১৬ অগ্রহায়ণ  ১৪২৮  শুক্রবার ৩ ডিসেম্বর ২০২১ 

READ IN APP

Advertisement

দেশে ফিরল না ঐতিহাসিক সামগ্রী, লন্ডনে নিলামে উঠল টিপুর বন্দুক ও হায়দারের তলোয়ার

Published by: Bishakha Pal |    Posted: March 28, 2019 10:52 am|    Updated: March 28, 2019 10:52 am

The gun of Tipu Sultan, sword of Hyder Ali auctioned in Britain

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: অনেক চেষ্টাতেও সুফল মিলল না। ২২০ বছর আগে চুরি যাওয়া টাইগার অফ মাইসোর টিপু সুলতানের অস্ত্র ফেরানো গেল না দেশে। লন্ডনের নিলাম ঘরে ৬০ হাজার পাউন্ডে বিক্রি হল রুপোর বেয়নেটওয়ালা টিপু সুলতানের ২০ বোর ফ্লিনটক বন্দুক। যা সম্ভবত টিপু সুলতান নিজেই ব্যবহার করেছিলেন শ্রীরঙ্গপত্তনমের যুদ্ধে ইংরেজ সেনাদের বিরুদ্ধে। কেন না সেই যুদ্ধে টাইগার অফ মাইসোরের পতনের পর টিপুর অস্ত্রভাণ্ডার লুট করে যেসমস্ত অস্ত্র চুরি করা হয়েছিল, এই বন্দুক ঠিক সেগুলির মতো নয়। এ বন্দুকে রীতিমতো ব্যবহারের চিহ্ন রয়েছে। রয়েছে যুদ্ধক্ষেত্রের মারাত্মক সব আঘাতের চিহ্নও। যার জেরে ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে বন্দুকের বাঁট নলের কিছু অংশ। আর তাতেই টিপুর অস্ত্রভাণ্ডারের অন্যান্য অস্ত্রের চেয়ে দর বেড়েছে এই বন্দুকের। শেষবার হাতুড়ির আঘাত পড়ার আগে ১৪ বার দর বেড়েছে এই বন্দুকের। শেষে বিক্রি হয়েছে ৬০ হাজার পাউন্ডে।

ওই বন্দুকের সঙ্গে নিলামে উঠেছিল একটি তলোয়ারও। তাতে সোনা দিয়ে খোদাই করা হায়দার আলির নাম। অর্থাৎ টিপুর বাবা মাইসোরের সুলতান হায়দার আলির তলোয়ার ছিল সেটি। যা ১৭৯৯ সালে টিপুর মৃত্যুর পর টিপুর অস্ত্রাগার কিংবা যুদ্ধক্ষেত্র থেকে ইংল্যান্ডে নিয়ে আসেন ইস্ট ইন্ডিয়া কোম্পানির মেজর থমাস হার্ট। সেই তলোয়ার লন্ডনের নিলাম ঘরে বিক্রি হল ১৮,৫০০ পাউন্ডের বিনিময়ে। হার্ট টিপুর বন্দুক আর তলোয়ারের পাশাপাশি লুট করেছিলেন টিপুর ব্যক্তিগত সংগ্রহের মুক্তখচিত পানের একটি রেকাবিও। সেটি নিলাম ঘরে বিক্রি হয়েছে ১৭,৫০০ পাউন্ডে। সব মিলিয়ে আটটি জিনিসের সংগ্রহ নিলামে উঠেছিল এদিন। এর মধ্যে খোদ মেজর হার্টের একটি ইস্ট ইন্ডিয়া কোম্পানির সিলমোহর দেওয়া আংটিও ছিল। সেটি ২৮০০ পাউন্ডে বিক্রি হয়েছে নিলামে।

[ আরও পড়ুন: জঙ্গিদমনে ফের বড় সাফল্য ভারতীয় সেনার, উপত্যকায় নিকেশ ৩ জেহাদি ]

তবে এর মধ্যে টিপু সুলতানের জিনিসগুলি ভারতে ফিরিয়ে নিয়ে যাওয়ার ব্যাপারে রীতিমতো উদ্যোগী হয়েছিলে লন্ডনে ভারতীয় হাই কমিশনের কর্তারা। সম্প্রতি ভারত থেকে ব্রিটেনে আসা বহুমূল্য এবং ঐতিহাসিক তাৎপর্য্য পূর্ণ জিনিস ফেরানোর ব্যাপারে একটি প্রোগ্রাম চালু করা হয়েছিল। নাম ইন্ডিয়া প্রাইড প্রজেক্ট। সেই প্রকল্পের অধীনেই জিনিসগুলি ফেরত চেয়েছিলেন প্রকল্পের আয়োজক অনুরাগ সাক্সেনা। তিনি জানিয়েছেন, বহুবার এব্যাপারে নিলাম ঘরের সঙ্গে কথা বলেও কোনও সুরাহা হয়নি। অনুরাগ জানিয়েছেন, পুরনো উপনিবেশকে যদি ব্রিটেন তাদের প্রাপ্য ফিরিয়ে নাই দেয়, তবে আর কি ঔপ্যনিবেশকিতার উচ্ছেদ হল? কিন্তু, সেকথায় বা প্রকল্পের নীতিতে কর্ণপাত করতে চাননি নিলাম ঘর কর্তৃপক্ষ। বার্কশায়রে যে পরিবারটি তাঁদের চিলেকোঠায় টিপুর অস্ত্রভাণ্ডারের ওই অস্ত্র গুলি উদ্ধার করে, তাদের সঙ্গে কথা বলে নিলাম ঘরের তরফে জানানো হয়েছে, এই সব সামগ্রী নিলামে তোলার ক্ষেত্রে কোনওভাবেই আইন ভাঙা হচ্ছে না। আর পরিবারটিও চায় জিনিসগুলি কোনও না কোনওদিন ভারতে গিয়েই পৌঁছাক। তবে আপাতত এব্যাপারে ভারতকে সাহায্য করতে পারছে না তারা।

[ আরও পড়ুন: গুজরাটে বড়সড় পাচারচক্রের পর্দাফাঁস, পাঁচশো কোটির হেরোইন-সহ গ্রেপ্তার ৯ ]

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে