BREAKING NEWS

৮ আষাঢ়  ১৪২৮  বুধবার ২৩ জুন ২০২১ 

READ IN APP

Advertisement

বচসা চলাকালীন আচমকা ২ জনকে চপারের কোপ, চাঞ্চল্য যোধপুর পার্ক এলাকায়

Published by: Sucheta Sengupta |    Posted: July 16, 2020 8:55 am|    Updated: July 16, 2020 9:09 am

Man accussed to attempt to murder of 2 by stabbing with choper at Jodhpur Park

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: বাজারে বচসা থেকে উত্তেজনা। বুধবার ভর সন্ধেবেলা যোধপুর পার্ক বাজারে দু’জনকে চপার দিয়ে কুপিয়ে খুনের চেষ্টার অভিযোগ উঠল এক মাংস বিক্রেতার বিরুদ্ধে। গুরুতর জখম অবস্থায় দুই ব্যক্তি ভরতি হাসপাতালে। ঘটনার তদন্ত শুরু করেছে লেক থানার পুলিশ। তবে অভিযুক্তরা এখনও অধরা।

ঘটনার সূত্রপাত আসলে দিন দুই আগে। যোধপুর পার্ক (Jodhpur Park) বাজার এলাকায় দুটি পাড়ার মধ্যে সাময়িক ঝামেলা হয়। সেই ঝামেলা থামাতে যান সনৎ নস্কর নামে এক বাসিন্দা। তখনকার মতো ঝামেলা মিটে যায়। বুধবার দিনের বেলা সনৎবাবু কাজে যাওয়ার সময় ওই পাড়া দিয়ে গেলে কয়েকজন তাঁর উপর চড়াও হয়ে মারধর করে বলে অভিযোগ। তিনিও পালটা প্রতিরোধ করেন।

[আরও পড়ুন: আর ৩০ নয়, এবার ট্যাক্সিতে উঠলেই দিতে হবে পঞ্চাশ টাকা ভাড়া, জানুন কবে থেকে কার্যকর]

এরপর বাড়ি ফিরে সনৎবাবু ঘটনাটি জানান তাঁর কাকা বিশ্বজিৎ নস্করকে। তিনি এবং তাঁর এক বন্ধু গোপাল দাস বুধবার সন্ধেবেলা ওই যুবকদের সঙ্গে কথা বলতে চান। কেন তাঁরা বারবার এমন ঝামেলা করতে চাইছেন, সেই প্রশ্ন তোলেন বিশ্বজিৎবাবু ও গোপালবাবু। অভিযোগ, এরপরই বচসা থেকে উত্তেজিত হয়ে বিশ্বজিৎ ও গোপালকে চপারের কোপ বসিয়ে দেয় এক ব্যক্তি। তাঁদের আহত অবস্থায় উদ্ধার করে স্থানীয় হাসপাতালে ভরতি করান প্রতিবেশীরাই।

[আরও পড়ুন: ঢুকতেই দিল না পুলিশ, ডেপুটেশন দিতে গিয়ে লালবাজারের গেট থেকেই ফিরলেন সৌমিত্র খাঁ]

স্থানীয় সূত্রে খবর, হামলাকারী ব্যক্তি মাংস ব্যবসার সঙ্গে যুক্ত। ব্যবসা সংক্রান্ত কোনও বচসার কারণে এই হামলা কি না, তাও খতিয়ে দেখা হচ্ছে। তদন্তে নেমেছে লেক থানার পুলিশ। তবে পুলিশের ভূমিকা নিয়ে অভিযোগ তুলছেন জখম বিশ্বজিৎবাবুর স্ত্রী। তাঁর অভিযোগ, পুলিশ অভিযুক্তদের গ্রেপ্তার করার ব্যাপারে উদাসীন। যোধপুর পার্কের মতো অভিজাত এলাকায় সন্ধেবেলা প্রকাশ্যে এ ধরনের হামলার ঘটনায় এলাকার নিরাপত্তা নিয়ে প্রশ্ন উঠছে। কিছুটা আতঙ্কিত এলাকাবাসী।

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement