BREAKING NEWS

৬ মাঘ  ১৪২৮  বৃহস্পতিবার ২০ জানুয়ারি ২০২২ 

READ IN APP

Advertisement

কোথায় সেই সামরিক আস্ফালন? ম্যাড়মেড়ে কিমের দেশের কুচকাওয়াজ

Published by: Tanujit Das |    Posted: September 9, 2018 5:09 pm|    Updated: September 9, 2018 5:09 pm

North Korea holds back on advanced missiles on its 70th anniversary

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: অন্যান্য বছরের তুলনায় এবার কিছুটা অন্যরকমই হল উত্তর কোরিয়ার ৭০তম প্রতিষ্ঠা বার্ষিকীর অনুষ্ঠান৷ অতীতে প্রত্যেকবারই বিশ্বের দরবারে তাঁর সামরিক অস্ত্র ভাণ্ডারের ক্ষমতা প্রদর্শন করেন উত্তর কোরিয়ার সর্বাধিনায়ক কিম জং উন৷ দম্ভের সঙ্গে শত্রুপক্ষকে হুঁশিয়ারি দেন চোখের পলকে ধ্বংস করে দেওয়ার৷ সামনে আনেন পিয়ংইয়ংয়ের পকেটে থাকা সমস্ত অত্যাধুনিক ক্ষেপণাস্ত্র ও পারমাণবিক অস্ত্রকে৷ তবে এবার, তেমন কিছুই হল না৷ কার্যত একঘেয়ে ভাবেই দেশের প্রতিষ্ঠা বার্ষিকী পালন করলেন কিম৷ প্রকাশ্যে আনলেন না অর্ধেকের বেশি অস্ত্রশস্ত্র৷ তুলে ধরলেন নাগরিক দরদি রূপ৷

[দেশে আতঙ্কের পরিবেশ তৈরি হয়েছে, ট্রাম্পকে তোপ ওবামার]

প্রত্যেকবারের মতো এবারও সেনার কুচকাওয়াজ দেখতে যান উত্তর কোরিয়ার সর্বাধিনায়ক কিম জং উন৷ এবার কোনও প্রকারের বক্তৃতা দেননি তিনি৷ প্রত্যেকবার এই কুচকাওয়াজ পরবর্তী বক্তৃতা থেকেই আমেরিকা, জাপান ও দক্ষিণ কোরিয়ার মতো দেশের বিরুদ্ধে বিষোদগার করতে দেখা যায় তাঁকে৷ তবে এবার ব্যতিক্রমী রইলেন তিনি৷ এখানেই শেষ নয়৷ এই অনুষ্ঠানেই উত্তর কোরিয়া সর্বাধুনিক অস্ত্রশস্ত্র প্রদর্শন করে৷ তবে এবার তেমন কিছুই হয়নি বলে সংবাদ মাধ্যম সূত্রে খবর৷ সূত্রের খবর, তাঁদের অস্ত্রাগারের অর্ধেকের বেশি ক্ষেপণাস্ত্র প্রকাশ্যে আনেননি কিম৷ বরং, কুচকাওয়াজের অর্ধেক অংশে তুলে ধরেছেন দেশের জনমোহিনী ছবি৷

[ভারতকে ভরতুকি বন্ধের পথে আমেরিকা, তালিকায় রয়েছে চিনও]

এখন প্রশ্ন উঠছে, কেন এমন ম্যাড়মেড়ে প্রতিষ্ঠা বার্ষিকী পালন করলেন কিম৷ আন্তর্জাতিক বিশেষজ্ঞদের মতে, এর একমাত্র কারণ হতে পারে নিরস্ত্রীকরণ চুক্তি৷ যা নিয়ে উত্তর কোরিয়াকে যথেষ্ট চাপে রেখেছে আমেরিকা৷ অভিযোগ উঠেছে, সকলের অলক্ষ্যে এখনও পারমাণবিক কর্মকাণ্ড চালিয়ে যাওয়ার৷ এমনকি রাষ্ট্রসংঘ পর্যন্ত পিয়ংইয়ংয়ের সঙ্গে বাণিজ্য বন্ধ করার নির্দেশ দিয়েছে একাধিক দেশকে৷

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে