৩ কার্তিক  ১৪২৬  সোমবার ২১ অক্টোবর ২০১৯ 

Menu Logo পুজো ২০১৯ মহানগর রাজ্য দেশ ওপার বাংলা বিদেশ খেলা বিনোদন লাইফস্টাইল এছাড়াও বাঁকা কথা ফটো গ্যালারি ভিডিও গ্যালারি ই-পেপার

দেবাশিস সেন, ভাইজ্যাগ: কখনও দেশের জার্সি গায়ে দলকে অনূর্ধ্ব ১৯ বিশ্বকাপ এনে দিয়েছেন, তো কখনও রেকর্ড গড়ে চমকে দিয়েছেন ক্রিকেট বিশ্বকে। এত কম বয়সেও শচীন তেণ্ডুলকরের সঙ্গে তুলনা টানা হয় তাঁর। এতক্ষণে নিশ্চয়ই বুঝে গিয়েছেন কথা হচ্ছে বিরাট কোহলির। এহেন ব্যাটসম্যানের ভক্তের সংখ্যাও নেহাত কম নয়। কিন্তু ওড়িশার এই ভক্ত বাকি সকলকে ছাপিয়ে গিয়েছেন। সারা শরীর মুড়ে ফেলেছেন প্রিয় ক্রিকেটাররের ট্যাটু দিয়ে। ‘জাবড়া ফ্যানে’র কাণ্ডকারখানা দেখে অবাক ভারত অধিনায়ক। ভক্তের সঙ্গে দেখা করে তাঁকে জড়িয়ে ধরলেন।

[আরও পড়ুন: প্রথম টেস্টে দলে ফিরছেন ‘বিশ্বসেরা’ ঋদ্ধি, জল্পনার অবসান ঘটিয়ে ঘোষণা কোহলির]

হাতে যেন চাঁদ পেলেন ওড়িশার মাসিয়াখালি গ্রামের পিন্টু বেহরা। কোহলির সঙ্গে সাক্ষাতের দীর্ঘদিনের স্বপ্নপূরণ হল তাঁর। বাইশ গজে বিরাট নামলেই টিভির সামনে বসে পড়েন পিন্টু। ভারত অধিনায়কের ব্যাটিং স্টাইল, নেতৃত্ব, সবই দারুণ মন কাড়ে তাঁর। আর তিনি যে কোহলির কী বিরাট ফ্যান, তার প্রমাণ পিন্টুর শরীর। সেই ২০১৬ সাল থেকে একের পর এক কোহলির ট্যাটু গায়ে আঁকাচ্ছেন তিনি। সেসব ট্যাটুর মধ্যে যেমন ডান হাতে কোহলিকে ব্যাট করতে দেখা যাচ্ছে, তেমন পিঠে বিরাট করে লেখা কোহলির জার্সি নম্বর ১৮। এখানেই শেষ হয়, কবে কোহলি অর্জুন সম্মানে ভূষিত হয়েছেন, কবে রাজীব গান্ধী খেলরত্ন পুরস্কার পেয়েছেন, সেসবই শরীরে খোদাই করে রেখেছেন এই ‘বিরাট’ ফ্যান। ট্যাটুর মধ্যে দিয়ে আবার সম্মান জানিয়েছেন মাস্টার ব্লাস্টার শচীনকেও।

Virat_fan

[আরও পড়ুন: এবছর আইপিএলের নিলাম হবে কলকাতায়, দিনক্ষণ ঘোষণা করল বিসিসিআই]

বুধবার এখানে দক্ষিণ আফ্রিকার বিরুদ্ধে প্রথম টেস্টে মুখোমুখি হবে টিম ইন্ডিয়া। তার আগে এদিন ভারতীয় দলের প্র্যাকটিস দেখতে হাজির হয়েছিলেন পিন্টু। আর সেখানেই দেখা পেয়ে গেলেন স্বপ্নের নায়কের। ভক্তের কীর্তি দেখে বিস্মিত এবং একই সঙ্গে আপ্লুত বিরাট। পিন্টুকে জড়িয়ে ধরেন তিনি। ভক্তের ভালবাসা এবং শুভেচ্ছা নিয়েই মাঠ ছাড়লেন অধিনায়ক। স্বপ্নের তারকার ছোঁয়া পেয়ে যেন জীবন সার্থক হল পিন্টুরও।

আরও পড়ুন

আরও পড়ুন

ট্রেন্ডিং