লিষ্ট ব্যক্তিকে কাউন্সিলর নির্বাচিত হতে হবে। সেই নিয়মে ফের পুরভোটে লড়াই করেন পুর ও নগরোয়ন্ন মন্ত্রী ফিরহাদ হাকিম। গত বছরের ডিসেম্বরে চেতলার ৮২ নম্বর ওয়ার্ডে শাসকদলের কাউন্সিলর প্রণব বিশ্বাস ইস্তফা দেন। তাঁর জায়গায় ওই ওয়ার্ডে কলকাতা পুরসভার মেয়রকে প্রার্থী করে শাসকদল। সেই নির্বাচনে দ্বিগুণেরও বেশি ভোটে জয় পেলেন ফিরহাদ৷

আরও পড়ুন

আরও পড়ুন

ট্রেন্ডিং