BREAKING NEWS

৯ আশ্বিন  ১৪২৭  রবিবার ২৭ সেপ্টেম্বর ২০২০ 

Advertisement

সামাজিক দূরত্ব বজায় রেখে ফল খাচ্ছে বাঁদর! ভাইরাল ছবি দেখে অবাক নেটিজেনরা

Published by: Sayani Sen |    Posted: April 29, 2020 9:30 pm|    Updated: April 29, 2020 9:30 pm

An Images

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: করোনা সংক্রমণ ঠেকাতে এখনও জারি রয়েছে লকডাউন। সাধারণ মানুষকে গৃহবন্দি রাখার জন্য এই উদ্যোগ সরকারের। কিন্তু তা সত্ত্বেও কে শোনে কার কথা? দিব্যি চোর-পুলিশ খেলা করছেন লকডাউনের নিয়ম ভঙ্গকারীরা। কিন্তু সামাজিক দূরত্ব বজায় রাখা যে কতটা প্রয়োজনীয়, সে বিষয় অজানা নয় তাঁদের। অথচ যারা সামাজিক দূরত্ব বজায়ের প্রয়োজনীয়তার বিন্দু বিসর্গও জানে না সেই বাঁদরেরা দিব্যি মেনে চলছে নিয়ম। আপনার অবাক লাগলেও সম্প্রতি এমনই একটি ছবি ভাইরাল হয়েছে। যাতে দেখা গিয়েছে, নিজেদের মধ্যে দূরত্ব বজায় রেখেই দিব্যি খাওয়াদাওয়া করছে তারা।

সম্প্রতি কেন্দ্রীয় মন্ত্রী কিরেণ রিজিজু এই ছবিটি টুইট করেন। তাতে দেখা গিয়েছে একজন যুবক কিছু তরমুজ কেটে বাঁদরদের হাত দিচ্ছেন। রাস্তার একাংশ জুড়ে বসে রয়েছে বেশ কয়েকটি বাঁদর। তবে প্রত্যেকেই নিজেদের মধ্যে দূরত্ব বজায় রেখে বসে রয়েছে। তারা এক এক করে হাত বাড়িয়ে ওই তরমুজ নিচ্ছে। এভাবেই কলাও নিয়েছে তারা। কোনও তাড়াহুড়ো না করে দিব্যি দূরত্ব বজায় রেখে খাবার খাচ্ছে বাঁদরেরা। অরূপ কালিতা নামে এক ব্যক্তি অরুণাচল প্রদেশের ভালুকপংয়ে এই ছবিটি তোলেন। সেই ছবিটি সোশ্যাল মিডিয়ায় হু হু করে ছড়িয়ে পড়তে শুরু করে। চোখের নিমেষে ভাইরাল হয়ে যায়। লাইক, কমেন্টের সংখ্যা বাড়ছে মুহূর্তে মুহূর্তে।

[আরও পড়ুন: কেক নিয়ে বাড়ির সামনে হাজির পুলিশ, জন্মদিনের সারপ্রাইজে চোখ ভিজল বৃদ্ধর]

কিরেণ রিজিজুর পোস্ট করা ছবি নিয়ে রীতিমতো হইচই। নেটিজেনদের মন ছুঁয়েছে ছবিতে দেখতে পাওয়া বাঁদরগুলি। অনেকেই অবাক হয়ে লিখেছেন, “বাঁদরেরা তো সামাজিক দূরত্ব সম্পর্কে কিছুই জানেন না। তা সত্ত্বেও কীভাবে তা বজায় রাখছে তারা?” কেউ কেউ আবার বলছেন, “মানুষের থেকে জীবজন্তুরা যে অনেক বেশি শৃঙ্খলাবদ্ধ জীব, সে বিষয়ে কোনও সন্দেহ নেই। এ ছবি যেন আরও একবার তা প্রমাণ করে দিল।”

সাধারণ মানুষকে লকডাউনের জন্য বোঝাতে হিমশিম খেতে হচ্ছে পুলিশকর্মীদের। তা সত্ত্বেও নিয়ম মানতে নারাজ তাঁরা। অথচ বাঁদরেরা কিছু না জানা সত্ত্বেও সামাজিক দূরত্ব মেনে চলছেন। প্রশ্ন উঠছে, অবলা পশুদের থেকেও কি কোনও শিক্ষা নিতে পারি না আমরা? করোনা ভয়াবহ রূপ নিয়েছে। কিন্তু আর কবে হুঁশ ফিরবে সকলের, মাথাচাড়া দিচ্ছে সেই প্রশ্নও।

[আরও পড়ুন: অনলাইনেই হবে রবীন্দ্র স্মরণ, পঁচিশে বৈশাখে প্রতিযোগিতার আয়োজন করল ভাতারের ক্লাব]

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement