ad
ad

‘আশা করি পরের বার বাংলার ক্রিকেটারদেরও নেবেন’, বিদায়বেলায় কেকেআরকে কটাক্ষ দিন্দার

কেকেআর ছিটকে যাওয়ার পরে ফেসবুকে পোস্ট করেন দিন্দা।

Ashoke Dinda posted a message after KKR lost to Lucknow Super Giants | Sangbad Pratidin
Published by: Krishanu Mazumder
  • Posted:May 19, 2022 4:13 pm
  • Updated:May 11, 2023 4:51 pm

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: দিন আসে, দিন যায়। কেকেআর (Kolkata Knight Riders) একই থেকে যায়। বাংলার কেউ সুযোগ পায় না কলকাতার দলে। ঘরের দল অথচ ব্রাত্যই থেকে যায় এ বঙ্গের ক্রিকেটাররা। প্রতিবারই সমালোচনা হয়, নিন্দুকরা নখ-দাঁত বের করেন। কিন্তু ছবিটা আর বদলায় না।

এবছরের দলেও নেই বাংলার কেউ। গতকাল লখনউ সুপার জায়ান্টাসের (LSG) কাছে হেরে গিয়ে টুর্নামেন্ট থেকে ছিটকে গিয়েছে কলকাতা নাইট রাইডার্স। পেন্ডুলামের মতো ম্যাচ ঘুরল। শেষ ওভারে রীতমতো নাটকীয় পরিস্থিতি তৈরি হয়।  রিঙ্কু সিং প্রায় ম্যাচ বের করে ফেলেছিলেন। কিন্তু এভিন লিউয়িস এক হাতে তাঁর ক্যাচ ধরেন। পরের বলেই স্টোয়নিস বোল্ড করেন উমেশ যাদবকে। 

কেকেআর ছিটকে যেতেই আর স্থির থাকতে পারলেন না বাংলার প্রাক্তন ক্রিকেটার অশোক দিন্দা (Ashoke Dinda)। প্রথমে তিনি ফেসবুকে লিখেছিলেন, ”গুড বাই কেকেআর ২০২২।” তার কিছুক্ষণ পরেই দিন্দা আগের পোস্টে সংযোজন করে লেখেন, ”গুডবাই কেকেআর ২০২২। পরের মরশুমের  জন্য শুভেচ্ছা রইল। আশা করছি বাংলার কয়েক জন ক্রিকেটারকে পরের বার দেখতে পাব।”

[আরও পড়ুন: ঋদ্ধির মান ভাঙাতে আসরে সিএবি, ফোন করলেন বাংলার কোচ অরুণ লালও]

পরের বছর কী হবে কেউ জানেন না। বাংলার ক্রিকেটাররা ব্রাত্যই থেকে যাবেন নাকি এবঙ্গের ক্রিকেটারদের নেওয়া হবে, তার উত্তর পাওয়া যাবে পরের বছর। কিন্তু দিন্দার মতোই ক্ষোভ তো সবারই।

আইপিএলের গোড়ার দিকে কেকেআর দলে ছিলেন বাংলার অনেকে। দেবব্রত দাস, ঋদ্ধিমান সাহা, লক্ষ্মীরতন শুক্লা, রণদেব বসু-সহ আরও অনেকে ছিলেন। কিন্তু যত সময় যায়, বাংলার ক্রিকেটারের সংখ্যা কমতে কমতে এখন শূন্য কলকাতা নাইট রাইডার্সে। মহম্মদ শামি, ঋদ্ধিমান সাহার মতো ক্রিকেটাররা ভিন রাজ্যের ফ্র্যাঞ্চাইজির হয়ে দাপটের সঙ্গে খেলে যাচ্ছেন। অথচ কলকাতা নাইট রাইডার্স শিবিরেই জায়গা হয় না বাংলার কোনও ক্রিকেটারের। 

[আরও পড়ুন: কেকেআরের হয়ে ভাল পারফরম্যান্সের পুরস্কার, ভারতীয় দলের ফিজিও হচ্ছেন কমলেশ জৈন]

Sangbad Pratidin News App

খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ