BREAKING NEWS

১৩  আষাঢ়  ১৪২৯  মঙ্গলবার ২৮ জুন ২০২২ 

READ IN APP

Advertisement

Advertisement

জাতীয় দলে কাশ্মীরের উমরান মালিক, ‘পুরো দেশের সমর্থন পেয়েছে’, আবেগে ভেসে বললেন বাবা

Published by: Biswadip Dey |    Posted: May 23, 2022 6:51 pm|    Updated: May 23, 2022 6:53 pm

Umran Malik father says son got support from entire country, after getting national call up | Sangbad Pratidin

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: আইপিএলে ধারাবাহিক ভাবে ভাল পারফরম্যান্স করে ক্রিকেট দুনিয়ার নজর কেড়ে নিয়েছেন তিনি। ক্রিকেট বিশারদ থেকে শুরু করে আমজনতা, সকলেই তাঁকে জাতীয় দলের জার্সিতে দেখতে চেয়েছিলেন। সকলের মনবাঞ্ছা পূরণ করে রবিবার ভারতীয় দলে ডাক পেয়েছেন কাশ্মীরের উমরান মালিক (Umran Malik)। ছেলের সাফল্যে স্বভাবতই খুব খুশি উমরানের বাবা আবদুল রশিদ ।

জম্মু-কাশ্মীরের দ্বিতীয় ক্রিকেটার হিসাবে জাতীয় দলে (Indian Cricket Team) সুযোগ পেয়েছেন উমরান। সংবাদ সংস্থা পিটিআইকে সাক্ষাৎকার দিতে গিয়ে রশিদ জানিয়েছেন, “এলাকার সব মানুষ আমাকে অভিনন্দন জানাচ্ছে। বাড়িতেও সকলে উদযাপন করছে। আমিও সেখানে যোগ দিতে যাচ্ছি।” পেশায় ফল বিক্রেতা রশিদ (Umran Malik Father) গর্বের সঙ্গে বললেন, “দেশের জার্সি গায়ে খেলার চেয়ে বড় আর কী হতে পারে? আমাদের সকলকে গর্বিত করেছে উমরান। আইপিএলে ওর পারফরম্যান্স দেখে গোটা দেশের মানুষ উমরানকে সমর্থন করেছিল। আমাদের পরিবার সকলের কাছে কৃতজ্ঞ।” তিনি আরও যোগ করেন, “পুরো দেশ কে সাপোর্ট মিল মেরে উমরান কো”।

[আরও পড়ুন: মাঠের মধ্যেই বুকে ব্যথা, হাসপাতালে ভরতি শ্রীলঙ্কার ক্রিকেটার]

২০২১ আইপিএলেই বিশেষজ্ঞদের নজর কাড়েন উমরান। সেই কারণেই ৪ কোটি টাকা দিয়ে তাঁকে ধরে রাখে সানরাইজার্স হায়দরাবাদ (Sunrisers Hyderabad)। ২০২২ মরশুমে এসে ধারাবাহিক ভাবে দ্রুত গতিতে বল করতে থাকেন উমরান। ১৫৭ কিমি প্রতি ঘণ্টা গতিতে বল করেন দিল্লি ক্যাপিটালসের বিরুদ্ধে। চলতি আইপিএলের দ্রুততম বল এই ডেলিভারিই । ১৪ ম্যাচে ২২টি উইকেট পেয়েছেন তিনি।

আইপিএল গ্রুপ পর্বের শেষ ম্যাচেও বজায় থাকল উমরানের দাপট। পাঞ্জাব কিংসের বিরুদ্ধে খেলতে নেমে যথারীতি আগুন ঝরালেন তিনি। তাঁর বোলিংয়ে পাঁজরে চোট পেলেন বিপক্ষ অধিনায়ক মায়াঙ্ক আগারওয়াল। সপ্তম ওভারে ব্যাট করতে নেমে প্রথম বলেই চোট পান মায়াঙ্ক। ১৪৩ কিমি বেগে বল আছড়ে পড়ে মায়াঙ্কের পাঁজরে। রান নিতে দৌড়লেও স্পষ্ট বোঝা যায় তিনি ব্যথায় কাতরাচ্ছেন। বেশিক্ষণ ব্যাট করতে পারেননি তিনি। ম্যাচের পরে মায়াঙ্ক জানান, এক্স-রে করতে হবে। জাতীয় দলে উমরানের সুযোগ পাওয়ার পরেই উদযাপন করেছেন তাঁর বাড়ি সংলগ্ন এলাকার মানুষ। নাচ-গান, খাওয়া-দাওয়া করে এই বিশেষ ঘটনাকে স্মরণীয় করে রেখেছেন তাঁরা।

[আরও পড়ুন: আইপিএল প্লে অফের বাদ্যি বেজেছে, টিকিটের হাহাকারের মাঝে চর্চায় ইডেনের উইকেট

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে