BREAKING NEWS

১২ কার্তিক  ১৪২৭  শুক্রবার ৩০ অক্টোবর ২০২০ 

Advertisement

ভারচুয়াল বিতর্কে ‘না’ ট্রাম্পের, বাতিল হয়ে গেল আমেরিকার দ্বিতীয় প্রেসিডেন্সিয়াল ডিবেট

Published by: Subhajit Mandal |    Posted: October 10, 2020 11:40 am|    Updated: October 10, 2020 11:40 am

An Images

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: প্রেসিডেন্ট ডোলান্ড ট্রাম্পের একগুয়েমির জের। বাতিল হয়ে গেল আমেরিকার দ্বিতীয় ‘প্রেসিডেন্সিয়াল ডিবেট’ (Presidential Debate)। সদ্য করোনা’মুক্ত’ ট্রাম্প ভারচুয়াল বিতর্কে রাজি না হওয়ায় এই নির্বাচনের দ্বিতীয় প্রেসিডেন্সিয়াল ডিবেট বাতিল করতে বাধ্য হল ডিবেট কমিশন।

আগামী ১৫ অক্টোবর মায়ামিতে রিপাবলিকান শিবিরের প্রেসিডেন্ট পদপ্রার্থী ডোনাল্ড ট্রাম্প (Donald Trump) এবং ডেমোক্র্যাটিক প্রার্থী জো বিডেনের (Joe Biden) মধ্যে প্রেসিডেন্সিয়াল ডিবেট আয়োজিত হওয়ার কথা ছিল। কিন্তু এর মধ্যে প্রেসিডেন্ট ট্রাম্প করোনা (CoronaVirus) আক্রান্ত হন। আমেরিকার নিয়ম অনুযায়ী ১৫ অক্টোবর পর্যন্ত কোয়ারেন্টাইনেই থাকার কথা মার্কিন প্রেসিডেন্টের। সেকারণেই ডিবেট কমিশন চাইছিল, দুই প্রেসিডেন্ট পদপ্রার্থীর এই বিতর্ক হোক ভারচুয়ালি। কিন্তু ট্রাম্প কোয়ারেন্টাইনের নিয়ম না মেনে তিনদিন বাদেই হাসপাতাল থেকে ছুটি নিয়ে নিয়েছেন। এবং ভোটের প্রচারে নামার প্রস্তুতি শুরু করে দিয়েছেন। আর তাছাড়া ভারচুয়াল বিতর্ক তাঁর না-পসন্দ। মার্কিন প্রেসিডেন্ট চাইছিলেন ডিবেট হোক মুখোমুখি। তিনি সাফ জানিয়ে দিয়েছেন, “ভারচুয়াল ডিবেট আমার কাছে কোনওভাবেই গ্রহণযোগ্য নয়। ভারচুয়াল ডিবেটে গিয়ে আমি আমার সময় নষ্ট করতে পারব না।” অন্যদিকে বিডেন আবার ঝুঁকি নিয়ে সামনাসামনি ডিবেটে রাজি ছিলেন না। তাঁর সাফ কথা “আমি চাই ট্রাম্প পুরোপুরি সুস্থ হয়েই ফের বিতর্কে অংশগ্রহণ করুন। এক্ষেত্রে সমস্ত করোনা প্রোটোকল অনুসরণ করা না হলে ডিবেট চালানো অসম্ভব।”

[আরও পড়ুন: করোনা আক্রান্ত হয়েও হয়নি সুমতি, ভারচুয়াল প্রেসিডেন্সিয়াল ডিবেটে ‘না’ ট্রাম্পের]

দুই পক্ষের এই অনড় মনোভাবের জন্য শেষপর্যন্ত এই বিতর্কই বাতিল করে দিতে হল। শনিবার ডিবেট কমিশনের তরফে এক বিবৃত্তিতে জানানো হয়েছে,”আগামী ১৫ অক্টোবর যে কোনও ডিবেট হচ্ছে না, সেটা স্পষ্ট হয়ে গিয়েছে। তাই কমিশন অন প্রেসিডেন্সিয়াল ডিবেট এবার সর্বশেষ ডিবেটের জন্য প্রস্তুতি শুরু করে দিচ্ছে।” উল্লেখ্য, আগামী ২২ অক্টোবর দুই প্রেসিডেন্ট পদপ্রার্থীর মধ্যে তৃতীয় তথা সর্বশেষ ডিবেট অনুষ্ঠিত হওয়ার কথা। ততদিনে ট্রাম্পের কোয়ারেন্টাইনের মেয়াদও সরকারিভাবে শেষ হয়ে যাবে। সুতরাং সেই ডিবেট সামনা-সামনিই হওয়ার কথা। আপাতত সেদিকেই তাকিয়ে আমেরিকাবাসী।

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement