BREAKING NEWS

১৪ আশ্বিন  ১৪২৭  বৃহস্পতিবার ১ অক্টোবর ২০২০ 

Advertisement

করোনার কোপ, ভারতীয় চাকুরিজীবীদের ভিসা দেওয়া বন্ধ করতে জোর আলোচনা আমেরিকায়

Published by: Paramita Paul |    Posted: June 13, 2020 9:07 am|    Updated: June 13, 2020 9:07 am

An Images

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: চাকরির বাজারে কোপ পড়েছে বিশ্বব্যাপী মহামারীর। করোনার জেরে বিদেশে চাকরির স্বপ্নও আপাতত শিকেয় উঠেছে। বেকারত্বরের ধাক্কায় তথ্য-প্রযুক্তি শিল্পের স্বর্গরাজ্য আমেরিকাতে প্রবেশের পথ বন্ধ হতে চলেছে। মার্কিনিদের চাকরির সংস্থান করতে বন্ধ করা হতে পারে এইচ ওয়ান বি (H-1B)-সহ একাধিক ভিসা। আমেরিকার সংবাদমাধ্যমের এক সাম্প্রতিক রিপোর্ট এই আশঙ্কা আরও উসকে দিয়েছে। জানা গিয়েছে, এ নিয়ে ইতিমধ্যে আলোচনাও শুরু হয়ে গিয়েছে।কয়েক সপ্তাহের মধ্যে এই নির্দেশিকায় স্বাক্ষর করতে পারেন ডোনাল্ড ট্রাম্প। মার্কিন প্রেসিডেন্ট  তবে এইচ ওয়ান বি ভিসার পাশাপাশি এইচ টু বি ভিসা দেওয়াও আপাতত স্থগিত রাখা হতে পারে বলে জানানো হয়েছে। ওই ভিসা নিয়ে অনেক কর্মী অল্পদিনের জন্য আমেরিকায় কাজ করতে আসেন।

করোনার জেরে সবচেয়ে বেশি ক্ষতিগ্রস্ত আমেরিকা। সবচেয়ে বেশি সংক্রমণ ও মৃত্যু দেখেছে মার্কিন মুলুক। আর তার জেরেই আমেরিকা জুড়ে ব্যাপকভাবে বেকারত্ব বেড়েছে। সেজন্য কিছুদিনের জন্য কাউকে এইচ ওয়ান বি (H-1B) ভিসা না দেওয়ার কথা ভাবছেন মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প (Donald Trump)। প্রসঙ্গত, ভারতের তথ্যপ্রযুক্তি কর্মীরা অনেকে ওই ভিসা নিয়ে আমেরিকায় কাজ করেন। ইতিমধ্যে কয়েক হাজার ভারতীয় ওই ভিসা পাওয়ার জন্য মার্কিন সরকারের কাছে আবেদন করেছেন। কিন্তু রিপোর্ট বলছে, মার্কিন প্রেসিডেন্ট সম্ভবত কোনও বিদেশিকেই আপাতত আমেরিকায় কাজ করার অনুমতি দেবেন না।

[আরও পড়ুন: কাশ্মীরকে ভারতের অংশ হিসেবে স্বীকারের জের, কাজ হারালেন পাকিস্তানের দুই সাংবাদিক]

১ অক্টোবর থেকে আমেরিকায় আর্থিক বছর শুরু হয়। ওই সময় নতুন ভিসা ইস্যু করা হয়। কিন্তু ওয়াল স্ট্রিট জার্নাল জানিয়েছে, নতুন আর্থিক বছরেও সম্ভবত কাউকে ভিসা দেওয়া হবে না। এইচ ওয়ান বি (H-1B) ভিসা চেয়ে যাঁরা আবেদন করেছেন, তাঁরাও আমেরিকায় কাজ করতে আসার অনুমতি পাবেন না। তবে যে ভিসা হোল্ডাররা এখন আমেরিকায় আছেন, তাঁদের নিয়ে কোনও সিদ্ধান্ত এখনও হয়নি।প্রসঙ্গত, এই ভিসা নিয়ে কাজ করতে আসা অনেক ভারতীয়ই ইতিমধ্যে কাজ হারিয়েছেন। এ প্রসঙ্গে হোয়াইট হাউসের মুখপাত্র হোগান জিডলে বলেন, “সরকার অনেকগুলি সম্ভাবনা খতিয়ে দেখছে। কেরিয়ার এক্সপার্টরা নানা ফর্মুলা তৈরি করেছেন। আমেরিকার কর্মী ও বেকারদের স্বার্থেই সিদ্ধান্ত নেওয়া হবে।”

[আরও পড়ুন: করোনা আক্রান্ত মার্কিনীর শরীরে সফল ফুসফুস প্রতিস্থাপন, বিরল কৃতিত্ব ভারতীয় বংশোদ্ভূত ডাক্তারের]

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement