৩ শ্রাবণ  ১৪২৬  শুক্রবার ১৯ জুলাই ২০১৯ 

BREAKING NEWS

Menu Logo বিলেতে বিশ্বযুদ্ধ মহানগর রাজ্য দেশ ওপার বাংলা বিদেশ খেলা বিনোদন লাইফস্টাইল এছাড়াও ফটো গ্যালারি ভিডিও গ্যালারি ই-পেপার
বিলেতে বিশ্বযুদ্ধ

৩ শ্রাবণ  ১৪২৬  শুক্রবার ১৯ জুলাই ২০১৯ 

BREAKING NEWS

অর্ণব আইচ: খুন নাকি আত্মহত্যা? পাটুলিতে একাকী বৃদ্ধের মৃত্যুর কারণ ঘিরে একাধিক প্রশ্নের ভিড়৷ বুধবার সকালে দোতলা বাড়ির নিচ থেকে নিরঞ্জন চৌধুরি নামে ওই বৃদ্ধের রক্তাক্ত দেহ উদ্ধার করা হয়৷ প্রাথমিকভাবে আত্মহত্যা বলেই অনুমান পুলিশের৷ তবে খুন হয়েছেন কি না, সে বিষয়ে নিশ্চিত করে এখনই কিছু বলতে নারাজ তদন্তকারীরা৷  ঘটনার কিনারায় বৃদ্ধের পরিচারিকা এবং তাঁর সন্তানদের সঙ্গে কথা বলছে পুলিশ৷

[ আরও পড়ুন: জানেন, এবার কোথায় হবে মহম্মদ আলি পার্কের দুর্গাপুজো?]

অসমের শিলচরে বিদ্যুৎ দপ্তরে কাজ করতেন বছর আশির নিরঞ্জন চৌধুরি৷ স্ত্রী মারা গিয়েছেন আগেই৷ বর্তমানে ভরসা বলতে ছেলে এবং মেয়ে৷ বিয়ের পর থেকে মেয়ে থাকেন দিল্লিতে৷ ছেলে কর্মসূত্রে থাকেন অসমে৷ পাটুলির বাড়িতে তাই একাই থাকতেন ওই বৃদ্ধ৷ দেখভালের জন্য রাত আটটা পর্যন্ত বাড়িতে থাকতেন এক পরিচারিকা৷ বুধবার সকালে প্রতিবেশীরা রাস্তার মাঝে ওই বৃদ্ধের রক্তাক্ত দেহ পড়ে থাকতে দেখেন৷ তড়িঘড়ি খবর দেওয়া হয় পাটুলি থানায়৷ দেহ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তে পাঠানো হয়েছে৷

[ আরও পড়ুন: কাজ করার সময়ে দুর্ঘটনা, কলকাতা বিমানবন্দরে মৃত্যু বিমানকর্মীর]

বৃদ্ধের মৃত্যুর কারণ নিয়ে রহস্য দানা বেঁধেছে৷ আপাতভাবে আত্মহত্যা বলে অনুমান করা হলেও, তাঁর মৃত্যু ঘিরে নানা প্রশ্ন ইতিমধ্যেই মাথাচাড়া দিয়েছে৷ প্রাথমিক তদন্তে পুলিশের অনুমান, ছাদ থেকে লাফ দিয়ে নিচে পড়েই মৃত্যু হয়েছে নিরঞ্জন চৌধুরির৷ তবে বৃদ্ধ কেন ছাদে উঠেছিলেন, তা নিয়ে এখনও রহস্য রয়ে গেছে। কেউ তাঁকে ঠেলে নিচে ফেলে দিয়েছিল কি না তাও খতিয়ে দেখা হচ্ছে। বৃদ্ধের মৃত্যুর সঙ্গে পরিচারিকার কোনও যোগসূত্র রয়েছে কি না, সে বিষয়টিও ভাবাচ্ছে তদন্তকারীদের৷ নিহতের সন্তান এবং পরিচারিকার সঙ্গে কথা বলছে পুলিশ৷

[ আরও পড়ুন: উল্টোডাঙা উড়ালপুল বন্ধ থাকায় বাড়ছে যানজট, জেনে নিন বিকল্প রাস্তাগুলি]

এর আগেও একাধিকবার সল্টলেকে একাকী বৃদ্ধ-বৃদ্ধার মৃত্যুর ঘটনা ঘটেছে৷ কখনও হতাশায় আত্মহত্যা, আবার কখনও খুন করার তত্ত্বও শিরোনামে উঠে এসেছে৷ সেই তালিকাতেই জুড়ল পাটুলিতে বৃদ্ধের রহস্যমৃত্যু৷ বারবার নিঃসঙ্গ বৃদ্ধের মৃত্যুর ঘটনায় বড়সড় প্রশ্নচিহ্নের মুখে শহরের নিরাপত্তা৷

আরও পড়ুন

আরও পড়ুন

ট্রেন্ডিং