×

৫ ফাল্গুন  ১৪২৫  সোমবার ১৮ ফেব্রুয়ারি ২০১৯ 

BREAKING NEWS

Menu Logo মহানগর রাজ্য দেশ ওপার বাংলা বিদেশ খেলা বিনোদন লাইফস্টাইল এছাড়াও বাঁকা কথা ফটো গ্যালারি ভিডিও গ্যালারি ই-পেপার
নিউজলেটার

৫ ফাল্গুন  ১৪২৫  সোমবার ১৮ ফেব্রুয়ারি ২০১৯ 

BREAKING NEWS

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: শীত বিদায় নেওয়ার পালা এসেছে৷ আবহাওয়ার বদলে লেগেই রয়েছে হাঁচি-সর্দি-কাশির মতো সমস্যা৷ আবার সঙ্গে রয়েছে গলা ধরে যাওয়ার উৎপাত৷ এই সমস্যা থেকে রেহাই পেতে নিশ্চয়ই ঘণ্টার পর ঘণ্টা সময় কাটাচ্ছেন চিকিৎসকের কাছে৷ সঙ্গে রয়েছে অ্যান্টিবায়োটিক, কফ সিরাপ৷ এত কাণ্ড করেও ফলাফল শূন্য৷ সর্দি-কাশি-হাঁচির হাত থেকে রেহাই পাচ্ছেনই না৷ পরিবর্তে চিন্তা বাড়াচ্ছে রোগ, তাই তো? ওষুধ খেয়ে সর্দি-কাশি সারছে না মানে বড় কোনও রোগের ইঙ্গিত নয় তো? এই প্রশ্নও নিশ্চয়ই এতদিনে আপনার ভাবনা বাড়াতে শুরু করেছে? চিকিৎসকের দেওয়া ওষুধে রোগ সারছে না তো কী হয়েছে? এত চিন্তা করার কিছুই নেই৷ জানেন কি ঘরোয়া কফ সিরাপেও সারতে পারে মরশুমি নানা রোগ৷ আপনার বাড়িতে থাকা খুব পরিচিত উপকরণের সাহায্যেই ঘরোয়া পদ্ধতিতে তৈরি করা সম্ভব এই কফ সিরাপ৷ জেনে নিন পদ্ধতি৷

[ঘরোয়া উপায়ে বাড়িতেই তৈরি করুন পারফিউম]

আপনার রান্নাঘরে থাকা সামান্য কিছু উপকরণেই আপনি খুব কম সময়ে বানিয়ে ফেলতে পারেন কফ সিরাপ৷ মধু এবং আদা মরশুম পরিবর্তনের যেকোনও রোগকে দূরে রাখার জন্য অত্যন্ত উপকারী৷ তাই কফ সিরাপ তৈরির জন্য নিন মধু ও আদা৷ এক কাপ জলও নিতে হবে আপনাকে৷ এছাড়াও সঙ্গে লাগবে লেবুর রস৷ গোলমরিচও আমাদের শরীরের উষ্ণতা ধরে রাখতে সাহায্য করে৷ তাই এই কফ সিরাপে দিতে হবে সামান্য পরিমাণ গোলমরিচ৷ এছাড়াও ১ চামচ ভিনিগার দিতে হবে ওই কফ সিরাপে৷ 

[টবের দিন শেষ, নষ্ট হয়ে যাওয়া জিনসে তৈরি করুন বাগান]

এ তো নয় গেল উপকরণের কথা৷ এবার জেনে নিন কীভাবে তৈরি করবেন কফ সিরাপ৷ একটি পাত্রে এক কাপ জল ঢেলে দিন৷ এবার গ্যাস জ্বেলে ওই পাত্রটি বসান৷ জলের মধ্যে একে একে লেবুর রস, মধু, আদা কুচি, গোলমরিচ, ভিনিগার দিয়ে দিন৷ পুরোপুরি ফুটে যাওয়ার পর নামিয়ে ফেলুন৷ ঠান্ডা হয়ে গেলে মিশ্রণটি একটি কাচের গ্লাসে ছেঁকে নিন৷ গোলমরিচ যেকোনও সংক্রমণ কমাতে সাহায্য করে৷ মধু সর্দি-কাশি প্রতিরোধ করে৷ তাই প্রতিদিন নিয়ম করে ওই কফ সিরাপ পান করলে দেখবেন কাশি আপনার কাছ থেকে বিদায় নিতে বাধ্য৷

আরও পড়ুন

ট্রেন্ডিং