২৭ কার্তিক  ১৪২৬  বৃহস্পতিবার ১৪ নভেম্বর ২০১৯ 

BREAKING NEWS

Menu Logo মহানগর রাজ্য দেশ ওপার বাংলা বিদেশ খেলা বিনোদন লাইফস্টাইল এছাড়াও বাঁকা কথা ফটো গ্যালারি ভিডিও গ্যালারি ই-পেপার

২৭ কার্তিক  ১৪২৬  বৃহস্পতিবার ১৪ নভেম্বর ২০১৯ 

BREAKING NEWS

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: শীত আসছে। মানেই কলকাতা এবার ‘সিটি অফ জয়’ থেকেই পরিণত হবে ‘সিটি অফ রোম্যান্স’-এ। ছুটি পেলেই রোদে পিঠ দিয়ে বসে সঙ্গীর সঙ্গে রসালাপ- শীতের দুপরে আর কী চাই? তাই ইতিউতি না ঘুরে বেড়িয়ে, বেছে নিন আপনার পছন্দমতো জায়গা।

১) ইকো পার্ক

চিত্তবিনোদনের জন্য অনেককিছুই রয়েছে ইকোপার্কে। নানা রকম স্পোর্টস থেকে পৃথিবীর সাত আশ্চর্যের রেপ্লিকা, কিছুই বাদ নেই প্রায়। রয়েছে হ্রদের জলে বোটিং করার ব্যবস্থাও। প্রবেশ মূল্য ৩০ টাকা। তবে প্রতিটি রাইডের ভাড়া আলাদা। এটি বন্ধ থাকে সোমবার। এছাড়া সপ্তাহের বাকি দিনগুলো খোলা থাকে ইকো পার্ক। মঙ্গল থেকে শনিবার বেলা ১২টা থেকে সন্ধে সাড়ে ৭টা ও রবিবার সকাল ১১টা থেকে সন্ধে সাড়ে ৭টা পর্যন্ত পার্ক খোলা।

এই রুটে অল্প সময়ে দেখে নিন চন্দননগরের জগদ্ধাত্রী পুজো ]

২) ইলিয়ট পার্ক

এখানে অবশ্য চড়ার মতো তেমন কিছু নেই। তবে এখানকার কৃত্রিম হ্রদ ও চারদিকে সবুজের সমারোহ আপনার ভাল লাগবে। প্রতিদিন বেলা ১২টা থেকে রাত ৯টা পর্যন্ত খোলা থাকে ইলিয়ট পার্ক। এখান থেকে টুক করে ঘুরে আসতে পারেন পাশের ভিক্টোরিয়া মেমোরিয়াল।

৩) ভিক্টোরিয়া মেমোরিয়াল

রানি ভিক্টোরিয়ার সম্মানে তৈরি ঐতিহ্যশালী এই ভবন কলকাতার গর্ব। বহুদূর থেকে মানুষ দেখতে আসে এই স্থাপত্য। তবে শীতকালে এখানে স্থাপত্য দেখার থেকে মানুষ আড্ডা মারতেই আসে বেশি। বিশেষত কলেজ পড়ুয়াদের ভিড় চোখে পড়ে বেশি। ভিক্টোরিয়া মেমোরিয়ালের প্রবেশ মূল্য ১০ টাকা। মিউজিয়ামে প্রবেশ করতে হলে আরও ২০ টাকা দিতে হয়। সোমবার ও জাতীয় ছুটি ছাড়া প্রতিদিন সকাল সাড়ে ৫টা থেকে বিকেল সোয়া ৬টা পর্যন্ত খোলা ভিক্টোরিয়া। তবে মিউজিয়াম খোলা থাকে সকাল ১০টা থেকে বিকেল ৫টা পর্যন্ত।

romantic place in kolkata

৪) বোটানিক্যাল গার্ডেন

কলকাতার আরও একটি ঐতিহ্যশালী জায়গা হল বোটানিক্যাল গার্ডেন। হরেক রকম গাছ এখানে দেখা যায়। তবে এর প্রধান দ্রষ্টব্য হল আড়াইশো বছর পুরনো একটি বটগাছ। বোটানিক্যাল গার্ডেনের প্রবেশ মূল্য ১০ টাকা। তবে ক্যামেরা নিয়ে যেতে হলে আরও ২০ টাকা অতিরিক্ত দিতে হয়। প্রতিদিন সকাল ১০টা থেকে সন্ধে ৭টা পর্যন্ত খোলা থাকে এই গার্ডেনের দরজা।

৫) রবীন্দ্র সরোবর

কৃত্রিম এই জলাশয়টি প্রেম করার জন্য আদর্শ জায়গা। এর চারপাশ সবুজে ঢাকা। শীতকালে এখানে অনেক পরিযায়ী পাখি দেখতে পাওয়া যায়। ইচ্ছা হলে হ্রদের জলে বোটিংও করতে পারেন। নিভৃতে সময় কাটাতে হলে চলে আসতেই পারেন শহর থেকে দূরে এই জায়গায়।

৬) মিলেনিয়াম পার্ক

গঙ্গার ধারে এই পার্কের নিজস্ব শোভা যতটা না আপনার মন কাড়বে, তার চেয়েও বেশি ভাল লাগবে গঙ্গের ধারে বসে থাকতে। মোট তিনটি ভাগ রযেছে এই পার্কের। একবার টিকিট কাটলেই তিনটি পার্কে ঢোকার ছাড়পত্র মেলে। টিকিটের দাম মাত্র ১০ টাকা।

৭) প্রিন্সেপ ঘাট

কলকাতার সবচেয়ে পুরনো হাওয়া খাওয়ার জায়গা প্রিন্সেপঘাট। গঙ্গার তীরের এই জায়গা থেকে স্পষ্ট দেখা যায় বিদ্যাসাগর সেতু। সন্ধ্যাবেলা এর সৌন্দর্য অপরিসীম। এখানে কোনও প্রবেশ মূল্য নেই। তবে নৌকায় চড়ে গঙ্গাবক্ষে ভ্রমণ করতে গেলে কিন্তু আপনাকে টাকা খসাতে হবে। 

পর্যটক টানতে নয়া পদক্ষেপ, শিমলায় চালু কাচে মোড়া রেলের কোচ ]

আরও পড়ুন

আরও পড়ুন

ট্রেন্ডিং