২ অগ্রহায়ণ  ১৪২৬  মঙ্গলবার ১৯ নভেম্বর ২০১৯ 

Menu Logo মহানগর রাজ্য দেশ ওপার বাংলা বিদেশ খেলা বিনোদন লাইফস্টাইল এছাড়াও বাঁকা কথা ফটো গ্যালারি ভিডিও গ্যালারি ই-পেপার

স্টাফ রিপোর্টার: টালার পর এবার বেলগাছিয়া ব্রিজের স্বাস্থ্য পরীক্ষার সিদ্ধান্ত নেওয়া হল প্রশাসনের তরফে। বৃহস্পতিবারের মধ্যেই এই পরীক্ষা করা হবে বলে জানা গিয়েছে। সূত্রের খবর, টালা ব্রিজ বন্ধের জেরে বেলগাছিয়া ব্রিজের উপর চাপ বাড়ছিল। এই সেতুর অবস্থাও বিশেষ ভাল নয়। যে কারণেই স্বাস্থ্যপরীক্ষার সিদ্ধান্ত বলে মনে করা হচ্ছে।

কিন্তু টালার পর এই ব্রিজেও সমস্যা হলে তো বিটি রোড দিয়ে শহরে যানবাহন ঢোকাই মুশকিল হয়ে যাবে। এক্ষেত্রে বিকল্প রুটের কথাও ভাবা হচ্ছে বলে প্রশাসন সূত্রে খবর। গ্যালিফ স্ট্রিটের পাশে এবং আরজি করের রাস্তার ধারে যে খাল রয়েছে সেখানে ঢালাই ব্রিজ তৈরি করা হতে পারে বলে জানা যাচ্ছে। সেক্ষেত্রে ছোট গাড়ি ওই রাস্তা দিয়ে যাতায়াত করতে পারবে।

[আরও পড়ুন: পুলিশ হেফাজতে নির্লিপ্ত জিয়াগঞ্জ হত্যাকাণ্ডের মূলচক্রী উৎপল, জেরায় চাঞ্চল্যকর তথ্য ফাঁস]

টালা ব্রিজের স্বাস্থ্যপরীক্ষার কারণে এতদিন শ্যামবাজারগামী সমস্ত বাস চিড়িয়ামোড় দিয়ে ঘুরিয়ে দেওয়া হচ্ছিল। পাইকপাড়া-বেলগাছিয়া-আরজিকর হয়ে বাস ঢুকছিল শ্যামবাজারে। কোনও কোনও বাসকে নাগের বাজার হয়ে আরও ঘুরতে হচ্ছিল। কিন্তু এই বিপুল সংখ্যক বাস যেহেতু বেলগাছিয়া ব্রিজের উপর দিয়ে যাচ্ছিল, সেই কারণে তাতে চাপ বাড়ছিল। অতীতে এত গাড়ি কখনও এই ব্রিজ দিয়ে যাতায়াত করেনি। নবান্নের এক কর্তার কথায়, এই সেতুর বয়সও তো কম নয়। খুব একটা পরীক্ষা-নিরীক্ষাও করা হয় না। এবার তা করতে হবে। নচেৎ বিপদ হলে তখন মুশকিল। বিষয়টি নিয়ে পুলিশ, পরিবহণ দপ্তরের কর্তারা বাস মালিকদের উপস্থিতিতে একপ্রস্থ আলোচনাও করেন।

এদিকে এই ব্রিজও মেরামতির জন্য যদি বন্ধ রাখতে হয় সেক্ষেত্রে উত্তর শহরতলির মানুষজন আরও সমস্যায় পড়বেন। বাস আরও ঘোরাতে হবে। তবে এখনই এবিষয়ে সিদ্ধান্ত কিছু হয়নি। বেলগাছিয়া ব্রিজের স্বাস্থ্যপরীক্ষার রিপোর্ট পাওয়ার পরই তা ঠিক হবে। যদিও আশঙ্কা কমছে না এখানকার বাসিন্দাদের। বিকল্প পথই বা কী হবে তা এখনও ঠিক হয়নি। তবে ব্রিজের স্বাস্থ্যপরীক্ষা যে প্রয়োজন তা মানছেন সকলে।

[আরও পড়ুন: মেয়ের গলা নকল করে ফোন! ম্যাট্রিমনি সাইটে অভিনব প্রতারণার শিকার যুবক]

আরও পড়ুন

আরও পড়ুন

ট্রেন্ডিং