১০ ফাল্গুন  ১৪২৬  রবিবার ২৩ ফেব্রুয়ারি ২০২০ 

Menu Logo মহানগর রাজ্য দেশ ওপার বাংলা বিদেশ খেলা বিনোদন লাইফস্টাইল এছাড়াও বাঁকা কথা ফটো গ্যালারি ভিডিও গ্যালারি ই-পেপার

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: বিশ্বজুড়ে যখন একের পর এক দাবানল হচ্ছে। পুড়ে যাচ্ছে সবুজ। তখন সুখবর পাওয়া গেল আমাদের দেশ থেকে। গত দু’বছরে ভারতে বনাঞ্চল বেড়েছে ৫ হাজার ১৮৮ বর্গ কিলোমিটার৷ সোমবার একটি রিপোর্ট পেশ করে এই কথাই জানালেন কেন্দ্রীয় মন্ত্রী প্রকাশ জাভড়েকর। ‘India state of forest report 2019‘ শীর্ষক ওই রিপোর্ট অনুযায়ী, দেশে বেড়েছে অরণ্যের পরিমাণ।

এপ্রসঙ্গে জাভড়েকর বলেন, ‘এই রিপোর্ট হাতে পাওয়ার পর আমাদের আত্মবিশ্বাস বেড়েছে৷ আমরা প্যারিস চুক্তির দিকে এগিয়ে যেতে পারছি৷ তবে অসম ও ত্রিপুরা-সহ উত্তর-পূর্বে বনভূমির পরিমাণ কমেছে৷ অন্যদিকে ম্যানগ্রোভ অরণ্যের পরিমাণ আগের বছরগুলোর তুলনায় বেড়ে হয়েছে ৫৪ বর্গ কিলোমিটার৷’

[আরও পড়ুন: মহারাষ্ট্রের মহাজোটে অশান্তি! মন্ত্রিত্ব না পেয়ে ক্ষুব্ধ বেশ কয়েকজন কংগ্রেস বিধায়ক]

 

যে সব রাজ্যে সবচেয়ে বেশি বনাঞ্চল বৃদ্ধি পেয়েছে, তার মধ্যে রয়েছে কর্ণাটক, অন্ধ্রপ্রদেশ এবং কেরল। কর্ণাটকে বনাঞ্চল বেড়েছে ১ হাজার ২৫ বর্গ কিমি। অন্ধ্রপ্রদেশে বনাঞ্চল বেড়েছে ৯৯০ বর্গ কিমি এবং কেরলে বনাঞ্চল বেড়েছে ৮২৩ বর্গ কিমি। যদিও রাজ্য হিসেবে দেখতে গেলে যেখানে সবচেয়ে বেশি অংশ বনাঞ্চল রয়েছে তার মধ্যে প্রথমে স্থানে রয়েছে মধ্যপ্রদেশ। দ্বিতীয় স্থানে রয়েছে অরুণাচল প্রদেশ। আর তারপরে ছত্তিশগড়, ওড়িশা এবং মহারাষ্ট্র।

তবে ওই রিপোর্ট অনুযায়ী, উত্তর-পূর্বে বনাঞ্চলের পরিমাণ ৭৬৫ বর্গ কিলোমিটার কমেছে। অন্যদিকে ম্যানগ্রোভ অরণ্য বেড়েছে ৫৪ বর্গ কিলোমিটার। পশ্চিমবঙ্গের বনভূমির পরিমাণ নিয়ে মিশ্র রিপোর্ট দিয়েছে কেন্দ্র৷  তাতে জানানো হয়েছে, পশ্চিমবঙ্গে ঘন বনভূমির পরিমাণ ২০ বর্গ কিলোমিটার কমেছে৷ সাধারণ বনভূমি খুব সামান্য হলেও কমেছে৷ তবে, মাঝারি ঘনত্বের বনভূমির পরিমাণ ১৪ বর্গ কিলোমিটার বেড়েছে৷ কিন্তু, সংরক্ষিত বন এলাকায় সামগ্রিকভাবে অরণ্যের পরিমাণ সাত বর্গ কিলোমিটার কমেছে৷ নির্দিষ্ট বনভূমির বাইরে গাছ লাগানো বা বনসৃজনের কাজ ভালো হয়েছে বলে এই রাজ্যের প্রশংসাও করা হয়েছে রিপোর্টে৷ কেন্দ্রীয় বন ও পরিবেশ মন্ত্রক বনাঞ্চলের রাজ্যওয়াড়ি যে রিপোর্ট প্রকাশ করেছে, তাতে শুধু পশ্চিমবঙ্গ নয়, ভারতের অনেক রাজ্যের ক্ষেত্রেই এই প্রবণতা দেখা যাচ্ছে।

[আরও পড়ুন: পরিবেশ সচেতনতায় ব্যক্তিগত উদ্যোগ, বাঁশ দিয়ে জলের বোতল তৈরি IIT পড়ুয়ার]

 

পশ্চিমবঙ্গ নিয়ে বলা হয়েছে, মূলত গাছ লাগানোর জন্যই রাজ্যের বিভিন্ন জায়গায় বনের পরিমাণ অল্প হলেও বেড়েছে৷ বাণিজ্যিকভাবেও গাছ লাগানোর পরিমাণ আগের তুলনায় বেশি হয়েছে৷ চা বাগানগুলিতে ছায়া দেওয়ার জন্য বড় গাছ লাগানো হয়েছে৷ সুন্দরবনেও গাছের সংখ্যা বৃদ্ধি পেয়েছে৷

আরও পড়ুন

আরও পড়ুন

ট্রেন্ডিং