BREAKING NEWS

৩০ বৈশাখ  ১৪২৮  শুক্রবার ১৪ মে ২০২১ 

READ IN APP

Advertisement

অতিরিক্ত বিদ্যুতের বিল দেখে মধ্যবিত্তের মাথায় হাত! জানুন সাশ্রয়ের সহজ উপায়

Published by: Sandipta Bhanja |    Posted: July 19, 2020 7:41 pm|    Updated: July 19, 2020 7:41 pm

How to reduce your excessive electric bill, here are some tips

ছবি: প্রতীকী

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: বিদ্যুতের বিল বিভ্রাটের জেরে এখন মধ্যবিত্তদের মাথায় হাত। এমাসে কত বিল এল আর আগের মাসে কত বিল এসেছে, তার কড়চা মোটামুটি প্রস্তুতই থাকে সবার বাড়িতে। কিন্তু সম্প্রতি আকাশছোঁয়া ইলেকট্রিক বিল দেখে, চক্ষু চড়ক গাছ হচ্ছে প্রায় সবারই। মধ্যবিত্ত, নিম্ন মধ্যবিত্ত এমনকী ছাড় পাচ্ছেন না তারকারাও। কারও ১৫ হাজার, কারও ২১ হাজার…! মাসের শেষে এমন বিল দেখে পিলে চমকাতে বাধ্য! সেরকম সাশ্রয়ী না হলেও অনেকেই জানেন যে তাঁদের বাড়িতে এমন কোনও ইলেকট্রিক এপ্লায়েন্সেস ব্যবহৃত হয় না, যাতে কিনা মাস গেলে এত মোটা অঙ্কের বিল গুনতে হতে পারে। কিন্তু উপায় কি! কথাতেই আছে- ‘সাবধানের মার নেই’। অতঃপর এই অতিরিক্ত বিলের রাশ টানতে নিজেদের সতর্ক হওয়াও প্রয়োজন। কীভাবে? জেনে নিন বিদ্যুৎ সাশ্রয়ের কিছু সহজ উপায়।

একেই গরমকাল। উপরন্তু লকডাউনে গৃহবন্দি। তাই ঘরের আলো-পাখারও নিস্তার নেই। এঘর থেকে ওঘর যেতে গেলেও মনে হয় ঘেমে-নেয়ে একসা হয়ে গেলাম! তাই বলে অহেতুক পাখা চালিয়ে রাখার অব্যেস আমাদের অনেকেরই রয়েছে। তাই প্রথমেই বলব, অপ্রয়োজনে ঘরের আলো, পাখা চালানো বন্ধ করুন। প্রয়োজনে কখনও কখনও প্রত্যেকটা ঘরের লাইট-ফ্যান অফ করে দিয়ে সবাই ড্রয়িং রুমে আড্ডা দিন। অবশ্যই অবসরে। অফিস কিংবা পড়াশোনার কাজ থাকলে তা সম্ভব নয় সবসময়ে। মনে রাখবেন, ঘরের এসি কুংবা পাখারও কিন্তু বিশ্রামের প্রয়োজন হয়। একনাগাড়ে চলতে থাকলে বিকল হতে বাধ্য!

 

 

 

লকডাউনে ওয়ার্ক ফ্রম হোম করতে হচ্ছে অনেককেই। কাজেই কম্পিউটার অতি প্রয়োজনীয় বস্তু এখন। তাই কাজ হয়ে গেলে বন্ধ করে দিন। অযথা চালিয়ে রাখবেন না! এতে কিছুটা বিদ্যুৎ সাশ্রয় করতে পারবেন।

[আরও পড়ুন: শৌচাগারের ফ্লাশ থেকেও ছড়াতে পারে করোনা! জেনে নিন সুরক্ষিত থাকার উপায়]

লকডাউনে অফিস-কলেজ সব ছুটি থাকায় সবাই বাড়িতে। অতএব সারাদিন দেদার এসিও চলতে থাকে অনেকের বাড়িতে। এক্ষেত্রে বলব, কিছুটা সময় এসি চালিয়ে রেখে ঘর ঠাণ্ডা করে নিয়ে বন্ধ করে দিন। এতে অনেকক্ষণ ফ্যান চালানোর প্রয়োজন হয় না।

ল্যাপটপ, মোবাইল ফোন, ট্রিমার কিংবা যে কোনও গ্যাজেটস, চার্জ দেওয়া হয়ে গেলে চার্জার খুলে রাখুন। কারণ, প্লাগ ইন করে রাখলে বিদ্যুতের অপচয় হয়।

kids-room-1

ঘরে আলো-বাতাস ঢোকার ব্যবস্থা থাকলে দিনের অধিকাংশ সময়ে ঘরের আলো বন্ধ রাখুন। আরেকটি খুব সূক্ষ্ম বিষয় এটা হয়তো আমরা অনেকেই এড়িয়ে যাই, সেটা হল- বাড়ির সবকটি ঘরে অবশ্যই এলইডি আলো লাগান। এতে অনেকটাই বিদ্যুতের সাশ্রয় হয়। আর হ্যাঁ, সপ্তাহে অন্তত একদিন ফ্রিজ খালি করে পরিষ্কার করুন। ওই দিনটা ঘণ্টা খানেকের জন্য ফ্রিজ বন্ধ রাখুন। এছাড়াও, ব্যালকনি, ছাদের লাইট অযথা জ্বালিয়ে রাখবেন না কাজ না থাকলে।

[আরও পড়ুন: মহামারীর জমানায় কীভাবে ধোবেন সবজি-ফল? নয়া গাইডলাইন দিল কেন্দ্রীয় খাদ্য সুরক্ষা সংস্থা]

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement