২০ অগ্রহায়ণ  ১৪২৮  মঙ্গলবার ৭ ডিসেম্বর ২০২১ 

READ IN APP

Advertisement

দুই অন্তঃসত্ত্বাকে লাথি মারার অভিযোগ, কাঠগড়ায় আর জি করের নিরাপত্তাকর্মী

Published by: Bishakha Pal |    Posted: January 31, 2020 7:59 pm|    Updated: January 31, 2020 9:25 pm

Security guard is accused for beating two pregnant women

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: দুই অন্তঃসত্ত্বাকে লাথি মারার অভিযোগ উঠল আর জি কর হাসপাতালের নিরাপত্তারক্ষীর বিরুদ্ধে। ঘটনায় চাঞ্চল্য ছড়িয়েছে হাসপাতাল চত্বরে। অভিযোগ, শুক্রবার হাসপাতালে এক আত্মীয়কে দেখতে আসেন ওই দুই মহিলা। কিন্তু তাঁদের দেখা করতে দেননি নিরাপত্তারক্ষী। উলটে তিনি ওই দুই মহিলাকে লাথি মারেন বলে অভিযোগ। ওই নিরাপত্তারক্ষীর বিরুদ্ধে মানিকতলা থানায় অভিযোগ দায়ের হয়েছে।

আহত দুই মহিলার নাম অঞ্জু বিবি এবং মঞ্জু বিবি। পরিজনরা জানিয়েছেন, শুক্রবার আর জি কর হাসপাতালে এক আত্মীয়কে দেখতে এসেছিলেন তাঁরা। হাসপাতালের নিরাপত্তারক্ষীকে তাঁরা সেকথা জানান। কিন্তু নিরাপত্তারক্ষী কোনওরকম সহযোগিতা করেননি বলে অভিযোগ। ওই দুই মহিলাকে তিনি জানান, ভিজিটিং আওয়ার্স শেষ হয়ে গিয়েছে। তাই রোগীর সঙ্গে দেখা করা যাবে না। তবে ভিজিটিং আওয়ার্স ছাড়া রোগীর সঙ্গে দেখা করার অন্য রাস্তা রয়েছে বলেও জানান ওই নিরাপত্তারক্ষী। বলেন, ভিজিটিং আওয়ার্সের বাইরে রোগীর সঙ্গে দেখা করতে গেলে ২০ টাকা লাগবে। এই দুই মহিলা টাকা দিতে অস্বীকার করেন। তখনই হয় গন্ডগোল।

[ আরও পড়ুন: ফের মেট্রো বিভ্রাট, নেতাজি ভবন স্টেশনে রেক থেকে ধোঁয়ায় ছড়াল আতঙ্ক ]

অভিযোগ, এরপরই নিরাপত্তারক্ষীর সঙ্গে তুমুল বচসা শুরু হয় দুই মহিলার। কথার মাঝেই তাঁদের পেটে লাথি মারেন নিরাপত্তারক্ষী। দুই মহিলা অন্তঃসত্ত্বা ছিলেন। যন্ত্রণায় তাঁরা সেখানেই বলে পড়েন। অভিযোগ, মারধর চলার সময় দু’জনেই অচৈতন্য হয়ে পড়ে। তাঁদের হাসপাতালে ভরতি করতে হয়। ওই দুই মহিলার পরিজনরা এও অভিযোগ তুলেছে, নিরাপত্তারক্ষী ছাড়া ওই ওয়ার্ডের এক আয়াও মারধর করে তাঁদের। এরপরই ধুন্ধুমার হয়ে ওঠে হাসপাতাল চত্বর। খবর যায় থানায়। মানিকতলা থানা থেকে পুলিশ এসে পরিস্থিতি আয়ত্ত্বে আনে। ওই নিরাপত্তারক্ষী ও আয়ার বিরুদ্ধে অভিযোগ দায়ের করেছে দুই অন্তঃসত্ত্বার পরিবার।

[ আরও পড়ুন: একলাফে ২৫ শতাংশ ফি বৃদ্ধি, সাউথ পয়েন্টের সামনে রাস্তায় বসে অবরোধ অভিভাবকদের ]

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে