২২  শ্রাবণ  ১৪২৯  মঙ্গলবার ৯ আগস্ট ২০২২ 

READ IN APP

Advertisement

Advertisement

করোনা থেকেও ‘শিক্ষা’ নিল না চিন, ফের শুরু হল কুকুরের মাংস খাওয়ার মেলা

Published by: Sucheta Chakrabarty |    Posted: June 23, 2020 8:10 pm|    Updated: June 23, 2020 8:10 pm

No lesson from Corona, again dog meat festival started in China

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: করোনা আবহেই কুকুরের মাংস খাওয়ার উৎসব শুরু হয়েছে চিনে। দক্ষিণ পশ্চিম চিনের ইউলিন শহরে টানা ১০ দিন এই মেলা চলবে বলেই জানা যায়। বেজিং (Beijing)-এ ফের করোনার দাপট দেখা দেওয়ার পরও এই মেলা শুরু হওয়ায় হতবাক অনেকেই।

শুধুমাত্র বাদুড় নয়, পোষ্য প্রাণী কুকুরের মাংস খাওয়ারও প্রচলন রয়েছে চিনে। শুধু খাদ্যাভাসই নয়, এই মাংস নিয়ে ফি বছর মেলাও বসে দক্ষিণ পশ্চিম চিনের ইউলিন (Yulin) শহরে। সম্প্রতি এই মেলা শুরু হয়েছে। প্রতি বছর হাজার হাজার মানুষের সমাগম হয় মেলাতে। সেখানে যেমন নানা পদের খাবার বিক্রি হয়, তেমনই খাঁচায় আটকানো কুকুরও বিক্রি হয়। অনেকেই সেই কুকুর কিনে নিয়ে যান বাড়িতে। তবে প্রতি বছর হলেও এই বছরটা যে বাকিগুলোর থেকে আলাদা তা আগেই বোঝা উচিত ছিল চিনা প্রশাসনের। কিন্তু কোনও কিছুকে ভ্রুক্ষেপ না করেই এবছরও শুরু হল কুকুরের মাংস খাওয়ার মেলা। বহুবার পশুপ্রেমীদের তরফ থেকে এই মেলা বন্ধ করার দাবি জানানো হলেও এখনও তা রমরমিয়ে চলছে।

[আরও পড়ুন:রাজ্যে ২৪ ঘণ্টায় করোনাজয়ী ৫৩১ জন, সুস্থতার হার ৬২ শতাংশেরও বেশি]

গত বছরের শেষের দিকে চিনের ইউহান শহর থেকেই বিশ্বে করোনা ভাইরাস ছড়িয়ে পড়ে। গত বছরে সংক্রমণ ছড়ানোর জন্য চিনে বাদুড়ের মাংস খাওয়াকেই দায়ী করা হয়। এমনকী চলতি মাসে বেজিং-এ ফের সংক্রমণ ছড়ানোর জন্য পাইকারি মাংসের বাজারকেই দায়ী করা হয়। তারপরও চিনের স্থানীয়দের তথা সরকারের কোনও ভ্রুক্ষেপ নেই। অবাধে শুরু হয়েছে কুকুরের মাংস খাওয়ার মেলা। সূত্রের খবর, করোনা সংক্রমণ শুরু হওয়ার পর চিনে বাদুড়, সাপ, প্যাঙ্গোলিন, গিরগিটি ইত্যাদি খাওয়া অনেকটাই কমে গিয়েছে। এরপরে চিন প্রশাসনও বন্যপ্রাণী ব্যবসা বন্ধ করার সিদ্ধান্ত নিয়েছে বলে জানা যায়। গত এপ্রিলেই শেনজেন শহরে কুকুরের মাংস খাওয়া নিষিদ্ধ হয়। কিন্তু ইউলিন শহরে এই বছরও অব্যাহত রয়েছে উৎসব।

[আরও পড়ুন:আশঙ্কাই সত্যি হল, এবার করোনায় আক্রান্ত বিশ্বের এক নম্বর টেনিসতারকা নোভাক জকোভিচ]

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে