২৬ আষাঢ়  ১৪২৭  শনিবার ১১ জুলাই ২০২০ 

Advertisement

ওয়ার্ক ফ্রম হোম করছেন? শরীর-মন চাঙ্গা রাখতে প্রাতঃরাশে এই খাবারগুলি অবশ্যই রাখুন

Published by: Sandipta Bhanja |    Posted: May 14, 2020 5:00 pm|    Updated: May 14, 2020 5:00 pm

An Images

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: বিগত দেড় মাস ধরেই লকডাউন চলছে। যার ফলে অফিস বন্ধ থাকায় অনেককেই বাড়িতে বসে কাজ করতে হচ্ছে। ফলে আগে অফিস যাওয়ার মতো রুটিন আর নেই। গৃহবন্দি হয়ে বাড়ি বসে কাজ করতে করতে অনেকেই শারীরিক এবং মানসিক স্ট্রেসে ভুগছেন। আবার কেউ কেউ রয়েছেন কায়িক পরিশ্রম না হওয়ার জন্যে ব্রেকফাস্ট করছেন না । তবে মনে রাখবেন খিদে না পেলেও শরীরের কিন্তু এনার্জির জন্যে খাদ্যের দরকার। সিংহভাগ কর্মীদের ক্ষেত্রেই অফিস শুরু হওয়ায় টাইমিং ৯টা। এক্ষেত্রে প্রাতঃরাশ কিন্তু একটা গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করে। এমন কিছু খান যাতে অনেকক্ষণ পেটও ভরা থাকে, আবার ভারী খাবার না হওয়ায় ওজন বাড়ার ভয়ও কম! তা শরীর-মন উভয়ই চাঙ্গা রাখতে কী খাবেন ভাবছেন তো?

মাখন-পাউরুটি, পোহা, উপমা, মুসেলি, ওট, পরিজ এক্ষেত্রে খুব ভাল অপশন। সকালের ভরপেট জলখাবার সারাদিন শরীরকে শক্তি জোগায়। তাই অল্প সময়ে পুষ্টিকর কিছু খেতে তালিকায় থাকুক এই খাবারগুলি-

চা/কফি- সকালের আলস্য কাটাতে এক কাপ ধোঁয়া ওঠা চা সবারই চাই। তাই বাড়িতে মজুত করে রাখুন টি-ব্যাগ। যা সকালের ঘুম কাটিয়ে নিমেষে চাঙা করবে আপনাকে। কেউ কেউ আবার চায়ের বদলে কফির পক্ষপাতী। তাঁরা নিজেকে চাঙা রাখতে ঘুরেফিরে কফি পান করেন। তাঁরাও কপির প্যাকেট কিনে রাখুন এই বেলা। তবে সঙ্গে বিস্কুট রাখতে ভুলবেন না যেন।

জ্যাম/জুস- পাউরুটি, বিস্কুট হোক কিংবা রুটি, জ্যাম এদের সবারই সঙ্গী। পাউরুটি, বিস্কুট, রুটিতে জ্যাম মাখিয়ে খেয়ে নিন, অনেকক্ষণ পেট ভরতি থাকবে। অনেকেই ফলের রস খেতে পছন্দ করেন। চাইলেই জলখাবারে যোগ করতে পারেন।

কর্নফ্লেক্স- যাঁরা পেট ভরানোর পাশাপাশি পুষ্টির দিকেও খেয়াল রাখেন তাঁদের জন্য একেবারে আদর্শ কর্নফ্লেক্স। দুধে ভিজিয়ে প্লেন কিংবা চকোলেট ফ্লেভারের কর্নফ্লেক্স খেতে পারেন। স্বাদ বাড়াতে তাতে মধু, ফলের টুকরোও যোগ করতে পারেন। এতে দুধ, কর্নফ্লেক্সের মধ্যে থাকা ভিটামিন এবং মিনারেলসের পাশাপাশি ফলের পুষ্টিও পাবে শরীর।

পিনাট বাটার- জ্যামের পরিবর্ত হিসেবে দারুণ অপশন। পাউরুটি, বিস্কুট, রুটি বা স্যান্ডউইচ- সবেতেই এটি মাখিয়ে খেতে পারেন। এর মধ্যে রয়েছে বাদামের পুষ্টিগুণ। যা আপনার পেশিকে শক্তিশালী করে। এই গুলি ছাড়া স্মুদিতেও পিনাট বাটার মিশিয়ে খেতে পারেন। একই উপকার মিলবে।

ওটস- ওটস প্রোটিন এবং ফাইবারে সমৃদ্ধ হওয়ায় স্বাস্থ্যকর জলখাবার হিসেবে পরিচিত। মশালা ওটস থেকে শুরু করে টক দই দিয়ে প্লেন ওটসও আপনি খেতে পারেন। আবার ওটসের খিচুড়িও চলতে পারে। এই জলখাবার বানানোও খুব সহজে। কোনও ঝক্কি নেই।

[আরও পড়ুন: লকডাউনে শাপে বর, মাছ ধরা স্থগিত থাকায় বর্ষায় পাতে পড়বে বেশি ওজনের ইলিশ]

মুসেলি- মুসেলি হল ওটমিল ডিশ যা ওটস, বাদাম, শুকনো বীজ এবং তাজা বা শুকনো ফলের মতো উপকরণে বানানো। সকালে উঠে একবাটি এই খাবার খেলে পেট যেমন ভরতি থাকে, তেমনি পুষ্টিগুণেও সমৃদ্ধ এই খাবার।

ডালিয়া- একটি বাটি ডালিয়াও প্রাতঃরাশের জন্য ভাল বিকল্প। ফাইবার এবং প্রোটিনে ভরপুর এই উপাদান স্বাস্থ্যকর এবং ওজন কমাতে সহায়তা করে। ডালিয়ার সঙ্গে দুধ, পছন্দের ফল মিশিয়ে খেতে পারেন। অনেকে আবার সবজি দিয়ে ডালিয়ার খিচুড়িও পছন্দ করেন।

সুজি/উপমা- মিষ্টি সুজিও খেতে পারেন। অনেকক্ষণ পেট ভরা থাকে। অনেকে আবার ঝাল সুজি পছন্দ করেন, সেটাও খাওয়া যেতে পারে। উপমাও প্রাতঃরাশ হিসেবে খুব ভাল। সবজি দিয়ে বানানো উপমা সকালে জলখাবারের খুব ভাল। এতে কোলেস্টেরল নেই। রয়েছে প্রচুর পরিমাণে প্রোটিন।

[আরও পড়ুন: লকডাউনে মন খারাপ? আইসক্রিম বানিয়ে খুশি করুন পরিবারের সকলকে]

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement