৮ জ্যৈষ্ঠ  ১৪২৬  বৃহস্পতিবার ২৩ মে ২০১৯ 

BREAKING NEWS

Menu Logo নির্বাচন ‘১৯ দেশের রায় LIVE রাজ্যের ফলাফল LIVE বিধানসভা নির্বাচনের রায় মহানগর রাজ্য দেশ ওপার বাংলা বিদেশ খেলা বিনোদন লাইফস্টাইল এছাড়াও ফটো গ্যালারি ভিডিও গ্যালারি ই-পেপার
নির্বাচন ‘১৯

৮ জ্যৈষ্ঠ  ১৪২৬  বৃহস্পতিবার ২৩ মে ২০১৯ 

BREAKING NEWS

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: রাস্তায় বেরোলেই পাশ থেকে উড়ে আসবে গা-জ্বালানি কোনও মন্তব্য। কেউ আবার আরও একধাপ এগিয়ে আকার ইঙ্গিতে অশালীনতাকে চরম পর্যায়ে নিয়ে যাবে। আজকাল মেয়েরা রাস্তায় বের হওয়ার আগে এসবের জন্য প্রস্তুত হয়েই বেরোয়। বাসে গা ঘেঁষে কোনও পুরুষ যাত্রীর দাঁড়ানো, হালকাভাবে ভুল জায়গায় ছুঁয়ে দেওয়া এখন গা সওয়া হয়ে গিয়েছে। কেউ কখনও প্রতিবাদ করে, কেউ প্রতিবাদ করে করে ক্লান্ত। নিত্যদিনের জীবনে একই ঘটনা নিয়ে কতবারই বা প্রতিবাদ করা যায়? কিন্তু তবু মনে একটা সুপ্ত আশা তো থাকেই। আজ হয়তো এমন ঘটনার সম্মুখীন হতে হবে না। কিন্তু যতদিন পুরুষকূলের মধ্যেও এই একই ইচ্ছা না জাগছে, ততদিন কাকস্য পরিবেদনা।

ফের একথা প্রমাণ করল একটি ভিডিও। সোশ্যাল সাইটে ছড়িয়ে পড়েছে এটি। বলতে গেলে রীতিমতো ভাইরাল। ভিডিওয় দেখা গিয়েছে এক বৃদ্ধ বাসের সিটে বসে বসে সামনে দাঁড়ানো এক মহিলার পিছন থেকে ছবি তুলছে। মেয়েটি নিতান্তই তাঁর মেয়ের বয়সি। এমনকী একবার ছবি তুলে সন্তষ্ট হতে পারেনি সেই বৃদ্ধ। ক্যামেরা ফোন হাতে নিয়ে ঝপাঝপ ক্লিক করেছে। কিন্তু ঘুঘুর জন্যও শিকারী রয়েছে। ওই বৃদ্ধের পিছনে বসে এক যুবক গোটা ঘটনাটি ক্যামেরাবন্দি করেছে। আর তারপর ঝোপ বুঝে কোপ। বৃদ্ধের হাত থেকে ফোন কেড়ে নেন সেই যুবক। বেকায়দায় পড়ে অভিযুক্ত গলা তুলে ‘প্রতিবাদ’ করতে চায়। কিন্তু তার ‘প্রতিবাদ’ ধোপে টেকেনি। বাসের পুরুষ সহযাত্রী ও মহিলা যাত্রীদের ওই যুবক দেখিয়ে দেন কীভাবে ওই বৃদ্ধ মহিলাদের ছবি তুলছিল। ছবি দেখে উত্তেজিত হয়ে ওঠেন বাসের অন্যান্য যাত্রীরা। মহিলাদের থেকেও জোরাল প্রতিবাদ জানান তাঁরাই। সরাসরি বলেন, একের জন্য আজ একশো বদনাম হচ্ছে। দু-একজন এমন অশালীন কাণ্ড করছে, আর তার জন্য বদনাম হচ্ছে গোটা পুরুষকূল।

[ আরও পড়ুন: টিয়ারুলের মৃত্যুর বদলা ভোটবাক্সে নেবেন কংগ্রেস কর্মীরা, হুঙ্কার সোমেনের ]

কবে, কোথায়, কখন ভিডিওটি তোলা হয়েছিল, তা কিছু জানা যায়নি। কিন্তু ভিডিও তার জন্য থেমে থাকেনি। নেটিজেনদের ওয়ালে ওয়ালে ঘুরে বেড়াচ্ছে ভিডিওটি। এবং আশ্চর্যের বিষয় তার মধ্যে বেশিরভাগই পুরুষ। মহিলাদের উপর অশালীন কাজকর্মের প্রতিবাদে এই যে এগিয়ে আসছে পুরুষরা, নিঃসন্দেহে তা বড় পদক্ষেপ। কিন্তু বাসের ওই যুবকটির মতো প্রশ্ন তুলেছে নেটিজেনরাও। তাদেরও বক্তব্য একটাই। একের জন্য সবাই কেন দোষের ভাগী হবে? পুরুষ মাত্রই যে অশালীনতার পূজারী নয়, তা বোঝাতে হবে বাকিদের। বাসের এই ঘটনাটায় যেমন বাসে উপস্থিত মহিলাদের সপ্রশংস দৃষ্টি পড়েছে ওই অজ্ঞাতপরিচয়ের যুবকের প্রতি, তেমন প্রশংসা প্রাপ্য সমস্ত পুরুষদের। আর সেই প্রাপ্য অর্জন করে নিতে যে পুরুষদেরই এগিয়ে আসতে হবে, এই ভিডিও এবং নেটিজেনরা আরও একবার সেই কথা প্রমাণ করে দিল।

[ আরও পড়ুন: অ্যাপ ক্যাবে বসেই এটিএম জালিয়াতির শিকার আরোহী, গ্রেপ্তার অভিযুক্ত চালক ]

আরও পড়ুন

আরও পড়ুন

ট্রেন্ডিং