BREAKING NEWS

১১ মাঘ  ১৪২৮  মঙ্গলবার ২৫ জানুয়ারি ২০২২ 

READ IN APP

Advertisement

বিশ্বকাপের ব্যর্থতা নয়, এই ম্যাচটিকেই কোচিং জীবনের সবচেয়ে হতাশাজনক মুহূর্ত বলছেন শাস্ত্রী

Published by: Krishanu Mazumder |    Posted: December 7, 2021 7:23 pm|    Updated: December 7, 2021 7:24 pm

36 all-out in Adelaide was the lowest point for me as India's head coach, said Ravi Shastri| Sangbad Pratidin

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: ২০১৯ সালের বিশ্বকাপ সেমিফাইনালে নিউজিল্যান্ডের কাছে হেরে বিদায় নয়। মরুশহরের টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপে হতশ্রী পারফরম্যান্স করে ছিটকে যাওয়াও নয়। ভারতের প্রাক্তন কোচ রবি শাস্ত্রীর (Ravi Shastri) কোচিং জীবনের সবচেয়ে হতাশাজনক মুহূর্ত কী জানেন?

বিরাট কোহলিদের প্রাক্তন ‘হেডস্যর’ এক সাক্ষাৎকারে সে কথাই জানিয়েছেন। গতবছর অ্যাডিলেডে অনুষ্ঠিত গোলাপি বল টেস্টের দ্বিতীয় ইনিংসে ৩৬ রানে শেষ হয়ে যায় ভারত। সেই ম্যাচটা লজ্জাজনক ভাবে হারতে হয় ভারতকে। চার বছরের কোচিং কেরিয়ারে এটাই সব চেয়ে হতাশাজনক মুহূর্ত বলে সাক্ষাৎকারে উল্লেখ করেছেন তিনি। সেই টেস্টে ভারতীয় দল (India) হেরে গেলেও পরে সিরিজ জেতে ২-১-এ। 

[আরও পড়ুন: India vs New Zealand: দেশ আলাদা হলেও যোগসূত্রে চারজনই ভারতীয়, প্রশংসা কুড়োচ্ছে BCCI-এর পোস্ট করা ছবি]

টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপ থেকে ভারত ছিটকে যাওয়ার পরই জাতীয় দলের হটসিট ছেড়ে চলে যান শাস্ত্রী। তাঁর সময়ে জাতীয় দল টেস্টে এক অন্য উচ্চতায় পৌঁছয়। ৪৩ টি টেস্টের মধ্যে ২৫টিতে জেতে ভারত। তাঁর কোচিংয়ে ৭৬টি ওয়ানডের মধ্যে ৫১টি ওয়ানডে-তে জেতেন কোহলিরা। এর মধ্যে অস্ট্রেলিয়ার মাটিতে গিয়ে দু’ বার টেস্ট সিরিজ জিতেছে। বিশ্ব টেস্ট চ্যাম্পিয়নশিপের ফাইনালে পৌঁছেও অবশ্য খেতাব জেতা হয়নি ভারতের পক্ষে। শাস্ত্রী অবশ্য অ্যাডিলেড টেস্টের দ্বিতীয় ইনিংসে ৩৬ রানে গুটিয়ে যাওয়াকেই তাঁর কেরিয়ারের সব চেয়ে হতশ্রী পারফরম্যান্স বলেছেন।

একটি সংবাদমাধ্যমকে দেওয়া সাক্ষাৎকারে শাস্ত্রী বলেছেন, ”কোচ সবসময়ে ফায়ারিং লাইনেই থাকে। যে কোনও সময়েই চাকরি থেকে বরখাস্ত হতে পারে কোচ। প্রথম দিন থেকেই তাঁকে তৈরি থাকতে হয়। আমি জানি পালিয়ে যাওয়ার কোনও পথ নেই। আমার কোচিং কেরিয়ারে ৩৬ রানে অল আউট হয়ে যাওয়াই সব চেয়ে হতাশাজনক অধ্যায়। ”

তিনি আরও বলেন, ”আমাদের হাতে ৯ উইকেট ছিল। দ্বিতীয় ইনিংসে আমরা ৩৬ রানে গুটিয়ে যাই। এর ধাক্কায় আমরা ভেঙে পড়ি। এটা কীভাবে ঘটতে পারে, সেটাই ভেবে উঠতে পারছিলাম না।”

অ্যাডিলেড টেস্টের প্রথম ইনিংসে একসময়ে ৫৩ রানে এগিয়েচিল ভারত। কিন্তু ভারতের দ্বিতীয় ইনিংসে দুই অজি পেসার জস হ্যাজলউড এবং প্যাট কামিন্স মৃত্যু পরোয়ানা নিয়ে হাজির হন। দুই বোলারের আগুনে বোলিংয়ে ভারত শেষ হয়ে যায় ৩৬ রানে।  

[আরও পড়ুন: ISL 2021: আজ ‘অধরা মাধুরী’র আশায় এসসি ইস্টবেঙ্গলের কোচ ম্যানুয়েল দিয়াজ]

 

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে