১৩ কার্তিক  ১৪২৭  শুক্রবার ৩০ অক্টোবর ২০২০ 

Advertisement

‘বিশ্ববঙ্গ বাণিজ্য সম্মেলনের নামে কেলেঙ্কারি’, কড়া ভাষায় এবার অমিত মিত্রকে চিঠি ধনকড়ের

Published by: Sucheta Sengupta |    Posted: September 25, 2020 1:23 pm|    Updated: September 25, 2020 4:41 pm

An Images

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: রাজ্য সরকার আয়োজিত আন্তর্জাতিক মানের বিশ্ববঙ্গ বাণিজ্য সম্মেলনের নামে আসলে আর্থিক কেলেঙ্কারি হয়েছে। এই অভিযোগ আগেই তুলেছিলেন রাজ্যপাল জগদীপ ধনকড় (Jagdeep Dhankhar)। চেয়েছিলেন হিসেব। তার উত্তর না পেয়ে এবার বেশ কড়া ভাষায় রাজ্যের অর্থমন্ত্রী অমিত মিত্রকে চিঠি লিখলেন তিনি। টুইট করে সেই চিঠির কথা নিজেই জানিয়েছেন ধনকড়।

এদিন চিঠিতে রাজ্যপাল লিখেছেন, ২০১৬ থেকে বিশ্ববঙ্গ বাণিজ্য সম্মেলনে কত টাকা বিনিয়োগ হয়েছে, কী কী চুক্তি স্বাক্ষরিত হয়েছে, তার বিস্তারিত জানতে চেয়ে তিনি সরকারকে চিঠি দিয়েছিলেন প্রায় ৫০ দিন আগে। আজ পর্যন্ত তার উত্তর মেলেনি। এই অভিযোগ তিনি সরাসরি অমিত মিত্রের (Amit Mitra) প্রতিই প্রশ্ন তুলেছেন, ”কী আড়াল করছেন, কেনই বা? স্বচ্ছতা নেই কেন?” তিনি এই অভিযোগও তুলেছেন যে কোনও গভীর বিষয়েই তিনি সরকারের তরফে তেমন কোনও সহযোগিতা পান না। এদিনও ফের বিশ্ববঙ্গ বাণিজ্য সম্মেলনে আর্থিক লেনদেন নিয়ে শ্বেতপত্র প্রকাশের দাবি তুলেছেন রাজ্যপাল জগদীপ ধনকড়।

[আরও পড়ুন: মহুয়া বনাম বাবুলের আইনি লড়াই তীব্র, মানহানি মামলা খারিজের দাবিতে হাই কোর্টে মন্ত্রী]

তিনি যে এ নিয়ে আগেই মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়কে চিঠি লিখেছিলেন, সেই চিঠিও টুইট করেছেন। তাঁর মতে, মুখ্যমন্ত্রীর উদাসীনতা দেখে তিনি যথেষ্ট মর্মাহত। সেইসঙ্গে এই আচরণ তাঁর বেশ সন্দেহজনকও মনে হচ্ছে। তাই এবার রাজ্যের অর্থমন্ত্রীকেই তিনি সরাসরি চিঠি পাঠালেন। তবে যে ভাষায় রাজ্যের সাংবিধানিক প্রধান চিঠি লিখেছেন, তা নিয়ে ইতিমধ্যেই বিতর্ক শুরু হয়েছে। এই চিঠি রাজভবন-নবান্ন সংঘাতে নতুন মাত্রা যোগ করল, তাতে সন্দেহ নেই। এখন রাজ্যপালের এই চিঠির পরিপ্রেক্ষিতে রাজ্যের অর্থদপ্তর কী উত্তর দেয়, সেটাই এখন দেখার।

[আরও পড়ুন: লকডাউনে বন্ধ স্কুলে জন্মাচ্ছে ডেঙ্গুর লার্ভা, কড়া পদক্ষেপ কলকাতা পুরসভার]

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement