BREAKING NEWS

২৮ আশ্বিন  ১৪২৭  রবিবার ২৫ অক্টোবর ২০২০ 

Advertisement

ডিমের একঘেয়ে পদ খেয়ে মুখ ব্যাজার? সহজে চটজলদি এগুলো রেঁধে দেখুন তো

Published by: Sucheta Sengupta |    Posted: October 12, 2020 11:13 pm|    Updated: October 13, 2020 12:23 am

An Images

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: ডিম (Eggs) ক’রকমভাবে খেতে পারেন আপনি? সেদ্ধ কিংবা পোচ – তা তো সুস্বাস্থ্যের কথা ভেবে। কিন্তু এছাড়া ডিমের সুস্বাদু পদ বলতে যা বোঝায়, তার কত রকমফের আপনার জানা? না জানা থাকলেও, মনখারাপ করবেন না। ডিম দিয়ে অতি সহজেই বেশ এমন কিছু জিভে জল আনা এবং চটকদার পদ বানিয়ে ফেলতে পারবেন, যা আপনার অতিথিরা মোটেই আগে কখনও চেখেই দেখেননি। রইল তেমনই অজানা কয়েকটি পদ –

অমলেট পকোড়া
উপকরণ –
অমলেটের জন্য:
ডিম – ৪টি
পেঁয়াজকুচি – আধ কাপ
কাঁচালঙ্কা কুচনো – ১ টেবিল চামচ
টমেটো, ক্যাপসিকাম কুচনো – আধ কাপ,
জলে গোলানো অ্যারারুট – ২ টেবিল চামচ
লবণ – স্বাদমতো
জল – আধ কাপ
মটন কিমা – আধ কাপ

কুচনো পার্সলে (সাজানোর জন্য) – এক চা-চামচ

গার্লিক মেয়োনিজের জন্য:
ময়দা – ৪ টেবিল চামচ
মাখন – চার টেবিল চামচ
নুন – স্বাদমতো
জল – আধ কাপ
রসুনবাটা – আধ চা-চামচ।

মূল রান্নার জন্য:
ময়দা – ১ কাপ
লবণ – স্বাদমতো
ঘি – ১ টেবিল চামচ
জল – আধ কাপ
সুইট চিলি সস – আধ কাপ
রান্নার তেল – ২ কাপ

[আরও পড়ুন: ক্লান্তি দূর করতে এই ৬ জিনিস মেশানো কফির কাপে চুমুক দিচ্ছেন? হতে পারে সর্বনাশ]

প্রণালি:
সব উপকরণ ফেটিয়ে নিয়ে অমলেট বানানোর মিশ্রণ তৈরি করুন। তেল গরম করুন। আধ কাপ ডিমের মিশ্রণ ফ্রাইং প্যানে ঢেলে ছড়িয়ে দিন। আঁচ কম করুন। কিছুক্ষণ ভাজা হলে অমলেটটি উল্টে দিন। পুরো ভাজা হয়ে গেলে মাঝখান থেকে কেটে নিন। দুটি অর্ধচন্দ্রাকৃতি আকারে কেটে নিন। এবার টুকরো দুটো মুড়িয়ে রোল করে নিন। একটি রোল অর্ধেক কেটে দুটি করুন। একটি অমলেট থেকে চারটি রোল হবে। এভাবে বাকি ডিম দিয়ে রোল বানান। এবার পরের পর্যায়। প্রথমে মেয়নিজ বানিয়ে নিন। তার জন্য ময়দার সঙ্গে সমপরিমাণ মাখন লাগবে। নুন মেশান। ভালো করে মেশান। মিহি হতে হবে। এবার অল্প অল্প জল যোগ করতে থাকুন আর ক্রমাগত ফেটাতে থাকুন। ক্রিমের মতো ঘন মিশ্রণ তৈরি হবে। দেখে নিন মিশ্রণটি মসৃন হয়েছে কিনা। মেয়নিজ তৈরি হলো। এবার তাতে রসুনবাটা যোগ করুন। আর অল্প আঁচে সামান্য নেড়েচেড়ে নিন। সামান্য একটু ঘন হয়ে গেলে নামিয়ে নিন। এবার এটি ছড়িয়ে দিন বানিয়ে রাখা ওমলেট রোলের ওপর। একটু পার্সলে কুচি ছড়িয়ে গরম গরম পরিবেশ করুন।

Eggs

এগস ইন ককটেল সস

উপকরণ –
ককটেল সসের জন্য:
মেয়োনিজ – আধ কাপ
জল – আধ কাপ
গুঁড়ো দুধ – কোয়ার্টার কাপ
টমেটো কেচাপ – ১ টেবিল চামচ
চিনি – ১ চা-চামচ
রসুন বাটা – আধা চা-চামচ
লেবুর রস – ২ টেবিল চামচ

মূল রান্নার জন্য:
ডিম সেদ্ধ – ৪টি
শসাকুচি – ১ চা-চামচ
টমেটোকুচি – ১ চা-চামচ
পেঁয়াজকলি কুচি – ১ চা-চামচ
পার্সলেকুচি – ১ চা-চামচ,
কাঁচালঙ্কা কুচনো – আধা চা-চামচ

প্রণালি:
ককটেল সসের জন্য – সব কিছু একসঙ্গে ফেটে নিন।

মূল রান্নার জন্য:
সেদ্ধ ডিম অর্ধেক করে কেটে একটি প্লেটে সাজিয়ে নিন। ডিমের কুসুম বের করে নিয়ে কুচি করে নিন। এবার বাকি সব উপকরণ এবং ২ টেবিল চামচ ককটেল সস ডিমের কুসুমের সঙ্গে মিশিয়ে নিন। এবার সেদ্ধ ডিমের মাঝখানে কুসুমের ফাঁকা জায়গায় উঁচু করে ডিমের কুসুমের মিশ্রণটি ভরে দিন। এবার প্রতিটি অর্ধেক ডিমের ওপর ১ টেবিল চামচ ককটেল সস ঢেলে ঢেকে দিন। Eggs

এবার হাঁসের ডিম, ১ চা-চামচ অ্যারারুট ও আধা চা-চামচ লবণ একসঙ্গে ফেটান। কড়া আঁচে বড় ফ্রাইং প্যানে তেল গরম করুন। তেলের পরিমাণ এমন হবে যেন অমলেট আধ ডোবা তেলে ভাজা হয়। আধ ডোবা তেলে অমলেট ভাজুন। ভাজা অমলেটটি রান্না করা মাংসের ওপর বসিয়ে দিন। কড়া আঁচে আলাদা কড়াইয়ে ১ টেবিল চামচ রান্নার তেল গরম করুন। ১ চা-চামচ অয়েস্টার সস, ১ চা-চামচ চিলি ব্যাক বিন সস, কোয়ার্টার চা-চামচ লবণ, আধা চা-চামচ চিনি দিয়ে ২ থেকে ৩ মিনিট নাড়ুন। এবার ১ টেবিল চামচ অ্যারারুট কোয়ার্টার কাপ জলে গুলে কড়াইয়ে দিন। ঝোল ফুটে ঘন হলে বাকি সেসামি অয়েল ঢেল দিন। এই ঝোল মাংস ঢেকে রাখা ডিমের ওপর ছড়িয়ে দিন। গরম গরম পরিবেশন করুন।

[আরও পড়ুন: জিরো সাইজের আশায় কিটো ডায়েট! জীবন নিয়ে ছিনিমিনি খেলছেন না তো?]

ডিম-পনির পকোড়া
উপকরণ:
ডিম সেদ্ধ ও আড়াআড়ি ৪ টুকরো করা – ৩টি
পনির – চৌকো করে কাটা ১২ টুকরা
ময়দা – ১ কাপ
লবণ – পরিমাণমতো
ঘি – ২ টেবিল চামচ
রান্নার তেল – ৩ কাপ।

Egg

প্রণালি:
ময়দাতে নুন ও ঘি দিয়ে ময়ান দিন। ভালো করে মেশান। তারপর জল দিয়ে মাখুন ঘন হওয়া পর্যন্ত। গোলা বা ব্যাটারটি ক্ষীরের মতো ঘন হবে। তেল গরম করুন। গরম হয়ে গেলে আঁচ কমিয়ে দিন। এবার সেদ্ধ করে রাখা ডিমের একটি একটি টুকরো ময়দার ব্যাটারে ডুবিয়ে একটি পাত্রে রাখুন। পনিরও ব্যাটারে ডোবান। এবার ডিমের উপর এক টুকরো করে পনির বসান। এভাবে প্রতিটি ডিমের সঙ্গে একটি করে পনির থাকবে। ওই দুটো এক মিনিট রাখুন, জমতে দিন। তারপর ডিমের টুকরো ও পনিরের টুকরো একসঙ্গে ধরে আবার গোলায় ডুবিয়ে নিন। দেখবেন যাতে আলাদা না হয়ে যায়। এবার দুটো একসঙ্গে ফুটন্ত তেলে ছেড়ে দিন। একে একে সবকটি এভাবে ভেজে নিন। ডিম পনির পকোড়া সোনালি করে ভাজা হলে তুলে নিন। তেল ঝরিয়ে ফেলুন। গরম গরম পরিবেশন করুন। সঙ্গে দিন ধনেপাতার চাটনি ও টমেটো সস।

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement