৩২ শ্রাবণ  ১৪২৬  রবিবার ১৮ আগস্ট ২০১৯ 

Menu Logo মহানগর রাজ্য দেশ ওপার বাংলা বিদেশ খেলা বিনোদন লাইফস্টাইল এছাড়াও বাঁকা কথা ফটো গ্যালারি ভিডিও গ্যালারি ই-পেপার

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক:  রাত পোহালেই শুরু হবে বাংলার নতুন বছর৷ বছরের আর পাঁচটা দিন যতই জিনস, টি-শার্টে কাটুক না কেন, এই একটা মাত্র দিনই সাজগোজ থেকে খাওয়াদাওয়া সবেতেই বাঙালি হয়ে ওঠার আপ্রাণ চেষ্টা৷ বাঙালি সাজ, খাওয়াদাওয়া, পুজো, হালখাতা এই সবই যেন নববর্ষের পরিপূরক৷ কিন্তু একটা শাড়ি এবং সঙ্গে কিছু গয়না পরে ফেললেই তো আর হল না, বরং এমন কিছু পরতে হবে যাতে আদর্শ বাঙালি তন্বীর পাশাপাশি আপনি হয়ে উঠতে পারেন ফ্যাশনিয়েস্তা৷

[আরও পড়ুন: ঘুমের আগে সামান্য চর্চা, পার্লার এড়িয়ে সহজে পান উজ্জ্বল-দীপ্তিময় ত্বক]

সপ্তাহের প্রথম কর্মব্যস্ত দিন সোমবার৷ বছরের আর পাঁচটা দিন অফিসের ব্যস্ততায় যতই কাটুক না কেন, পয়লা বৈশাখের দিনটা হোক একটু অন্যরকম৷ অফিস ছুটি৷ তার উপর আবার বছরের প্রথম দিন৷ তাই নিশ্চয়ই ভেবেছেন মন্দিরে যাবেন? কিন্তু এখনও কী পরবেন ঠিক করেননি, তাই তো? চিন্তা নেই৷ সকালের সাজে থাক সাদা-লালের ছোঁয়া৷ সুতির কোনও শাড়িতে হয়ে উঠুন মোহময়ী৷ সঙ্গে গয়নায় থাক আভিজাত্যের ছোঁয়া৷ অনেকেই এই বিশেষ দিনে সোনার গয়না পরতে পছন্দ করেন৷ পরতেই পারেন লাইট গোল্ড৷ লম্বা চুল হলে, তা খুলে রাখাই ভাল৷ এক্কেবারে বাঙালি তন্বী সেজে চলে যান মন্দিরে৷ পুজো দেওয়ার ফাঁকে কে বা বলতে পারে বছরের শুরুতে এই সাজে কতজনকেই আপনি ভুলিয়ে দিতে পারেন?

WHITE_RED SAREE

বিকেলের দিকে নিশ্চয়ই আপনার কোথাও যাওয়ার পরিকল্পনা রয়েছে? তাই বিকেলের জন্য বেছে নিন সুতি অথবা লিনেন শাড়ি৷ তবে ব্লাউজে থাক আধুনিকতার ছোঁয়া৷ পিঠে আঁকা ব্লাউজই এখন ফ্যাশনে ইন৷ কোনও ব্লাউজের পিঠে রয়েছে লক্ষ্মীপেঁচা, আবারও কোনটাতে থাকুক রবি ঠাকুরের লেখা কবিতা৷

[ আরও পড়ুন: আঁচলে মমতা, কুচিতে মোদি, বডিতে হাত, ভোটের বাজারে বিকোচ্ছে ‘পার্টি শাড়ি’]

blouse

শাড়ি-ব্লাউজ তো নয় হল৷ এতেই তো আর সাজ সম্পূর্ণ হয় না৷ মানানসই গয়না ছাড়া যে সাজটাই মাটি৷ তাই শাড়ি-ব্লাউজের সঙ্গে সাজেও থাক বাঙালিয়ানার স্পর্শ৷ কড়ির কিংবা হাল ফ্যাশনের গামছা দিয়ে তৈরি গয়না পরুন৷ বাজার ছেয়ে গিয়েছে রবীন্দ্রনাথ ঠাকুরের কবিতা কিংবা বৈশাখকে স্বাগত জানানো বার্তা দেওয়া গয়নাগাটি৷ তাও পরতেই পারেন৷ এই সাজের মাধ্যমে বৈশাখের বিকালে আপনি প্রশংসা কুড়োতে বাধ্য৷ সঙ্গে চুলে থাক ফুলের উপস্থিতি৷ হাত খোঁপা করে এক কোণে কিংবা গোটা খোঁপাতেই লাগাতে পারেন ফুল৷ 

[ আরও পড়ুন: আরও শৌখিন অন্তর্বাস চান? ওয়ার্ডরোবে রাখুন ডেনিম প্যান্টি]

EAR-RING
কীভাবে সাজবেন, তা তো বুঝতে পারলেন৷ কিন্তু নিশ্চয়ই ভাবছেন কোথায় পাবেন এমন হালফ্যাশনের ব্লাউজ কিংবা গয়নাগাটি? চিন্তা করবেন না৷ বরং তাড়াতাড়ি গড়িয়াহাট কিংবা দক্ষিণাপণে একবার ঢুঁ মারুন৷ সেখানেই পেয়ে যাবে আপনার চাহিদামতো জিনিসপত্র৷ আর বৈশাখের শুরুতে সাজগোজের জন্য অন্যান্য মহিলাদের কাছে হয়ে উঠুন ঈর্ষার পাত্রী৷

[ আরও পড়ুন: গুজরাট-মুম্বইয়ে নয়া ফ্যাশন ট্রেন্ড, মোদিকে টেক্কা দিচ্ছে প্রিয়াঙ্কা শাড়ি]

EAR-RING

আরও পড়ুন

আরও পড়ুন

ট্রেন্ডিং