BREAKING NEWS

১৫ অগ্রহায়ণ  ১৪২৭  মঙ্গলবার ১ ডিসেম্বর ২০২০ 

Advertisement

আরও বিপাকে টুইটার, মানচিত্র কাণ্ডে সংস্থার জবাবে সন্তুষ্ট নয় যৌথ সংসদীয় কমিটি

Published by: Abhisek Rakshit |    Posted: October 28, 2020 4:16 pm|    Updated: October 28, 2020 5:02 pm

An Images

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক:‌ আরও বিপাকে মাইক্রোব্লগিং সাইট টুইটার। সম্প্রতি লাদাখ এবং লাদাখের রাজধানী লেহ (Leh) শহরকে চিনের (China) অংশ হিসেবে দেখানো হয়েছিল টুইটারের মানচিত্রে। এরপরই টুইটার ইন্ডিয়ার আধিকারিকদের কাছে গোটা ঘটনাটির ব্যাখ্যা চেয়ে পাঠিয়েছিল‌ যৌথ সংসদীয় কমিটি। বুধবারের বৈঠকে সেই প্রসঙ্গে টুইটারের জবাবে মোটেই সন্তুষ্ট হল না সেই যৌথ সংসদীয় কমিটি। কমিটির চেয়ারম্যান মীনাক্ষী লেখি খোদ একথা জানান।

বৈঠকের পরে বিজেপি সাংসদ বলেন, ‘‌‘‌লেহকে চিনের অংশ দেখিয়ে টুইটার ভুল করেছে। এজন্য তাঁদের কাছে ব্যাখ্যা চাওয়া হয়েছিল। কিন্তু এদিনের সভায় টুইটার ইন্ডিয়ার জবাবে সন্তুষ্ট নন কমিটির কেউই। এটা ফৌজদারি অপরাধের সমান। যার সাজা সাত বছরের জেল।’‌’ জানা গিয়েছে, বৈঠকে টুইটার ইন্ডিয়ার আধিকারিকরা জানিয়েছেন, সংস্থা এ বিষয়ে ভারতের ভাবাবেগকে সম্মান করে। কিন্তু কমিটির পক্ষ থেকে পরিস্কার তাঁদের জানিয়ে দেওয়া হয়, এই জবাব মোটেই যথোপযুক্ত নয়। এটা শুধু ভাবাবেগের প্রশ্ন নয়, দেশের সার্বভৌমত্বেরও বিষয়।

[আরও পড়ুন: দিওয়ালির আগে ফের আকর্ষণীয় ছাড় মিলবে ফ্লিপকার্ট-অ্যামাজনে, সস্তায় পাবেন আইফোনও]‌

সম্প্রতি টুইটারের (Twitter) মানচিত্রে লাদাখ এবং লাদাখের রাজধানী লেহ (Leh) শহরকে চিনের (China) অংশ হিসেবে দেখানো হয়! জাতীয় নিরাপত্তা বিশেষজ্ঞ নীতিন গোখলে অভিযোগ করেন, তিনি লেহ বিমানবন্দরের সামনে একটি লাইভ ভিডিও করছিলেন। সেই সময়ই ধরা পড়ে ভিডিওর লোকেশনে দেখানো হচ্ছে এটা চিনের অন্তর্গত। লোকেশন হিসেবে যে চিনের নাম দেখানো হচ্ছে তা লক্ষ্য করেছিলেন ‘অবজারভার রিসার্চ ফাউন্ডেশনে’র সভাপতি কাঞ্চন গুপ্তাও। টুইটারে ক্ষোভ উগরে দেওয়ার পাশাপাশি তিনি কেন্দ্রীয় তথ্যপ্রযুক্তি মন্ত্রী রবিশঙ্কর প্রসাদকেও ট্যাগ করেন সেই পোস্টে।

[আরও পড়ুন: প্লে-স্টোর থেকে ৩৬টি জনপ্রিয় অ্যাপ সরাল গুগল, আপনার স্মার্টফোনে নেই তো?]‌

টুইটারের এই ভুল চোখে পড়তেই জনপ্রিয় মাইক্রোব্লগিং সাইটকে কড়া ভাষায় সতর্ক করে ভুল শোধরানোর নির্দেশ দেয় কেন্দ্র। টুইটারের সিইও জ্যাক ডরসিকে ইমেল করে এ ব্যাপারে সতর্ক করেন কেন্দ্রীয় তথ্য ও প্রযুক্তি মন্ত্রকের সচিব অজয় সাহনি। তিনি লেখেন, “ভারতের সংবিধান অনুযায়ী জম্মু ও কাশ্মীর এবং লাদাখ ভারতের অবিচ্ছেদ্য অংশ। ভারতে ব্যবসা করতে হলে ভারতের সংবিধানকে, ভারতবাসীর আবেগকে এবং ভারতের সার্বভৌমত্বকে সম্মান করা আপনাদের কর্তব্য।’’

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement