BREAKING NEWS

৫ আষাঢ়  ১৪২৮  রবিবার ২০ জুন ২০২১ 

READ IN APP

Advertisement

‘রামায়ণের কোনও বাস্তব ভিত্তি নেই’, নেপালের মন্ত্রীর মন্তব্যে ফের বিতর্ক

Published by: Paramita Paul |    Posted: July 16, 2020 12:59 pm|    Updated: July 16, 2020 1:16 pm

Nepal again claims the Ramayana is not true, sparks debate

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: রামায়ণ (Ramayana) নিয়ে বিতর্ক যেন থামতেই চাইছে না। অনেক কাঠ-খড় পুড়িয়ে অযোধ্যায় রামন্দির নির্মাণ সবেমাত্র শুরু হয়েছে। ঠিক এমন সময় রামকে ‘নেপালি‘ বলে দাবি করে বসছেন নেপালের (Nepal) প্রধানমন্ত্রী কেপি শর্মা অলি। আর তাঁর হয়ে সাফাই গাইতে গিয়ে বিতর্ক আরও বাড়িয়ে দিলেন সেদেশের বিদেশমন্ত্রী প্রদীপ গিওয়ালি। তাঁর কথায়, “কেবল বিশ্বাসের ভিত্তিতে আমরা রামায়ণকে অনুসরণ করে চলেছি। এর কোনও বাস্তব ভিত্তি নেই। বরং ভারত-নেপাল দু দেশে, এ নিয়ে বিস্তর গবেষণা চালাচ্ছে। সেই গবেষণা ফল মিললে আসল সত্য উদঘাটিত হবে।” আর নেপালের এই একের পর বিতর্কিত মন্তব্যে ব্যাপক চটেছেন ভারতীয় ধর্মীয় প্রতিষ্ঠানের সদস্যরা।

অযোধ্যার সাধুসন্তদের পরে এবার বাবরি মামলার একজন বাদী ইকবাল আনসারি বলেন, “অলি যা শুরু করেছেন, তাতে ভগবান হনুমানজি যদি রেগে যান তাহলে নেপালের রক্ষা নেই। গদার এক আঘাতে নেপালকে ধ্বংস করে দেবেন। ” আরেক মুসলিম নেতা আলেম মওলানা সাইফ আব্বাসও অলির অযোধ্যা বক্তব্যের নিন্দা করেছেন। তাঁর কথায়, “এমন মন্তব্য দুর্ভাগ্যজনক।” আব্বাসের ধারণা, ভারতে অশান্তি সৃষ্টির লক্ষ্যে চিন ও পাকিস্তানের অঙ্গুলি হেলনেই এমন আলটপকা মন্তব্য করছেন কেপি শর্মা অলি। তাঁর এই মন্তব্য দ্রুত প্রত্যাহার করা উচিৎ বলেও মনে করেন আলেম মওলানা। তবে নেপাল যে এত সহজে বিতর্ক মেটাবে না তাঁদের বিদেশমন্ত্রীর মন্তব্যেই স্পষ্ট।

[আরও পড়ুন : তালিবানের শর্ত মেনে আফগানিস্তানে ৫টি সেনাঘাঁটি বন্ধ করল আমেরিকা]

নিজের বক্তব্যের পক্ষে সওয়াল করতে গিয়ে নেপালের বিদেশমন্ত্রী আরও বলেন, আমরা জানি সীতার (Sita) জনকপুরে (Janakpur) জন্ম। রাম জন্মেছিলেন অযোধ্যায় (Ayodhya)। কিন্তু, যেদিন গবেষণা এর বাইরে অন্য কিছু প্রমাণ করবে, সেদিন রামায়ণের ইতিহাস (History of Ramayana) নিজেই বদলে যাবে। তাঁর এই মন্তব্য শুনে নেটিজেনদের কটাক্ষ, কলিযুগে নতুন করে ইতিহাস লিখতে চায় নেপাল (Nepal)।

[আরও পড়ুন : জোড়া বিপদে ব্রাজিলের প্রেসিডেন্ট! পাখির কামড় খেলেন করোনা আক্রান্ত বলসোনারো]

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement