BREAKING NEWS

২৭ আষাঢ়  ১৪২৭  রবিবার ১২ জুলাই ২০২০ 

Advertisement

তেহরানের হাসপাতালে ভয়াবহ বিস্ফোরণ, মৃত কমপক্ষে ১৯

Published by: Sucheta Chakrabarty |    Posted: July 1, 2020 11:19 am|    Updated: July 1, 2020 11:38 am

An Images

ছবি: প্রতীকী

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: মঙ্গলবার রাতে ভয়াবহ বিস্ফোরণে কেঁপে উঠল তেহরানের (Tehran) একটি হাসপাতাল। দুর্ঘটনার জেরে মৃত ১৯। তবে মৃতের সংখ্যা বাড়তে পারে বলেই মত হাসপাতাল কর্তৃপক্ষের।

মঙ্গলবার রাতে বিস্ফোরণে কেঁপে উঠল উত্তর তেহরানের একটি হাসপাতাল। বিস্ফোরণের জেরে প্রথমে ১৩ জনের মৃত্যুর খবর পাওয়া যায়। পরে আরও ৬ জনকে আশঙ্কাজনক অবস্থায় হাসপাতালে ভরতি করা হয় বলে জানায় সংবাদ সংস্থা এপিএফ (APF)। ডেপুটি স্বাস্থ্যমন্ত্রী ইরাজ হরিরচি (Iraj Harirchi) মঙ্গলবার রাতে জানিয়েছিলেন যে, দশজন মহিলা এবং তিনজন পুরুষ এই বিস্ফোরণে প্রাণ হারিয়েছেন। ঘটনার তদন্তে নেমে জানা যায়, গ্যাস লিক করেই এই বিস্ফোরণ ঘটে। তবে তেহরানের একজন ডেপুটি হেড পুলিশ স্থানীয় সংবাদসংস্থাকে জানান যে, হাসপাতালের অক্সিজেন ট্যাঙ্ক ফেটে এই ভয়াবহ বিস্ফোরণ ঘটেছে। ঘটনার পরই আতঙ্ক ছড়ায় স্থানীয়দের মধ্যে। সোশ্যাল মিডিয়ায় পোস্ট করা ছবিতে দেখা যায়, কালো ধোঁয়ায় ঢেকে গিয়েছে হাসপাতাল চত্বর। বিবিসি সূত্রে খবর মেলে যে, বিস্ফোরণের জেরে বেশিরভাগ মহিলারাই প্রাণ হারিয়েছেন।

[আরও পড়ুন:ভারতের পর আমেরিকার কাছে ধাক্কা চিনের, বিনিয়োগকারীর তালিকা থেকে বাদ দুই চিনা সংস্থা]

দুর্ঘটনার পর হাসপাতালের রোগীদের বের করে এনে অন্য হাসপাতালে স্থানান্তরিত করা হয়। দমকল বাহিনীর তৎপরতায় কয়েকজন ছাড়া বেশিরভাগ রোগীদের হাসপাতাল থেকে বের করে আনতে সক্ষম হয় হাসপাতাল র্কতৃপক্ষ। বিস্ফোরণের সময় হাসপাতালে ২৫ জন কর্মী ছিলেন বলেও জানা যায়। যে কজন রোগী বিস্ফোরণের জেরে প্রাণ হারান তাঁদের পরিবারের প্রতি সমবেদনা জানায় হাসপাতাল র্কতৃপক্ষ। এই ঘটনার ঠিক দু’দিন আগেই তেহরানের মিলিটারি ফেসিলিটিতেও বিস্ফোরন হয়েছিল। তবে সেদিনের ঘটনায় কোন হতাহতের খবর পাওয়া যায়নি।

[আরও পড়ুন:অ্যাপ বন্ধের ‘বদলা’! ভারতীয় সংবাদপত্র ও ওয়েবসাইটের অ্যাক্সেস বন্ধ করল চিন]

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement