×

৫ ফাল্গুন  ১৪২৫  সোমবার ১৮ ফেব্রুয়ারি ২০১৯ 

BREAKING NEWS

Menu Logo মহানগর রাজ্য দেশ ওপার বাংলা বিদেশ খেলা বিনোদন লাইফস্টাইল এছাড়াও বাঁকা কথা ফটো গ্যালারি ভিডিও গ্যালারি ই-পেপার
নিউজলেটার

৫ ফাল্গুন  ১৪২৫  সোমবার ১৮ ফেব্রুয়ারি ২০১৯ 

BREAKING NEWS

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: ৪১ দিনের ব্যবধানে ফের ফুটবল নিয়ে উত্তেজনার পারদ চড়েছে শহরে। চলতি আই লিগের খুব গুরুত্বপূর্ণ পর্বে ফের মুখোমুখি দুই চিরপ্রতিদ্বন্দ্বী। এই ম্যাচ থেকেই কার্যত আই লিগে দুই দলের ভাগ্য নির্ধারিত হয়ে যাবে। ছুটির দিনে তাই যুবভারতী জুড়ে সাজসাজ রব। ডার্বিতে অপ্রীতিকর ঘটনা রুখতে তৎপর পুলিশও। অন্যান্য ডার্বিগুলির মতো রবিবারও যুবভারতীতে থাকছে নিশ্ছিদ্র নিরাপত্তা।

মোহনবাগানের তরফে জানানো হয়েছে, অনেক সমর্থক নাকি ডার্বি দেখতে মাঠে আতসবাজি আনার পরিকল্পনা করেছিলেন। প্রিয় দল জিতলেই মাঠে ফাটানো হবে সেসব বাজি। এমন খবর পাওয়া মাত্রই বিধাননগর কমিশনারেটকে বিষয়টি জানায় আয়োজক ক্লাব। কোনও দর্শক যাতে আতসবাজি নিয়ে স্টেডিয়ামের ভিতর প্রবেশ না করতে পারে, তার জন্য প্রত্যেকটি গেটেই হবে চেকিং। পাশাপাশি সিসিটিভির মাধ্যমেও চালানো হবে নজরদারি। সবুজ-মেরুনের তরফে প্রত্যেক সমর্থককে অনুরোধ জানানো হয়েছে, ম্যাচ দেখার নিয়ম যাতে কেউ না ভাঙেন। কারণ তাঁরা পাশে থাকলেই সুষ্ঠভাবে ডার্বির আয়োজন করা সম্ভব।

[ডার্বির আগে রেডি টু গো ইস্টবেঙ্গল, অনুশীলনে ফুরফুরে লাল-হলুদ শিবির]

এদিকে ডার্বিতে চমক দিতে প্রস্তুত ইস্টবেঙ্গল আলট্রাস। ৭৪০০ স্কোয়ার ফুটের এক দৈত্যাকার টিফো বানিয়েছে তারা। যা ভারতীয় ফুটবলে রেকর্ড। যেখানে ফুটে উঠবে এক ইস্টবেঙ্গল সমর্থকের জীবন চক্রের গল্প। ইতিমধ্যেই গ্যালারিতে  নিত্য-নতুন কাজ করে ময়দানের নজর কেড়েছে আলট্রাস। আবার চরমপন্থী কিছু কাজ করে ফ্যান ক্লাবের মুখও পুড়িয়েছেন অনেক সদস্য। গত ডার্বিতেই আলট্রাসের টিফোয় সরাসরি না বলা হলেও ইস্টবেঙ্গল কর্তাদের উদ্দেশে ছিল অশালীন ইঙ্গিত। এবার তাই এই ধরনের টিফো নিয়ে মাঠে ঢোকা যাবে কি না, সে নিয়ে সন্দেহ রয়েছে। রবিবার শান্তিপূর্ণ ডার্বির জন্য বিশেষ প্রস্তুতি নিয়েছে বিধাননগর পুলিশ। দর্শকদের জন্য চলবে অতিরিক্ত সরকারি বাস। দুপুর আড়াইটেতে খুলে যাবে গেট। অন্যান্যবারের মতো এবারও হেলমেট, ছাতা এবং ব্যাগ নিয়ে স্টেডিয়ামে প্রবেশ করার অনুমতি নেই। যাঁরা এখনও পর্যন্ত বড় ম্যাচের টিকিট কেটে উঠতে পারেননি তাঁরা রবিবারও টিকিট কেটে নিতে পারেন আমুল বিন্ডিংয়ের কাছে জে সি ব্লক চিল্ড্রেন্স পার্ক থেকে। সকাল ১১ টা থেকে বিকেল পাঁচটা পর্যন্ত মিলবে টিকিট। তবে হাইভোল্টেজ ম্যাচ উপভোগ করতে চাইলে আগেভাগেই কাউন্টারে পৌঁছে যান। টিকিট শেষ হয়ে গেলে আর সুযোগ পাবেন না।

[মোহনবাগানকে নিয়ে নতুন গান, বাংলা ব্যান্ডের সঙ্গে গলা মেলালেন নচিকেতা]

আরও পড়ুন

আরও পড়ুন

ট্রেন্ডিং