Advertisement
Advertisement
Subrata Mukherjee

কলকাতা পুরসভার শ্রদ্ধার্ঘ্য, সুব্রত মুখোপাধ্যায়ের নামে রাস্তার নামকরণের ঘোষণা ফিরহাদের

অধিবেশনে পুরসভার আর্থিক সংকটের কথা স্বীকার করে নিয়েছেন মেয়র।

KMC to name road and make museum after Subrata Mukherjee, Firhad Hakim announces | Sangbad Pratidin
Published by: Sucheta Sengupta
  • Posted:January 28, 2022 4:37 pm
  • Updated:January 28, 2022 4:38 pm

কৃষ্ণকুমার দাস: কলকাতা পুরসভার (KMC) মেয়র পদ অলংকৃত করে গিয়েছেন তিনি। তাঁর আমলে পুর পরিষেবার উন্নতি হয়েছে অনেক, এমনই মত শহরবাসীর। প্রয়াত প্রাক্তন মেয়র তথা রাজ্যের মন্ত্রী সুব্রত মুখোপাধ্যায়কে শ্রদ্ধা জানাতে একাধিক পরিকল্পনা গ্রহণ করলেন পুরসভার মেয়র ফিরহাদ হাকিম (Firhad Hakim)। শুক্রবার টাউন হলে পুরসভার প্রশাসনিক বৈঠক চলাকালীন তা জানালেন ফিরহাদ। বালিগঞ্জের একটি রাস্তা হবে সুব্রত মুখোপাধ্যায়ের নামে। এছাড়া তাঁর নামে একটি সংগ্রহশালা তৈরি হবে। এর জন্য জমি খোঁজার নির্দেশ দিয়েছেন মেয়র।

শুক্রবার টাউন হলে কলকাতা পুরসভার কাউন্সিলরদের (Councilor) অধিবেশন ছিল। ছিলেন মেয়র ফিরহাদ হাকিম। সেখানে একেকজন কাউন্সিলর নিজেদের ওয়ার্ড সম্পর্কে নানা তথ্য তুলে দেন। সকলের কথা শোনার পর মেয়র নিজে বক্তব্য রাখতে গিয়ে জানান, সুব্রত মুখোপাধ্যায়ের (Subrata Mukherjee)নামে বালিগঞ্জে সংগ্রহশালা ও রাস্তার নামকরণ করা হচ্ছে। শিগগিরই সংগ্রহশালা নির্মাণের কাজ শুরু হবে। টাউন হলের অধিবেশনে এমনই জানিয়েছেনমেয়র ফিরহাদ হাকিম। সূত্রের খবর, একডালিয়া (Ekdalia Evergreen) ক্লাবের আশেপাশেই এই সংগ্ৰহশালা নির্মাণ করার পরিকল্পনা রয়েছে পুরসভার।

Advertisement

[আরও পড়ুন: স্কুল কবে খুলবে? চূড়ান্ত দিনক্ষণ জানাতে এক সপ্তাহ সময় চাইল রাজ্য, আবেদন মঞ্জুর হাই কোর্টে]

এর আগে সুব্রত মুখোপাধ্যায়কে শ্রদ্ধা জানাতে তাঁর স্মৃতিবিজড়িত একডালিয়া এভারগ্রিনের ভবনটিকে ‘সুব্রত ভবন’ নামকরণ করার সিদ্ধান্ত নিয়েছিলেন ক্লাব কর্তারা। নভেম্বরে তাঁর মৃত্যুর পরপরই একডালিয়া এভারগ্রিনের অনুরাগী ও সংঘের সদস্যরা জানিয়েছিলেন, “সিদ্ধান্ত আমাদের হয়েছে ঠিকই, কিন্তু ছন্দবাণী বউদির সম্মতি নিয়েই ক্লাব ভবনের নাম বদলে দেব। সরকার ও পুরসভার অনুমতি নিয়ে দাদার মূর্তিটাও বসানো হবে।” এবার তাঁর নামে হবে সংগ্রহশালা এবং রাস্তাও।

Advertisement

[আরও পড়ুন: বুস্টার ডোজ হিসাবে ব্যবহৃত হবে করোনার ন্যাজাল ভ্যাকসিন! ট্রায়ালে ছাড়পত্র দিল DCGI]

এদিন টাউন হলের অধিবেশনে পুরসভার আর্থিক সংকটের (Fund Crisis) কথা মেনে নেন মেয়র ফিরহাদ হাকিম। তিনি জানান, অনেক কিছু করার পরিকল্পনা রয়েছে পুরসভার। কিন্তু ভাঁড়ারে টান, তাই প্রকল্পগুলি বাস্তবায়িত করা যাচ্ছে না। বৃহস্পতিবারই বিজ্ঞপ্তি দিয়ে জানানো হয়েছিল, অর্থ সংকট আছে, তাই আপাতত পুরকর্মীদের পেনশন বন্ধ করা হচ্ছে। শুক্রবার এর প্রতিবাদে ‘নো পেনশন, নো কেএমসি’ লেখা প্ল্যাকার্ড হাতে বিক্ষোভ দেখান বিজেপি কাউন্সিলর সজল ঘোষ।

Sangbad Pratidin News App

খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ