৪ মাঘ  ১৪২৬  শনিবার ১৮ জানুয়ারি ২০২০ 

BREAKING NEWS

Menu Logo ফিরে দেখা ২০১৯ মহানগর রাজ্য দেশ ওপার বাংলা বিদেশ খেলা বিনোদন লাইফস্টাইল এছাড়াও বাঁকা কথা ফটো গ্যালারি ভিডিও গ্যালারি ই-পেপার

৪ মাঘ  ১৪২৬  শনিবার ১৮ জানুয়ারি ২০২০ 

BREAKING NEWS

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: বিজেপির পুরসভা অভিযান ঘিরে ধুন্ধুমার মধ্য কলকাতা। চাঁদনি চকে ব্যারিকেড ভাঙার চেষ্টা করে বিজেপি। পুলিশকে লক্ষ্য করে বোতল ছোঁড়া হয় মিছিলকারীদের পক্ষ থেকে। পরিস্থিতি সামাল দিতে লাঠিচার্জ করে পুলিশ। পালটা পুলিশের সঙ্গে ধস্তাধস্তিতে জড়িয়ে পড়ে গেরুয়া শিবিরের সমর্থকরা। বিক্ষোভকারীদের রুখতে বাধ্য হয়ে জলকামান ব্যবহার করতে হয় পুলিশকে। এই ঘটনায় জখম হয়েছেন বেশ কয়েকজন বিক্ষোভকারী। এদিনের মিছিলে উপস্থিত ছিলেন সদ্য বিজেপিতে যোগ দেওয়া টলিউড অভিনেত্রী কাঞ্চনা মৈত্র, রিমঝিম মিত্র-সহ আরও অনেকেই। তবে, মিছিলের মাঝেই পরিস্থিতি সামাল দিতে আটক করা হয় বিক্ষোভকারীদের। সেই সঙ্গে আটক করা হয়েছে বিজেপির তারকা নেত্রী রিমঝিম মিত্রকেও। রিমঝিমের অভিযোগ, এদিন ছেলে পুলিশেরা মহিলা মিছিলকারীদের গায়েও হাত তোলে।

বুধবার গেরুয়া শিবিরের মহিলা মোর্চার অন্যান্য সদস্যদের সঙ্গে অভিনেত্রী তথা বিজেপি নেত্রী রিমঝিম মিত্রকেও  পুলিশের প্রিজন ভ্যানে তোলা হয়েছে। বিজেপি নেত্রী রিমঝিমের সঙ্গেই এদিন বিজেপির কর্মসূচিতে ছিলেন অভিনেত্রী তথা সদ্য বিজেপিতে যোগ দেওয়া কাঞ্চনা মৈত্র। প্রসঙ্গত, বিজেপিতে যোগ দেওয়ার পর সেরকম কোনও দলীয় কর্মসূচীতে সেভাবে অংশগ্রহণ করতে দেখা যায়নি রিমঝিমকে। তবে বুধবার বিজেপির ‘পুরসভা চলো’ অভিযানে বেশ সক্রিয় দেখা গেল।

[আরও পড়ুন: পুরসভা অভিযান ঘিরে পুলিশ-বিজেপি ধস্তাধস্তি, ধুন্ধুমার চাঁদনি চকে ]

ক্রমশই কলকাতায় ভয়াবহ আকার নিচ্ছে ডেঙ্গু। ইতিমধ্যেই প্রাণহানিও হয়েছে বহু মানুষের। এই পরিস্থিতি ডেঙ্গু মুক্ত কলকাতার দাবি নিয়ে রাজপথে বিজেপি। এছাড়াও জলকরমুক্ত কলকাতা, জমির মিউটেশন কমানো, অবৈধ পার্কিং ও জঞ্জালমুক্ত কলকাতা-সহ প্রায় দশ দফা দাবি রয়েছে তাদের। এমনই দশ দফা দাবি নিয়ে কলকাতা পুরসভা অভিযানের সিদ্ধান্ত নেয় গেরুয়া শিবির। নির্ধারিত সূচি অনুযায়ী বুধবার সকালে বিজেপির রাজ্য দপ্তরের সামনে ভিড় জমান বিজেপি কর্মী সমর্থকরা। মিছিলে নেতৃত্ব দেন বিজেপির রাজ্য সভাপতি দিলীপ ঘোষ। এছাড়াও রয়েছেন রাজু বন্দ্যোপাধ্যায়, সৌরভ শিকদার, দেবজিৎ সরকারের মতো নেতারা।

পুলিশের ভ্যান থেকেই রিমঝিম জানান, বিজেপির তরফে আগে থাকতেই পুলিশের কাছ থেকে সবকিছুর জন্যে অনুমতি নেওয়া ছিল। কিন্তু এরপরেও পুলিশ জল কামান ছোঁড়ে এবং লাঠিচার্জ করে বলে দাবি তাঁর। এর পাশাপাশি বিজেপি  নেত্রীর আরও বিস্ফোরক অভিযোগ, তাঁদের গায়ে ছেলে পুলিশেরাও হাত দিয়েছে।   

[আরও পড়ুন: মু্ম্বইতে কেটি পেরি, জ্যাকলিনের সঙ্গে ঘুরে স্ট্রিট ফুড চেখে দেখবেন পপ গায়িকা ]

আরও পড়ুন

আরও পড়ুন

ট্রেন্ডিং