২৬  শ্রাবণ  ১৪২৯  মঙ্গলবার ১৬ আগস্ট ২০২২ 

READ IN APP

Advertisement

Advertisement

আইপিএলে নয়া চমক! ফুটবলের মতো খেলা চলাকালীনই বদলানো যাবে ক্রিকেটার

Published by: Subhajit Mandal |    Posted: November 4, 2019 4:18 pm|    Updated: November 4, 2019 4:18 pm

A 'Power Player' can be used as a substitute in IPL 2020

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: এবার আইপিএলে যুগান্তকারী পদক্ষেপ করার পথে বিসিসিআই। ঠিক ফুটবলের মতোই ম্যাচ চলাকালীনই বদলে ফেলা যাবে ক্রিকেটার। পরিবর্ত হিসেবে যিনি মাঠে আসবেন তাঁকে বলা হবে ‘পাওয়ার প্লেয়ার’। ইতিমধ্যেই এই প্রস্তাব নিয়ে আলোচনা হয়েছে বিসিসিআইয়ের অন্দরে। প্রাথমিকভাবে প্রস্তাবে স্বীকৃতিও দিয়েছে বোর্ড। এবার আইপিএলের গভর্নিং কাউন্সিলের বৈঠকে এ নিয়ে আলোচনা হবে। বিসিসিআইয়ের ধারণা, এই নতুন নিয়ম চালু হলে আমূল বদলে যাবে টি-টোয়েন্টি ক্রিকেট। আরও জনপ্রিয় হবে আইপিএল।


কিন্তু, কী এই পাওয়ার প্লেয়ার? বিসিসিআইয়ের এক আধিকারিক বলছেন, ম্যাচ চলাকালীন যে কোনও সময় প্রথম একাদশের ক্রিকেটারদের রিজার্ভ বেঞ্চের ক্রিকেটারদের দিয়ে বদলে ফেলা যাবে। কোনও দলকেই নির্দিষ্ট প্রথম একাদশ ঘোষণা করতে হবে না। প্রথম ১৫ জন ক্রিকেটারের নাম ঘোষণা করলেই হবে। যখন প্রয়োজন পড়বে, ম্যাচের পরিস্থিতি অনুযায়ী যে কোনও ক্রিকেটারকে নামিয়ে দেওয়া যাবে। ওভার শেষে বা উইকেট পড়লেই বদলানো যাবে ক্রিকেটার। উল্লেখ্য, ২০০৫ সালের জুলাই মাসে আইসিসি ‘সুপার সাব’ নিয়ম চালু করেছিল। সেই নিয়ম অনুযায়ী, যে কোনও একজন ক্রিকেটারকে ‘সুপার সাব’ ক্রিকেটার দিয়ে বদলে দেওয়া যেত। অর্থাৎ, কোনও টিম প্রথমে ব্যাট করলে একজন অতিরিক্ত ব্যাটসম্যান খেলাতে পারত। বল করার সময়, ওই ব্যাটসম্যানটিকে অতিরিক্ত বোলার দিয়ে বদলে দেওয়া যেত। তেমন ভাবেই, আগে বল করলে একজন অতিরিক্ত বোলার খেলানো যেত, এবং ব্যাটসম্যানকে ব্যবহার করা যেত সুপার সাব হিসেবে। পরে আইসিসি সেই নিয়ম বাতিল করে।
অনেকটা সুপার সাবের ধাঁচেই, আইপিএলে চালু হতে পারে ‘পাওয়ার প্লেয়ার’।

[আরও পড়ুন: পন্থের ভুলেই হারল ভারত! ধোনির ‘উত্তরসূরি’কে তুলোধোনা নেটিজেনদের]

পার্থক্য হল, সুপার সাবের ক্ষেত্রে আগে থেকে ‘সুপার সাবের’ নাম ঘোষণা করতে হত, এবং তাঁকেই নামানো যেত। পাওয়ার প্লেয়ারের ক্ষেত্রে কোনও নির্দিষ্ট একজনের নাম ঘোষণা করতে হবে না। এবং প্রয়োজনমতো প্রথম পনেরোজনের মধ্যে থাকা যে কোনও একজন ক্রিকেটারকে নামানো যাবে।

[আরও পড়ুন: ক্যারিবিয়ানদের হারিয়ে সিরিজে সমতায় ফিরল ভারত, এখনও চর্চায় হরমনপ্রীতের অবিশ্বাস্য ক্যাচ]


ধরা যাক, শেষ ওভারে ২০ রান দরকার। কোনও কারণে কেকেআর রাসেলকে প্রথম থেকে খেলায়নি। সেক্ষেত্রে শুধুমাত্র শেষ ওভারের জন্য রাসেলকে নামিয়ে দেওয়া যাবে। আবার ধরা যাক, মুম্বইয়ের বিরুদ্ধে কোনও দলের এক ওভারে ৬ রান দরকার। মুম্বইয়ের হয়ে বুমরাহ প্রথম একাদশে নেই। সেসময় মুম্বই চাইলেই এক ওভারের জন্য বুমরাহকে পাওয়ার প্লেয়ার হিসেবে ব্যবহার করতে পারবে। এই নিয়ম চালু হবে কিনা তা এখনও চূড়ান্ত নয়। তবে, প্রাথমিকভাবে এই প্রস্তাবে সম্মতি মিলেছে।

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে