৬ ভাদ্র  ১৪২৬  শনিবার ২৪ আগস্ট ২০১৯ 

BREAKING NEWS

Menu Logo মহানগর রাজ্য দেশ ওপার বাংলা বিদেশ খেলা বিনোদন লাইফস্টাইল এছাড়াও বাঁকা কথা ফটো গ্যালারি ভিডিও গ্যালারি ই-পেপার

৬ ভাদ্র  ১৪২৬  শনিবার ২৪ আগস্ট ২০১৯ 

BREAKING NEWS

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: সবে মে মাসের শুরু। সামনে এখনও গোটা জুন মাসটা পড়ে রয়েছে। কিন্তু এখনই কাঠফাটা রোদে নাজেহাল জীবন। সুর্যিমামার চোখ রাঙানি উপেক্ষা করে কর্মক্ষেত্রে যাওয়াই যেন দুষ্কর হয়ে উঠেছে। তাই বলে কি বাড়িতে শান্তি আছে? সেখানেও গরমের হাত থেকে রেহাই পাওয়া দায়। বাড়িতে এয়ার কন্ডিশন না থাকলে তো আর কথাই নেই। রাতের ঘুম ছুমন্তর। প্যাচপ্যাচে গরমে স্বাভাবিকভাবে মেজাজটাও খিটখিটে হয়ে থাকে। ফ্যানে আর কাজ হচ্ছে না। অথচ এসি কেনার অনুমতিও দিচ্ছে না পকেট। তাহলে উপায়? এয়ার কুলার তো কিনে ফেলতেই পারেন। এসির তুলনায় দামও অনেক কম, আবার ফ্যানের চেয়ে অনেক বেশি আরামদায়কও বটে। এবার নিশ্চয়ই ধন্দে পড়বেন, বাজারে বিক্রি হওয়া হাজারটা এয়ার কুলারের মধ্যে কোনটি বেছে নেবেন? চিন্তা নেই। এই প্রতিবেদনে রইল বাছাই করা পাঁচটি এয়ার কুলারের সন্ধান। যা এক্কেবারে আপনার বাজেটের মধ্যে।

[আরও পড়ুন: বাজার থেকে এই পাঁচটি ট্যারিফ ভাউচার তুলে নিল BSNL]

১. হিন্দওয়্যার স্নোক্রেস্ট ৮৫ লিটার ডেসার্ট এয়ার কুলার: থ্রি স্পিড কন্ট্রোল-যুক্ত এই কুলারটি চাররকম ভাবে হাওয়া দেয়। অটো ফিল ট্যাঙ্ক হওয়ায় আপনার কোনও মাথা ব্যথা থাকবে না। বর্তমানে এটি দেশের অন্যতম সেরা কুলার। এর হানিকম্প প্যাডস দীর্ঘদিন বিনা ঝঞ্ঝাটে চলে। এতে আইস চেম্বারও রয়েছে। এর নিচে চাকা লাগানো থাকায় বাড়ির যে কোনও প্রান্তে এটি ব্যবহার করা অত্যন্ত সহজ। এক বছরের ওয়ারেন্টি-সহ এই এয়ার কুলার আপনি পেয়ে যাবেন ৯০০০ থেকে ১০ হাজারের মধ্যেই।

২. বাজাজ ফ্রিও রুম কুলার: এতেও একটি আইন চেম্বার রয়েছে যেখানে দ্রুত বরফ জমে যায়। এর হাওয়া বেশ ঠান্ডা এবং আরামদায়ক। এতে অটোমেটিক ওয়াটার লেভেল ইন্ডিকেটর থাকে। অর্থাৎ কখন জলের প্রয়োজন তা সেই ইন্ডিকেটর দেখলেই বোঝা যাবে। এটি সম্পূর্ণ ক্ষয় ফ্রি এবং শক-ফ্রি। এতে যাতে কোনও ড্যামেজ না হয় তার জন্য ড্রেনের ব্যবস্থাও রয়েছে। ইনভার্টারেও বেশ ভালই চলে এই এয়ার কুলার। এটির মূল্যও ১০ হাজারের মধ্যেই।

৩. ক্রম্পটন ACGC-DAC ৫৫৫ ডেসার্ট এয়ার কুলার: এয়ার কুলার চালাবেন, কিন্তু চান মাসের শেষে বিদ্যুতের বিল দেখে যেন আঁতকে উঠতে না হয়। তাহলে আপনার জন্য এটিই সেরা চয়েজ। এতে ইউনিফর্ম ফ্লো ডিসপেনসর, আলাদা আইস চেম্বার এবং মোটর চালিত লোভার্স রয়েছে। থ্রি-সাইড হানিকম্ব কুলিং প্যাড বড় ঘরের জন্য আদর্শ। সাড়ে ৯ হাজারের মধ্যেই পেয়ে যাবেন এটি।

[আরও পড়ুন: ভোল পালটে এবার নয়া রূপে আসছে ফেসবুক]

৪. মহারাজা হোয়াইটলাইন ব়্যাম্বো এয়ার কুলার: সস্তায় ভাল মানের এয়ার কুলার বলতে যা বোঝায় এটি তাই। এটিতেও ইন-বিল্ট ওয়াটার-লেভেল ইন্ডিকেটর রয়েছে। এটিতেও কারেন্ট লাগার ভয় নেই। ৬৫ লিটারের অ্যান্টি-ব্যাকটেরিয়াল ট্যাঙ্কের কুলারটির ফ্যান ১৮ ইঞ্চির। রয়েছে অ্যারোমা চেম্বার এবং এর হাওয়ার গতি বেশ দ্রুত। এটি বাড়ি আনতে ৯০০০ টাকাও খরচ করতে হবে না। তার নিচেই পেয়ে যাবেন এই এয়ার কুলার।

৫. ওরিয়েন্ট ওশান এয়ার CD7001H ৭০ লিটার ডেসার্ট এয়ার কুলার: ৭০ লিটারের জলের ট্যাঙ্কের এই কুলারটি ভরসা করে দীর্ঘদিন ব্যবহার করতে পারবেন। চাররকমভাবে বাতাস ছড়িয়ে দেয় এটি। এর মূল্যও ৯০০০ থেকে ১০ হাজার টাকার মধ্যে।

আরও পড়ুন

আরও পড়ুন

ট্রেন্ডিং