BREAKING NEWS

৯ আশ্বিন  ১৪২৭  রবিবার ২৭ সেপ্টেম্বর ২০২০ 

Advertisement

দলের ডিরেক্টর পা ছড়িয়ে বসবেন, বিমানের বিজনেস ক্লাসের সিট ছেড়ে দিলেন ‘মহানুভব’ ধোনি

Published by: Abhisek Rakshit |    Posted: August 22, 2020 4:45 pm|    Updated: August 22, 2020 4:45 pm

An Images

‌সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক:‌ মহেন্দ্র সিং ধোনি। গোটা দেশে এখনও আলোচনার কেন্দ্রবিন্দুতে। তাঁর হঠাৎ অবসর নেওয়াটা এখনও অনেকেই মন থেকে মেনে নিতে পারেননি। আর মানবেনই বা কী করে!‌ মাঠের ভিতর যতটা শান্ত, মাঠের বাইরে ততটাই দয়ালু মন ধোনির। ফের একবার প্রমাণও করলেন সেকথা। দলের ডিরেক্টরের জন্য নিজের ‘‌বিজনেস’‌ ক্লাসে বসার আসনটি ছেড়ে দিলেন মাহি। বসলেন গিয়ে ‘‌ইকোনমি’‌ ক্লাসে। টুইট করে চেন্নাই সুপার কিংসের (Chennai Super Kings) ডিরেক্টর কে জর্জ জন শুক্রবার নিজেই জানালেন সেকথা।

[আরও পড়ুন: এককালে ধোনি-শচীনদের ব্যাট সারিয়ে দিতেন, বর্তমানে চরম অর্থাভাবে ভুগছেন সেই আশরাফ]

আসলে শুক্রবারই দুবাই উড়ে গিয়েছে চেন্নাই দল। বিমানে জর্জের বসার সিটটি ছিল ইকোনমি ক্লাসের। এদিকে, ধোনির বিজনেস ক্লাসের। এদিকে, জর্জের সিটের সামনে পা রাখার জায়গা অনেকটাই কম ছিল। ব্যাপারটি লক্ষ্য করতেই ধোনি তাঁকে নিজের সিটটি ছেড়ে দেন। নিজে গিয়ে বসেন ইকোনমি ক্লাসের একটি সিটে। নিজের টুইটার হ্যান্ডেলে জর্জ একটি ভিডিও পোস্ট করেছেন, যেখানে দেখা যাচ্ছে, ইকোনমি ক্লাসে বসেই সহ-অধিনায়ক রায়না (Suresh Raina) এবং অন্যান্যদের সঙ্গে কথা বলছেন ধোনি।

 

[আরও পড়ুন: ফেব্রুয়ারিতেই ভারত সফরে আসছে ইংল্যান্ড, IPL 14-র প্রস্তুতিও শুরু করে দিলেন সৌরভ]

প্রসঙ্গত, শুক্রবার রাত সাড়ে ন’টায় দুবাইয়ে নামা মহেন্দ্র সিং ধোনিরা উঠছেন তাজে। আমিরশাহীর এয়ারপোর্টে নেমে একদফা করোনা পরীক্ষা হয়েছে। নিয়ামবলী মেনে আপাতত ছ’দিনের কোয়ারেন্টাইনে থাকতে হবে প্রত্যেককে। সেই ছ’দিনের মধ্যে তিন বার করোনা পরীক্ষা তো আছেই। এছাড়া এবার খেলোয়াড়দের রাখা হবে বিশেষ 3D সুরক্ষা বলয়ে। এদিকে, মহেন্দ্র সিং ধোনি (Mahendra Singh Dhoni) ব্যাট হাতে কিন্তু স্বমহিমায় রয়েছেন। অবসর নিয়ে বিন্দুমাত্র চাপ চোখে পড়ার লক্ষণ নেই। নাহলে আইপিএলের (IPL) জন্য আমিরশাহী উড়ে যাওয়ার আগে চেন্নাইয়ের অনুশীলন শিবিরে চোখধাঁধানো ছক্কা হাঁকিয়ে যেতে পারতেন না ধোনি। এর আগে বৃহস্পতিবার সন্ধেয় প্র্যাকটিস সেশনে এমন কিছু গগনচুম্বী ছয় মারলেন তিনি যা ছিল দেখার মতো। সোশ্যাল মিডিয়ায় ভাইরাল হয় সেই ভিডিও।

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement