BREAKING NEWS

১২ জ্যৈষ্ঠ  ১৪২৯  শুক্রবার ২৭ মে ২০২২ 

READ IN APP

Advertisement

Advertisement

পাক-জেহাদির মুক্তির দাবি, আমেরিকায় ইহুদি উপসনালয়ে বহু মানুষকে পণবন্দি করল বন্দুকবাজ

Published by: Paramita Paul |    Posted: January 16, 2022 10:36 am|    Updated: January 16, 2022 1:32 pm

Armed Man hostages many at US Synagogue sought Pak terrorists release | Sangbad Pratidin

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: ‘পাকিস্তানি জেহাদির মুক্তি চাই’। এই দাবিতে আমেরিকার (US hostages) ইহুদি প্রার্থনাস্থলে হামলা চালাল বন্দুকবাজ। একাধিক ব্যক্তিকে পণবন্দি করে রাখে সে। দীর্ঘ আট ঘণ্টা কথা চালাচালি, দর কষাকষির পর বন্দীদের মুক্তি দেয় বলে খবর। তবে হামলাকারীর কোনও হদিশ এখনও পায়নি মার্কিন পুলিশ। মনে করা হচ্ছে, পুলিশের চোখে ধুলো দিয়ে ঘটনাস্থল থেকে পিঠটান দিয়েছে সে।

স্থানীয় সময় শনিবার সকালে সাড়ে ১০টা নাগাদ টেক্সাসের একটি ইহুদি উপাসনালয় বা সিনাগগে প্রার্থনা করতে জড়ো হয়েছিলেন কয়েকজন। তাঁদের ধর্মীয় অনুষ্ঠানের লাইভ স্ট্রিম করা হচ্ছিল। সেই সময় আচমকাই এক বন্দুকবাজ উপাসনালয়ে হামলা চালায়। ইহুদি পুরোহিত-সহ ৫ জনকে পণবন্দি করে সে। খবর ছড়িয়ে পড়তেই তড়িঘড়ি ব্যবস্থা নেয় মার্কিন প্রশাসন। তৈরি হয় আন্তর্জাতিক চাপও। ইজরায়েলের প্রধানমন্ত্রী নাফতালি বেনেট জানান, ঘটনার উপর তিনি নজর রাখছেন। এমনকী, মার্কিন প্রেসিডেন্টও নড়েচড়ে বসেন।

[আরও পড়ুন: Tsunami: জেগে উঠেছে সমুদ্রগর্ভের ‘ঘুমন্ত দানব’, সুনামির আশঙ্কায় কাঁটা আমেরিকা-রাশিয়া-সহ একাধিক দেশ]

অজ্ঞাত পরিচয় বন্দুকবাজের দাবি ছিল, আমেরিকার জেলে বন্দি পাকিস্তানি জেহাদি আফিয়া সিদ্দিকির মুক্তি। উল্লেখ্য, আফিয়া একজন পাকিস্তানি নিউরোসায়েন্টিস্ট। অভিযোগ, আফিয়া আফগানিস্তানে মার্কিন সামরিক কর্তাদের খুনের চেষ্টা করেছেন। ২০১০ সালে আফিয়াকে গ্রেপ্তার করা হয়। বর্তমানে তিনি টেক্সাসের ফেডারেল কারাগারে আছে। নিজেকে আফিয়ার ভাই পরিচয় দিয়ে তার সাথে কথা বলার দাবিও করেছিল হামলাকারী। পরে জানা যায়, ভুয়ো পরিচয় দিয়েছে সে।

এদিকে খবর পাওয়া মাত্র ঘটনাস্থলে পৌঁছে যায় সোয়াট বাহিনী। হামলাকারীর কাছে বন্দুক এবং বোমা রয়েছে বলে হুঁশিয়ারি দেওয়া হয়। এর পরই তার সঙ্গে দর কষাকষি শুরু হয়। স্থানীয় সময় শনিবার বিকেল ৫টা নাগাদ প্রথমে এক বন্দীকে রেহাই দেয় সে। ৮ ঘণ্টা পর সকলকেই মুক্তি দেয়। কিন্তু হামলাকারীর হদিশ মেলেনি এখনও। এদিকে পণবন্দিরা সকলে নিরাপদে মুক্তি পাওয়ায় হাঁফ ছেড়ে বেঁচেছেন প্রশাসনিক কর্তারা। টুইটারে টেক্সাসের গর্ভনর গ্রেগ অ্যাবেট বলেন, “প্রার্থনা শুনেছেন ঈশ্বর। সকল পণবন্দি সুস্থ এবং জীবিত আছেন।”

 

 

[আরও পড়ুন: ‘ব্লাউজ পরে আসুন’, অন্তর্বাস পরে আসায় বিমানে উঠতে পারলেন না প্রাক্তন মিস ইউনিভার্স]

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে