BREAKING NEWS

৩০ বৈশাখ  ১৪২৮  শুক্রবার ১৪ মে ২০২১ 

READ IN APP

Advertisement

শ্বাসকষ্টের বদলে স্নায়ুর সমস্যা, চিকিৎসকদের ভাবাচ্ছে করোনা আক্রান্ত শিশুদের নতুন উপসর্গ

Published by: Bishakha Pal |    Posted: July 3, 2020 5:03 pm|    Updated: July 3, 2020 5:06 pm

Children with Covid-19 could develop neurological symptoms

ফাইল ফটো

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: এখন শুধু জ্বর আর শ্বাসকষ্ট নয়, করোনার সংক্রমণে আরও অনেক রোগই দেখা দিচ্ছে রোগীর শরীরে। কিন্তু সম্প্রতি জানা গিয়েছে করোনার সংক্রমণে শিশুদের মধ্যে স্নায়ু সম্পর্কিত সমস্যা তৈরি হচ্ছে। একটি সমীক্ষায় এই তথ্য উঠে এসেছে। JAMA নিউরোলজিতে প্রকাশিত এই সমীক্ষা অনুযায়ী ৪ জন করোনা আক্রান্ত শিশু স্নায়বিক সমস্যার শিকার হয়েছে। অথচ কারওর মধ্যে শ্বাসকষ্ট ছিল না।

চিকিৎসার জন্য তাদের ইনটেনসিভ কেয়ারে ভরতি হতে হয়েছিল। ওই শিশুদের মাথা যন্ত্রণা, পেশীর দুর্বলতা, দেহের অন্যান্য অঙ্গে ব্যথা ইত্যাদি সমস্যা দেখা দিয়েছিল এনকেফালোপ্যাথিও হয়েছিল তাদের। এই রোগে স্মৃতি হ্রাস পেতে পারে। এক্ষেত্রে ডিমেনশিয়া, স্মৃতিলোপ, অবসাদের মতো সমস্যার সম্মুখীন হতে পারে রোগী। এমনকী কোমাতেও চলে যাওয়ার সম্ভাবনা থাকে। যদিও এর সংখ্যা একেবারে নগণ্য। চিকিৎসকদের মতে বেশিরভাগ করোনা রোগীরই জ্বর, সর্দি, কাশি ছিল। নিউমোনিয়া ছিল খুব কম জনের।

[ আরও পড়ুন: পোষা কুকুরের করোনা? সাবধান! দ্রুতই সংক্রমণ ছড়াতে পারে মালিকের শরীরেও ]

জানা গিয়েছে করোনা মানুষের মস্তিষ্কের কোষকে সংক্রমিত করতে পারে। আর তার ফলেই রোগীর মধ্যে স্নায়বিক সমস্যা দেখা যায়। এও জানা গিয়েছে করোনায় আক্রান্ত হওয়ার পর দেহের একাধিক অঙ্গে তা সংক্রমিত হতে পারে। ফলে ফুসফুস-সহ হৃদযন্ত্র, কিডনি, খাদ্যনালী, লিভার ইত্যাদিও আক্রান্ত হতে পারে। এভাবেই মালটি সিনড্রোমে আক্রান্ত হচ্ছে শিশুরা। ইউরোপ ও আমেরিকায় করোনা আক্রান্ত শিশুদের পর্যবেক্ষণ করে এই তথ্য পেয়েছেন চিকিৎসকরা। যদিও প্রাথমিকভাবে জ্বর, তীব্র শ্বাসকষ্ট, বুকে ব্যথা, ঝিমুনি, ত্বকে ব়্যাশ ইত্যাদি উপসর্গও দেখা গিয়েছে অনেকের শরীরে। কিন্ত করোনার ফলে শিশুদের মধ্যে স্নায়বিক সমস্যাগুলি দেখা দেওয়ায় চিন্তার ভাঁজ চিকিৎসকদের কপালে।

[ আরও পড়ুন: স্বাধীনতা দিবসেই মিলবে করোনা থেকে মুক্তি! ১৫ আগস্ট আসছে ভারতের প্রথম টিকা Covaxin ]

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement