BREAKING NEWS

১৪ ফাল্গুন  ১৪২৬  বৃহস্পতিবার ২৭ ফেব্রুয়ারি ২০২০ 

আত্মতুষ্টির ভয়, নেরোকা ম্যাচের আগে অতি সতর্ক মোহনবাগান

Published by: Subhajit Mandal |    Posted: February 14, 2020 1:28 pm|    Updated: February 14, 2020 1:28 pm

An Images

স্টাফ রিপোর্টার: প্র্যাকটিস শেষে ফুটবলাররা কুলডাউন করছেন। একটু দূরে শুভ ঘোষ বল করছেন। র‌্যাকেট হাতে ব‌্যাটসম‌্যানের ভূমিকায় ব্রিটো। কুলডাউন করতে করতেই গোলকিপার দেবজিৎ মজুমদার চিৎকার করে উঠলেন, ‘‘ব্রিটো সিক্স মার।’’ পরের বলটা ব্রিটো মিস করতেই সবাই হেসে কুটিপাটি।নেরোকা ম‌্যাচের চব্বিশ ঘণ্টা আগে বাগান ড্রেসিংরুমের আবহটা ঠিক এরকমই।

MB

বাড়তি কোনও টেনশন নেই। আবার নেরোকাকে প্রথম পর্বে তিন গোলে উড়িয়ে দেওয়া গিয়েছিল বলে আত্মতুষ্টিও নেই। বেইতিয়ারা মজা করছেন। একে অন‌্যের সঙ্গে খুনসঁটি করছেন। বেইতিয়া বলছেন, ‘‘আমাদের টিমের ইউএসপি এটাই। একে অন‌্যের সাফল‌্য উপভোগ করি। সবাই একে অপরের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। আমরা একটা পরিবার। এই প্রভাবটা আমাদের খেলাতেও পড়ছে।’’

[আরও পড়ুন: জয় অধরাই, পাঞ্জাবের কাছে আটকে লিগে দুঃসময় অব্যাহত ইস্টবেঙ্গলের]

বেইতিয়া(Joseba Beitia) একা নন, টিমের প্রত‌্যেকটা ফুটবলারকে জিজ্ঞেস করুন, একই কথা বলবেন। এর জন‌্য সাপোর্ট স্টাফদের যতটা কৃতিত্ব প্রাপ‌্য, ঠিক ততটাই কৃতিত্ব প্রাপ‌্য বাগান কর্তাদেরও। প্র্যাকটিসে তাঁরা আসছেন নিয়মিত। প্লেয়ারদের সঙ্গে আড্ডা দিচ্ছেন। উদ্দীপ্ত করছেন। একইসঙ্গে এটাও বলে দেওয়া হচ্ছে, এখনই যেন কেউ চ‌্যাম্পিয়নশিপের ভাবনা মাথায় না নিয়ে আসে। বাগান কোচও সেটাই বলছেন।দুপুরে ক্লাব তাঁবুতে সাংবাদিক সম্মেলন ছিল। কিবু এসে পরিষ্কার করে বলে দিলেন, ‘‘আমি ভবিষ‌্যৎ নিয়ে ভাবতে চাই না। এখন আমার ল‌ক্ষ‌্য হল নেরোকা ম‌্যাচ। যাবতীয় ফোকাস এখন সেদিকে।’’

MB

যা খবর, তাতে গত ম‌্যাচের টিমে হয়তো বদল আসছে না। ডিফেন্ডার ড‌্যানিয়েল সাইরাসকে (Daneil Cyrus) যে খেলানো হবে না, সেটাই আগেই বোঝা গিয়েছিল। বৃহস্পতিবার কিবু বললেন, ‘‘আমরা কোনও ঝুঁকে নিতে চাই না। সাইরাস এই ম‌্যাচে খেলছে না। আশা করি চার্চিল ম‌্যাচে ওকে পেয়ে যাব।’’ সাইরাস না থাকায় ডিফেন্সে ফ্রান (মোরান্তে আর গঞ্জালেজ) জুটি থাকছে। অ‌্যাওয়ে ম‌্যাচে এই নেরোকাকে তিন গোলে হারিয়েছিল মোহনবাগান। তবে ওই ম‌্যাচের কথা কেউ মনে রাখতে চান না। এটা নতুন ম‌্যাচ।

[আরও পড়ুন: দলের তাঁকে প্রয়োজন নেই, ডিফেন্ডার মার্টিকে জানিয়ে দিলেন ইস্টবেঙ্গলের নয়া কোচ]

তাছাড়া নেরোকা টিমে বেশ কিছু বদল এসেছে। ফিলিপ আদজাকে সই করানো হয়েছে। তিনি গোল-টোলও করছেন। সুভাষ সিং এসেছেন। হাঙ্গেরি থেকে নতুন এক বিদেশি নিয়ে এসেছে নেরোকা। সবচেয়ে বড় কথা মণিপুর ডার্বিতে পাঁচ গোলে ট্রাউকে হারিয়েছে তারা। বাগান কোচ কিবু তাই প্রচণ্ড সতর্ক। বলে গেলেন, ‘‘আগের ম‌্যাচে আমরা ভাল খেলেছিলাম। তবে ওরাও দু’একটা সুযোগ পেয়েছিল। আর এই টিমে বেশ কিছু বদল হয়েছে। ফলে আগে কি হয়েছে, সেটা ভেবে লাভ নেই। নতুন একটা ম‌্যাচ। আবার সব নতুন করে শুরু করতে হবে। এটা ঠিক যে আমরা ভাল খেলছি। তবে আমাদের আরও ভাল খেলার ক্ষমতা রয়েছে।’’

এর বাইরে খবর বলতে একটা। কার্ড সমস‌্যায় ওসমানে দিয়াওরা এই ম‌্যাচে খেলতে পারছেন না। কিবু অবশ‌্য ওসব ভাবতে চান না। বাগান কোচের লক্ষ‌্য এখন একটাই নেরোকাকে হারিয়ে চ‌্যাম্পিয়নে পথে আরও একটা হার্ডল পেরেনো।

An Images
An Images
An Images An Images