BREAKING NEWS

৯ আশ্বিন  ১৪২৭  সোমবার ২৮ সেপ্টেম্বর ২০২০ 

Advertisement

করোনা পরিস্থিতি সামলে নেবে ভারত, উদ্বেগের মধ্যেও সাহস জোগাচ্ছে WHO’র মন্তব্য

Published by: Sulaya Singha |    Posted: July 24, 2020 12:50 pm|    Updated: July 24, 2020 12:50 pm

An Images

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: অতিমারীর জেরে দীর্ঘদিন ধরে বিপর্যস্ত জীবনের স্বাভাবিক ছন্দ। যতদিন যাচ্ছে, ততই ভয়ংকর হচ্ছে বিশ্বের রূপ। আর গোটা দুনিয়ায় সবচেয়ে সংকটজনক পরিস্থিতি আমেরিকা, ব্রাজিল এবং ভরতের। সংক্রমণের নিরিখে যথাক্রমে প্রথম, দ্বিতীয় ও তৃতীয় স্থানে রয়েছে এই তিন দেশ। তবে বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার (WHO) মতে, করোনা ভাইরাসের প্রকোপ ঠিক সামলে নিতে পারবে এই তিনটি দেশ।

বৃহস্পতিবার হু’র এমার্জেন্সি প্রোগামের প্রধান ড. মাইকেল রায়ান বলেন, “আমেরিকা, ব্রাজিল এবং ভারতে করোনার (Coronavirus) প্রভাব বেড়ে চলেছে ঠিকই। তবে ওরা শক্তিশালী দেশ। আভ্যন্তরীণ ক্ষমতার জোরে এই রোগের সঙ্গে লড়াই করতে পারবে ওরা। এমন কঠিন পরিস্থিতিও ঠিক সামলে নেবে।”

[আরও পড়ুন: ‘চরবৃত্তি ও তথ্যচুরির কেন্দ্র হিউস্টনের চিনা দূতাবাস’, তোপ মার্কিন বিদেশ সচিবের]

আমেরিকায় গত ২৪ ঘণ্টায় আক্রান্ত হয়েছেন ৭৬ হাজার ৫৭০ জন। করোনায় মৃত্যু হয়েছে ১,২২৫ জনের। ফলে মার্কিন মুলুকে মোট আক্রান্তের সংখ্যা বেড়ে দাঁড়িয়েছে ৪১ লক্ষ ৬৯ হাজার ৯৯১-য়। এখনও পর্যন্ত ১ লক্ষ ৪৭ হাজার ৩৩৩ জনের প্রাণ কেড়েছে এই মারণ ভাইরাস। গত ২৪ ঘণ্টায় ভারতের পরিসংখ্যানও উদ্বেগ বাড়িয়েছে। প্রায় ৫০ হাজার মানুষ একদিনে কোভিড পজিটিভ হয়েছেন। মৃত্যু হয়েছে ৭৪০ জনের। ফলে লাফিয়ে বাড়ছে সংক্রমণ। তবে তারই মধ্যে WHO’র মন্তব্য এই কঠিন লড়াইয়ে সাহস জোগাচ্ছে বইকী।

তবে আমেরিকা কিংবা ভারত পরিস্থিতি সামাল দিতে পারলেও করোনার ভ্যাকসিন নিয়ে সন্তোষজনক কিছু শোনা যায়নি WHO’র তরফে। বুধবার মাইকেল রায়ান জানিয়েছিলেন, এখনই করোনার প্রতিষেধক হাতে পাওয়ার আশা না করাই ভাল। অন্তত ২০২১-এর শুরুর দিক পর্যন্ত। তিনি বলেন, করোনা ভ্যাকসিন তৈরির লক্ষ্যে গবেষকরা অনেকটাই এগিয়েছেন। কিন্তু আগামী বছরের আগে বাজারে তা আসার প্রত্যাশা না করাই বুদ্ধিমানের কাজ হবে।

[আরও পড়ুন: বাজার ছেয়ে ফেলেছে কোভিড টেস্টের নকল কিট, আশঙ্কার কথা শোনাল ইন্টারপোল]

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement