১৬ অগ্রহায়ণ  ১৪২৮  শুক্রবার ৩ ডিসেম্বর ২০২১ 

READ IN APP

Advertisement

নিরাপত্তা জোরদার রেলে, গার্ডের সঙ্গে এবার সরাসরি যোগাযোগ মহিলা কামরার

Published by: Bishakha Pal |    Posted: January 24, 2019 11:27 am|    Updated: January 24, 2019 11:27 am

Panic button in ladies compartment

সুব্রত বিশ্বাস: একেবারে খোলনলচে বদলে গেল লোকাল ট্রেনের। চলনে-বলনে, ঠমক-ঠামকে বলা চলে। সময়ানুবর্তিতা আর নিরাপত্তার ক্ষেত্রে জোরদার পদক্ষেপ। ভারতীয় রেলে প্রথম। শিয়ালদহ ডিভিশনের ইলেকট্রিক বিভাগের কর্মপন্থায় খুশি রেলমন্ত্রক।

মহিলাদের সুরক্ষার ক্ষেত্রে রেলের বিবর্তনে এল আমূল সংশোধন। মহিলা কামরায় এবার দেওয়া হল ‘প্যানিক বোতাম’। যাতে প্রয়োজনে চাপ দিয়ে চালক ও গার্ডের সঙ্গে সরাসরি কথা বলতে পারবেন মহিলা যাত্রীরা। বিপদ বা অতি প্রয়োজনে ব্যবহার করা যাবে অনায়াসে। মহিলা কামরায় সিসিটিভি রেকর্ডিং হবে। সিকিউরিটি বিভাগের কর্মীদের মোবাইলের সঙ্গে এই ক্যামেরা সংযুক্ত থাকবে। পাসওয়ার্ড দিয়ে মোবাইলে তাঁরা কামরার সঠিক চিত্র দেখতে পারবেন। মহিলা কামরার ভিতর এবং বাইরের দেওয়ালে নানা ধরনের চিত্র আঁকা হয়েছে। যাতে এক নান্দনিকতার ছোঁয়া রয়েছে। কোচটি সাজানো হয়েছে অভিনব পদ্ধতিতে। শুধু সুরক্ষাই নয়, ট্রেন সময়ে যাতায়াতের জন্য বারো বগির ট্রেনে এবার চারটির বদলে পাঁচটি মোটর কোচ লাগানো হয়েছে। ফলে গাড়ির গতি বাড়বে স্বাভাবিক ভাবে। ‘লেট লতিফ’-এর বদনাম ঘোচাতে রেলের এই উদে্যাগ বলে জানান শিয়ালদহ ডিভিশনের সিনিয়র ডিইই (টিআরএস) প্রদীপকুমার দত্ত।

হাইওয়েতে তোলা তুলছে ‘ডাকাত’ পুলিশ, অভিযোগে সরব গায়ক সৌমিত্র ]

চালকের কামরা অত্যধিক গরম হয়ে যায়। গ্রীষ্মকালে তা অসহনীয় হয়ে ওঠে। এজন্য এবার চালকের কামরা এসি করা হয়েছে। চালকের মানসিক অবস্থা ঠিক রাখতে এই বিশেষ ব্যবস্থা। কামরায় ইলেকট্রিক্যাল অ্যালার্ম চেন দেওয়া হল। যা কি না ‘পুশ বোতাম’ রূপে। এই বোতাম চাপলে চালক ও গার্ড দু’জনেই একসঙ্গে বিষয়টি জানতে পারবেন এবং ট্রেন থামাতে পারবেন। অ্যালার্ম চেন টানলে বহু ক্ষেত্রে কাজ হত না, ফলে তা বদলে ফেলা হল।সম্পূর্ণ রেকে এবার থেকে এলইডি আলো চালু করা হল। এমনকী হেডলাইটও পাওয়ারফুল এলইডি লাইটের। বিদু্যৎ খরচ কমানোর সঙ্গে দীর্ঘমেয়াদি।নির্ধারিত লোকাল ট্রেনের নাম সামনে লেখা থাকে। এবার তা ট্রেনের পাশেও লেখা থাকবে। যাতে যাত্রীরা কাউকে জিজ্ঞাসা না করেও দেখে নিতে পারবেন কোন লোকাল। ‘হেড কোড’ এই বিবর্তনে সুবিধা হবে যাত্রীদের বলে জানান সিনিয়র সেকশন ইঞ্জিনিয়ার শুভাশিস বন্দ্যোপাধ্যায়। ভারতীয় রেলে বিবর্তিত এই লোকাল ট্রেনটি সংস্কারের পর রানাঘাট ইয়ার্ডে রাখা হয়েছে। যা জিএসের অনুমোদন নিয়ে চলবে এ সপ্তাহেই বলে জানা গিয়েছে।

রেলের পরীক্ষা ঘিরে উত্তেজনা সল্টলেকে, পরীক্ষার্থীদের উপর পুলিশের লাঠিচার্জ ]

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে