০৯  আষাঢ়  ১৪২৯  রবিবার ২৬ জুন ২০২২ 

READ IN APP

Advertisement

Advertisement

কেন গিয়েছিলেন মুম্বইয়ের নাইট ক্লাবে? গ্রেপ্তারির পর সাফাই দিলেন রায়না

Published by: Subhajit Mandal |    Posted: December 22, 2020 6:06 pm|    Updated: December 22, 2020 6:06 pm

Wasn't aware of timing, protocol, says Suresh Raina on Mumbai nightclub raid |Sangbad Pratidin

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: মুম্বইয়ের নাইট ক্লাবে গ্রেপ্তারি নিয়ে মুখ খুললেন ক্রিকেটার সুরেশ রায়না (Suresh Raina)। তাঁর টিমের তরফ থেকে এক বিবৃতিতে জানানো হল, রায়না যে ভুল করেছেন, সেটা নেহাতই অনিচ্ছাকৃত। এবং সেজন্য তিনি ক্ষমাপ্রার্থী। টিম ইন্ডিয়ার (Indian Cricket team) প্রাক্তন তারকার গ্রেপ্তার হওয়ার খবর প্রকাশ্যে আসার কিছুক্ষণ পরই পুরো ঘটনার বর্ণনা দিয়ে তাঁর তরফে একটি বিবৃতি দেওয়া হয়।

রায়নার টিমের দাবি, মুম্বইয়ে ক্রিকেটার গিয়েছিলেন একটি শুটিংয়ের জন্য। গতকাল সেই শুটিং চলে গভীর রাত পর্যন্ত। তারপর এক বন্ধুর অনুরোধে তিনি ওই হোটেলে যান নৈশভোজে। যদিও, মহারাষ্ট্রে নাইট কারফিউ সম্পর্কে কোনও ধারণা ছিল না তাঁর। আর সেকারণেই দিল্লি উড়ে আসার আগে সেখানে গিয়েছিলেন খাবার খেতে। নিজের অজান্তে করা ভুলের জন্য তিনি ক্ষমাপ্রার্থী। সুরেশ রায়না শুরু থেকেই প্রশাসনের নির্দেশ এবং নিয়মাবলীকে শিরোধার্য মনে করেন। এবং আগামী দিনেও সেটাই করবেন।

[আরও পড়ুন: মুম্বইয়ের নাইট ক্লাবে পুলিশি হানা, গ্রেপ্তার সুরেশ রায়না ও গুরু রনধাওয়া]

প্রসঙ্গত, কোভিড বিধি না মানায় মুম্বইয়ের ‘ড্রাগনফ্লাই ক্লাব’ থেকে গতকাল গভীর রাতে গ্রেপ্তার করা হয় রায়নাকে। রায়না ছাড়াও গুরু রনধাওয়া (Guru Randhawa), সুজান খান-সহ মোট ৩৪ জন গ্রেপ্তার হন। এক সর্বভারতীয় সংবাদমাধ্যমের দাবি, পার্টিতে ছিলেন জনপ্রিয় গায়ক বাদশাও। তবে পুলিশি হানার খবর পেতেই তিনি দ্রুত পিছনের দরজা পালিয়ে যান। সাহার থানার সিনিয়র পুলিশ ইন্সপেক্টর জানিয়েছেন, ভারতীয় দণ্ডবিধির ১৮৮, ২৬৯ ও ৩৪ ধারায় তাঁদের গ্রেপ্তার করা হয়েছিল। অভিযোগ, নাইট কারফিউ উপেক্ষা করে ওই ক্লাবের ভিতরে উদ্দাম পার্টি চলছিল। সেই সময়ই সেখানে হানা দেয় পুলিশ। রাতেই অবশ্য জামিন দিয়ে দেওয়া হয় ওই তারকাদের।

[আরও পড়ুন: ১০ নয়, আগামী বছর আট দলের আইপিএলেই সিলমোহর দিতে চলেছে বোর্ড!]

প্রসঙ্গত, দেশের অন্য রাজ্যগুলির মতো নতুন ধরনের করোনা ভাইরাসের (Corona Virus) আতঙ্কে কাঁপছে মহারাষ্ট্রও। সোমবার থেকেই রাজ্যে জারি হয়েছে নাইট কারফিউ। ২২ ডিসেম্বর থেকে ৫ জানুয়ারি পর্যন্ত চলবে এই কারফিউ৷ রাত ১১টা থেকে ভোর ৫টা পর্যন্ত সময় নির্ধারিত হয়েছে কারফিউয়ের জন্য৷ গতকালই মহারাষ্ট্রের মুখ্যমন্ত্রী উদ্ধব ঠাকরে এই সিদ্ধান্তের কথা জানিয়ে দেন। রায়নার টিমের তরফ থেকে জানানো হয়েছে, মহারাষ্ট্র সরকারের এই সিদ্ধান্তের কথা তিনি জানতেন না। তাই এই ভুল নিতান্তই অনিচ্ছাকৃত। তবে, কারণ যাই হোক, অত রাতে হোটেলে টিম ইন্ডিয়ার প্রাক্তন তারকার উপস্থিতি এবং এবং সেই খবর ঠাওর হয়ে যাওয়াটা যে মোটেই ভাল বার্তা দিচ্ছে না, সেটা বলার অপেক্ষা রাখে না।

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে